নতুন খবররাজনৈতিক

এবার শহীদ মিনারের মঞ্চ থেকে মমতাকে নিশানা করলেন এই হিন্দুত্ববাদী নেতারা। যা বললেন শুনে আপনিও…

আপনারা তো জানেন ,’যে রাজ্যে ৬৫ শতাংশের বেশি হিন্দুরা বসবাস করে সেখানে হজ হাউস বানানো হয়, তাহলে গঙ্গা সাগরের পুন্যার্থীরা খোলা আকাশের নিচে কেনো রাত কাটাতে বাধ্য ‘?হিন্দুত্ব নেত্রী সাধ্বী সরস্বতী হিন্দু সম্মেলন এর শহীদ মিনার ময়দানে হিন্দু জাগরণ মঞ্চ থেকে তিনি মমতাকে আক্রমণ করলেন। এতে সাধ্বী একা নন তার সঙ্গে আরও অনেক ব্যাক্তি রয়েছেন,এরা হলেন – আর এস এস প্রচারক ,হিন্দু জাগরণ মঞ্চের শীর্ষ নেতা সুমনজী এবং বন্ধু গৌরব মহারাজের মতো হিন্দুত্ববাদী নেতারা। মঞ্চে উঠেই সুমন একটি বক্তব্য দিলেন সেটি হলো- ‘ মা মাটি মানুষ, হিন্দুরা মানুষ নয়?

হিন্দুদের কথা কে ভাবেন মুখ্যমন্ত্রী?কোন মাটির কথা উনি বলছেন? বাংলার মাটি স্বামী বিবেকানন্দের, ক্ষুদিরামের কিন্তু সে মাটিও জেহাদের দখলে চলে যাচ্ছে।পশ্চিমবঙ্গের মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দোপাধ্যায় খাদ্যাভাস্যে স্বাধীনতার কথায় বারবার বলছেন। সংবাদ সুত্রে জানাগিয়েছে যে ,হিন্দুত্ব বাদীরা মুসলিমদের গোমাংস খাওয়া বন্ধ করার দাবি করাই মমতা ব্যানার্জী বারবার এদের বিরোধিতা করেছেন।মুখ্যমন্ত্রীর সম্মতিতেই কলকাতায় নতুন একটি গোকসাইখানার তৈরি করা হয়েছে।শহীদমিনারের মঞ্চে দাঁড়িয়ে বন্ধু গৌরব মহারাজ দাবি করেছেন,’ যদি মুসলিমরা গোমাংস ছাড়তে না পারে তাহলে ওরা শুধু ওটাই খাক,ওটা খেয়েই বেঁচে থাকুক,ওদের আর অন্য খাবার দেওয়া হবে না ‘।

বাংলাদেশের হিন্দু শরণার্থীদের প্রসঙ্গ টেনে সাধ্বী সরস্বতি বললেন,’বাংলাদেশ থেকে অত্যাচারিত হিন্দুরা আসছেন’। কাশ্মীরের পণ্ডিতরা অত্যাচারিত হয়ে এদেশে আসছে কিন্তু তাদের জন্য কেউ চিন্তা করছে না, কিন্তু রোহিঙ্গাদের জামাই আদর চলছে পশ্চিম বাংলায়।সকলকে একত্রিত হয়ে এসবের বিরোধিতা করতে হবে।এর পাশাপাশি সাধ্বী মহরমের জন্য দুর্গাপূজার বিসর্জন বন্ধকরার প্রসঙ্গটিও তুলে ধরে মমতাকে খোঁচা দিতেও তিনি দ্বিধা বোধ করলেন না।

পাঁচটি রাজ্যে বিধান সভার নির্বাচনে বিজেপি হেরেগেলো, বিশেষজ্ঞরা মনে করছেন , এই হারের ফলসৃতি হিসেবে লোকসভায় বিজেপির আসন কমতে পারে,এই অবস্থায় সাধ্বী হিন্দুত্ববাদী মত রাজনীতিকে চাঙ্গা করতে পারে। আর এমন হলে এর প্রভাব পড়তে পারে লোকসভা নির্বাচনের ভোট বক্সে ।

বন্ধুরা আপনাদের আজকে নিউজটি কেমন লেগেছে, আমাদের কমেন্ট বক্সে লিখে নিশ্চয় জানাবেন আর এমনি নিউজ এর আপডেট পেতে চোখ রাখুন আমাদের ওয়েবপোর্টালে।

Related Articles

Back to top button