কুকুরের মতো দেখার শখ! ১১ লক্ষ টাকা খরচ করে মানুষ থেকে কুকুর হলেন এই ব্যক্তি, ছবি দেখে চিনতে পারা মুশকিল

ভালো লাগছিল না মানুষ হয়ে বেঁচে থাকতে। কি করা যায়? পালিয়ে তো যাওয়া যায় না এই পৃথিবী থেকে, তাই একেবারে অন্য পরিচয় গ্রহণ করে বাঁচার সিদ্ধান্ত নিলেন এই ব্যক্তি। মানুষ থেকে হয়ে গেলেন কুকুর। যে পদ্ধতিতে তিনি কুকুর হলেন সেটিও ভীষণ অদ্ভুত। নিশ্চয়ই কয়েকদিন আগেই এই খবরটি বারবার দেখেছেন সোশ্যাল মিডিয়াতেই।

জাপানের এই ব্যক্তি হঠাৎ করেই নিজে মানুষ থেকে কুকুর হয়ে যাওয়ার পর সিদ্ধান্ত গ্রহণ করেছিলেন। ছোটবেলা থেকেই তিনি চাইতেন কোন একটি পশুর জীবন কাটাতে কিন্তু সেটা সম্ভব হয়নি কোনদিন। অবশেষে সেই স্বপ্ন সফল হল। বেছে নিলেন তিনি একটি সারমেয় জীবন। কোলি প্রজাতির একটি কুকুরের মতো চেহারা বানিয়েছিলেন তিনি। মানুষের জীবন ছেড়ে এভাবেই তিনিও জীবন কাটাবেন বলে মনস্থির করেছিলেন।


টোকো নামের এই ব্যক্তি জানিয়েছেন, কোনরকম চিকিৎসা অথবা অস্ত্রোপচারের দ্বারস্থ হয়নি তিনি। তিনি দ্বারস্থ হয়েছিলেন পোশাক নির্মাতা সংস্থার কাছে। সম্পূর্ণ কোলি প্রজাতির একটি কুকুরের মত দেখতে পোশাক বানিয়ে দেওয়ার কথা তিনি আবেদন করেন ওই সংস্থার কাছে। পোশাকটি বানানোর পর যাতে তিনি ওই পোশাকের মধ্যে ঢুকে পড়তে পারেন তেমনি পোশাক বানানোর কথা তিনি আবেদন করেছিলেন।

এই বিশেষ প্রজাতির কুকুরের গায়ে অনেক বড় বড় লোম হয়। ছদ্মবেশের জন্য ভীষণভাবে সুবিধা জনক এই কুকুরের কাঠামো। বেশি লোম থাকার ফলে পোশাকে তলায় যে একটি মানুষ রয়েছে তা সহজে টের পাওয়া যায় না। নতুন এই রূপ ধারণ করার পর তিনি কাউকে কোন কথা বলেননি। সামাজিকভাবে সমস্যা হতে পারে বলেই তিনি নিজেই এই কথা প্রকাশ করেননি।

আলাদাভাবে তিনি কুকুরের বেশের জন্য একটি ইনস্টাগ্রাম অ্যাকাউন্ট করেছেন যেখানে তাঁর নিজের মুখ দেখা যাবে না। পোশাক নির্মাণকারী সংস্থাটি এই পোশাকটির জন্য ভারতীয় মুদ্রায় নিয়েছেন প্রায় ১২ লক্ষ টাকা। এটি তৈরি করতে ব্যবহার করা হয়েছে কোলি প্রজাতির কুকুরের লোম। টানা চল্লিশ দিন কাজ করে এই পোশাকটি তৈরি করেছেন ওই পোশাক নির্মাণকারী সংস্থা।