নতুন খবরবিশেষলাইফ স্টাইল

করোনা ভাইরাসের জেরে শুধু আমেরিকাতেই মৃত্যু হতে পারে তিন লাখ মানুষের, তথ্য প্রকাশ হোয়াইট হাউসের…

করোনা ভাইরাসের (COVID-19) সংক্রমণ রুখতে সারা ভারত জুড়ে পালিত হচ্ছে 21 দিনের লকডাউন (Lockdown)। এই সময় জরুরী পরিষেবা ছাড়া আর কিছুই পাওয়া যাবে না বলে ঘোষণা করে দিয়েছে কেন্দ্রীয় সরকার। যেহেতু এখনো পর্যন্ত এই করোনা ভাইরাস মোকাবেলা করার কোন প্রতিষেধক ওষুধ নেই সেহেতু লকডাউন একমাত্র উপায় রয়েছে এই ভাইরাসের সংক্রমণকে ছড়িয়ে পড়ার হাত থেকে দেশকে রক্ষা করার। তবে এবার এই COVID-19 কে নিয়ে চাঞ্চল্যকর নতুন তথ্য প্রকাশ করল আমেরিকা।

এই বিষয়ে মার্কিন প্রশাসনের দাবি এই ভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে শুধুমাত্র আমেরিকায় মৃত্যু হতে পারে এক লক্ষ থেকে 2 লক্ষ 40 হাজার পর্যন্ত মানুষের। এ মুহূর্তে আমেরিকাতে সামাজিক দূরত্ব বজায় রাখার সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে, যদি সেটাকে মেনে চলা হয় তাহলে এমন মৃত্যুর সংখ্যাটা আশঙ্কা করা হচ্ছে। আর এক্ষেত্রে যদি সামাজিক দূরত্ব বোঝায় না করে সেখানকার জনগণ তাহলে সে ক্ষেত্রে সংখ্যা আরো বেশি হতে পারে এমনটাই দাবি তাদের প্রশাসনের।

যেমনটা আমরা জানি ইউরোপের পর এখন করোনার ভারকেন্দ্র হয়ে উঠেছে আমেরিকা তাই, আমেরিকাতে লাফিয়ে লাফিয়ে বাড়ছে করোনা আক্রান্তের সংখ্যা। সেখানকার প্রশাসন হিমশিম খাচ্ছে স্বাস্থ্য পরিষেবা দিতে। এই মুহূর্তে মার্কিন মুলুকে আক্রান্তের সংখ্যা বেড়ে দাঁড়িয়েছে 1 লক্ষ 85 হাজারেরও বেশি এবং সেখানে এই ভাইরাসের দরুন মৃতের সংখ্যা দাঁড়িয়েছে প্রায় 4000। তাই এরকম এক বিপদজনক পরিস্থিতিতে দেশজুড়ে আরো একমাস লকডাউন জারি করা সিদ্ধান্ত নিয়েছেন সেখানকার প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প।

এর আগে সেখানে ডোনাল্ড ট্রাম্প সামাজিক দূরত্ব বোঝায় রাখার পরামর্শ দিয়েছিলেন এবং 15 দিনের জন্য সেটি মেনে চলার পরামর্শ দিয়েছিলেন তবে গত সোমবার দিন তার মেয়াদ শেষ হয়ে যাওয়ার পর পরিস্থিতি বুঝে উল্টে আরো এক মাসের জন্য বাড়ানো হয়েছে নিষেধাজ্ঞাকে। শুধু তাই নয় এ ক্ষেত্রে মার্কিন প্রশাসনের দাবি সামাজিক দূরত্ব মানলে অন্তত 1 থেকে তিন লক্ষ মানুষের মৃত্যু হতে পারে এই ভাইরাসের দরুন। আর যে পরিমাণে আমেরিকায় মানুষ আক্রান্ত হয়েছে তার 25% মানুষ এখানে মারা যেতে পারেন এমনটাও আশঙ্কা প্রকাশ করেছেন তিনি।

মঙ্গলবার দিন প্রথম সরকারিভাবে সেই ক্ষয়ক্ষতির সম্ভাব্য খতিয়ান প্রকাশ করলেন মার্কিন প্রশাসন। এই বিষয়ে ট্রাম্প প্রশাসনের ঘনিষ্ঠ চিকিৎসক অ্যান্টনি ফৌসি বলেছেন,এই সংখ্যায় ধরে আমাদের এগোতে হবে তবে এটা ধরে নেওয়া ঠিক না যে এত মানুষ এই আমাদেরকে হারাতে হতে হবে। তবে এক্ষেত্রে কম মানুষ মারা যাওয়াতে আমরা আটকে দিতে পারি এই মহামারীটিকে তবে সে ক্ষেত্রে সকল দেশবাসীকে নিজেদের সঠিকভাবে দায়িত্ব পালন করতে হবে।

প্রসঙ্গত বলে রাখি এর কয়েকদিন আগেই কিন্তু করোনার জেরে আরও ভয়াবহ ক্ষয়ক্ষতির আশঙ্কা করেছিলেন মার্কিন প্রেসিডেন্ট। তিনি জানিয়েছিলেন এই মহামারিতে আমেরিকাতে দশ লক্ষেরও বেশি মানুষ মারা যেতে পারে এবং লক্ষ লক্ষ মানুষ এই ভাইরাসের দ্বারা সংক্রমিত হতে পারে।

Related Articles

Back to top button