গাড়ি কিনলেই মিলবে আড়াই লাখ টাকা পর্যন্ত ভর্তুকি, নতুন বছরের শুরুতে দুর্দান্ত অফার আনল TATA

একাধিক নতুন নতুন চমকে জর্জরিত হয়ে রয়েছে আমাদের এই নতুন বছর। এবার গাড়ি প্রেমিকদের জন্য বিরাট বড় ছাড় দিতে চলেছে মহারাষ্ট্র সরকার। গত বছরের শেষের দিকে বৈদ্যুতিক যান সংক্রান্ত নীতিতে মহারাষ্ট্র সরকার বৈদ্যুতিক যান কেনাতে একটি বিরাট ভর্তুকি ঘোষণা করেছিল। এবার আরও একধাপ এগিয়ে চলতি বছরের ৩১ শে মার্চ পর্যন্ত বৈদ্যুতিক গাড়ির কেনাকাটাতে এক লক্ষ টাকা ভর্তুকি ঘোষণা করেছে সরকার।

অর্থাৎ দুটি ভর্তুকি মিলিয়ে আপনি গাড়ি কেনাবেচার মধ্যে পেয়ে যাবেন আড়াই লক্ষ টাকার ভর্তুকি। তবে শুধুমাত্র বর্তমানে Tata Tigor EV এবং Nexon EV কেনাবেচার ক্ষেত্রে এই ভর্তুকি পাবেন আপনি। এদিকে ভারতে বিক্রি হওয়া অন্যান্য গাড়ি যেমন Hyundai Kona, MG ZS EV, Jaguar I-Pace এবং Audi e-tron এই ছাড় পাচ্ছে না কারণ এই গাড়িগুলি 30kW-R এর ক্ষমতাসম্পন্ন ব্যাটারি সহযোগে আসে।

এই ব্যাটারি ভর্তুকি পাবার যোগ্য নয়। পাশাপাশি, দুটি চাকার গাড়ি সহ সমস্ত বৈদ্যুতিক যানবাহনের ক্রয়ের ওপর সরকারকর্তৃক রোড ট্যাক্স এবং রেজিস্ট্রেশন ফি মকুব পরিয়ে দেওয়া হয়েছে। এছাড়াও কেউ যদি রাজ্য অনুমোদিত স্ক্যাপইয়ার্ডে পুরনো গাড়ি বাতিল করেন, তাহলে মহারাষ্ট্র সরকার কর্তৃক সেই ব্যক্তি পেয়ে যাবেন ২৫ হাজার টাকার ছাড়। অপরদিকে ব্যাটারি ক্ষমতা অনুসারে বৈদ্যূতিক চাকার গাড়ির ক্ষেত্রেও থাকবে কিছু ভর্তুকির সুবিধা।

তবে দিল্লি সরকার ১ হাজার বৈদ্যুতিক গাড়িতে ভর্তুকি দেওয়া লক্ষ্যমাত্রা পূরণ করতেই আপাতত ভর্তুকি তুলে দিয়েছেন। মহারাষ্ট্র সরকার বৈদ্যুতিক গাড়ির ওপর আপাতত ১০ হাজার টাকার ভর্তুকির লক্ষ্যমাত্রা রেখেছে।

প্রসঙ্গত, বিশ্বব্যাপী সেমিকন্ডাক্টর চিপের ঘাটতির কারণে বর্তমানে গাড়ি উৎপাদন মারাত্মকভাবে ক্ষতিগ্রস্ত হচ্ছে ফলে গ্রাহকরা গাড়ি ডেলিভারি সময়মতো পাচ্ছেন না।