আগামী 24 ঘণ্টার মধ্যে আরও নামতে চলেছে তাপমাত্রার পারদ, কলকাতাসহ রাজ্যজুড়ে জাকিয়ে পড়বে হিম করা ঠান্ডা জানালো আবহাওয়া দপ্তর

এই বছর পশ্চিমী ঝঞ্ঝার কারণেই যে শীত আসতে দেরি হচ্ছিল তা আবহাওয়া দপ্তর এর তরফ থেকে আগেই জানিয়ে দেওয়া হয়েছিল।উত্তরের আবহাওয়া বিভিন্ন পশ্চিমী ঝঞ্ঝার কারণে বাধাপ্রাপ্ত হয়ে রাজ্য শীতের আবহাওয়া পৌঁছাতে এবছর দেরি হয়ে গেল।তবে তারই সাথে আবহাওয়া দপ্তরের তরফ থেকে আরও জানানো হয়েছিল যে ডিসেম্বরের পর থেকে কিন্তু এই বাধা আর থাকবে না তার ফলে রাজ্যজুড়ে জাঁকিয়ে পড়বে শীত আর হলো ঠিক তেমনটাই ডিসেম্বরের মাঝামাঝি সময়ের আবহাওয়া বদলে দিল শীতের পরিস্থিতি।

গত 18 ডিসেম্বর থেকে হঠাৎ করে অনেকটাই নেমে গেছে তাপমাত্রার পারদ, এমনকি মরুদেশ রাজস্থানে পর্যন্ত এই বছর বরফ পড়েছে। তারাই সাথে বিভিন্ন পাহাড়ি অঞ্চল সম্পূর্ণ ঢেকে গেছে বরফের চাদরে। রাজ্যজুড়ে শুরু হয়েছে উত্তরের আবহাওয়ার দাপট, ফলে একটা কনকনে পরিস্থিতি লক্ষ্য করা যাচ্ছে গোটা রাজ্যজুড়ে। যেখানে 17 ই ডিসেম্বর কলকাতা তাপমাত্রা ছিল 19 ডিগ্রী সেলসিয়াস সেখানে এখনকার তাপমাত্রা এক ঢাক্কায় কমে গিয়ে দাঁড়িয়েছে 11.7 ডিগ্রী সেলসিয়াসে।

শুধু তাই নয় আগামী 24 ঘণ্টায় আরও নামতে পারে পারদ এমনটাই আশঙ্কা করা হচ্ছে আবহাওয়া দপ্তর এর তরফ থেকে।এরই সাথে আবহাওয়া দপ্তর এর তরফ থেকে জানানো হয়েছে কোন কোন জেলায় বইবে বরফে কনকনে ঠান্ডা বাতাস? যাদের মধ্যে নাম রয়েছে উত্তর 24 পরগনা, বাঁকুড়া, বীরভূম, পুরুলিয়া, দক্ষিণ 24 পরগনা, পূর্ব বর্ধমান, পশ্চিম বর্ধমান, হুগলি, নদীয়া, মুর্শিদাবাদে। আজ শুক্রবার দিন থেকেই বইবে এই শৈত্যপ্রবাহ। তারই সাথে আবহাওয়া দপ্তর এর তরফ থেকে আরও জানানো হয়েছে উত্তরবঙ্গের সব জেলাতেই চলবে এই কনকনে ঠাণ্ডা বাতাস। এমনকি গতকাল বৃহস্পতিবার দিন সারাদিন ধরে চলেছে এই কনকনে বাতাসের তাণ্ডব।

সকলকে কাঁপুনি ধরিয়েছে এই ঠান্ডা হাওয়া। বেশি করে এই শীতের আমেজে দিনে কষ্টকর হয়ে দাঁড়িয়েছে গরিব মানুষদের জন্য হঠাৎ করে এভাবে কনকনে ঠান্ডা জেরে সমস্যায় পড়েছে তারা। এরই সাথে আরো জানিয়ে রাখি যে ইতিমধ্যেই উত্তর- পশ্চিমে রাজ্যগুলিতে শীতের দাপট শুরু হয়ে গেছে। জম্মু কাশ্মীর, হিমাচল প্রদেশ, উত্তরাখণ্ডের শুরু হয়ে গেছে শৈত্যপ্রবাহ। এমনকি উত্তরা ভাগে সিকিম এবং সংলগ্ন এলাকা তো তুষারপাতের ইঙ্গিত দেওয়া হয়েছে আবহাওয়া অফিসের তরফ থেকে।

এই মুহূর্তে আসানসোলের তাপমাত্রা রয়েছে 9.2 ডিগ্রী সেন্টিগ্রেট, বাঁকুড়ার 9.5 ডিগ্রী সেন্টিগ্রেড, পানাগরের 7.6 সেন্টিগ্রেড, ব্যারাকপুরের 10.3 ডিগ্রী, বর্ধমানের 9.3, দিঘাতে 10.8, ও দমদম,পুরুলিয়া, শান্তিনিকেতনে তাপমাত্রা রয়েছে যথাক্রমে 11.3, 8.4, ও 7.8 ডিগ্রী সেন্টিগ্রেড।তবে আগামী 24 ঘণ্টার মধ্যে কলকাতা সহ আরও বিভিন্ন জেলাতেই এই তাপমাত্রার পারদ আরো নামার আশঙ্কা রয়েছে,আর এখন দেখার বিষয় এই দশকের সর্বনিম্ন পারদ পতন 9.9 ডিগ্রি সেলসিয়াস কে হারাতে পারে কিনা সেটাই দেখার।

Related Articles

Close