ব্যবসা করবেন ভাবছেন! প্রতিমাসে লক্ষাধিক টাকা আয় করা দুর্দান্ত সুযোগ দিচ্ছে মাদার ডেয়ারি, কীভাবে জানতে

বর্তমান পরিস্থিতিতে দেশের অর্থনৈতিক পরিকাঠামো যেভাবে ভঙ্গুর হয়ে পড়ছে তাতে চাকরি হারিয়ে অনেকেই স্বনির্ভর ব্যবসার দিকে ঝুঁকছেন । এভাবে পরিস্থিতিতে বিভিন্ন প্রোডাক্ট এর ফ্র্যাঞ্চাইজি নিয়ে অনেকেই ব্যবসা শুরু করেছেন। বর্তমানে মাদার ডেয়ারি ফ্র্যাঞ্চাইজি নিয়ে ব্যবসা ক্ষেত্রে আশার আলো দেখা যাচ্ছে। চাকরি থেকে এই ব্যবসা করার মাধ্যমে প্রতি মাসে ঘরে বসে লক্ষাধিক টাকা আয়ের সুযোগ আছে। মাদার ডিয়ারি প্রোডাক্টের ফ্র্যাঞ্চাইজি নিলে লোকসান হবার ভয় কম।

তার কারণ মাদার ডিয়ারি শুধুমাত্র দুধ ছাড়াও বিভিন্ন রকম দুগ্ধজাত প্রোডাক্ট প্রস্তুত করে থাকে। করোনা কালীন পরিস্থিতিতে যাবে চাকরি চলে গেছে এবং রোজকার বন্ধ হয়ে গেছে তারা সহজেই ছোট ব্যবসার মাধ্যমে লাভবান হতে পারেন। যেকোনো ফ্রাঞ্চাইজিং নিতে গেলে সর্বপ্রথম আপনি যে প্রোডাক্টটি নির্বাচন করবেন লক্ষ্য রাখতে হবে বাজারে সেই প্রোডাক্টটি চাহিদা যেন বেশি থাকে মাদার ডেয়ারি ফ্র্যাঞ্চাইজি যথেষ্ট চাহিদা আছে তার কারণ একটি দ্রব্য কমবেশি সমস্ত পরিবারের প্রয়োজন পড়ে।

দুধ এমন একটি বস্তু দ্রব্য যা প্রতিটি ঘরেই ছোট থেকে বয়স্ক সবাই খেয়ে থাকে । একজন অসুস্থ ব্যক্তি থেকে গর্ভবতী মহিলা শিশু থেকে বয়স্ক সবারই দুধের প্রয়োজন হয় । এছাড়া দুধ ছাড়াও বিভিন্ন রকম দুগ্ধজাত দ্রব্য বাজারে যথেষ্ট চাহিদা আছে। সর্বপ্রথম www.motherdairy.com এই ওয়েবসাইট থেকে মাদার ডেয়ারি ফ্র্যাঞ্চাইজি নেবার জন্য আবেদন করতে হবে।এছাড়া এই সংস্থার ফ্র্যাঞ্চাইজি নিতে গেলে উত্তরপ্রদেশের নয়ডা থেকে মাদার ডিয়ারি ফ্রুট এন্ড ভেজিটেবল প্রাইভেট লিমিটেড এগিয়ে আবেদন জমা করতে হবে।

Advertisements

তাছাড়াও ফ্র্যাঞ্চাইজি নেবার জন্য 120-4399500 অথবা 4399501 এই ফোন নম্বরে যোগাযোগ করতে হবে। ফ্র্যাঞ্চাইজি নিতে গেলে আবেদনের সময় বেশ কিছু প্রয়োজনীয় নথি প্রয়োজন যেমন আধার কার্ড ,ভোটার কার্ড ,প্যান কার্ড ইত্যাদি। এছাড়া দেখাতে হবে ঠিকানার প্রমাণপত্র ,তার জন্য প্রয়োজন রেশন কার্ড, ইলেকট্রিক বিল অথবা ব্যাংকের অ্যাকাউন্টের বিশদ বিবরণ। এছাড়া এগ্রিমেন্ট আছে এমন সম্পত্তির জন্য প্রয়োজন পড়বে নো অবজেকশন সার্টিফিকেট ।এই সব কিছুর সাথে সাথে সম্পত্তির কাগজ, ইমেইল আইডি , ফোন নাম্বার এবং ফটোগ্রাফের প্রয়োজন।

Advertisements

তবে বিনা ইনভেসমেন্ট ইন ফ্র্যাঞ্চাইজি নেওয়া যাবে না ।মাদার ডেয়ারি ফ্র্যাঞ্চাইজি নিতে গেলে ৫-১০ লক্ষ টাকা বিনিয়োগের প্রয়োজন। এছাড়া এই ফ্রাঞ্চাইজির ক্ষেত্রে non-refundable সিকিউরিটির জন্য ২৫ থেকে ৫০ হাজার টাকা দিতে হবে। তবে প্রথম বছরে ফ্র্যাঞ্চাইজি তরফ থেকে বিনিয়োগের ৩০ শ রিটার্ন হিসেবে পাওয়া যাবে। তবে এটি একটি অত্যন্ত লাভজনক ব্যবসা। কারণ শুধুমাত্র দুধ নয় এছাড়া দুগ্ধজাত বিভিন্ন রকম প্রোডাক্ট বাজারে যথেষ্ট চাহিদা আছে।

মাদার ডেয়ারি দুধ ছাড়াও ডেয়ারি যত বিভিন্ন রকম প্রোডাক্ট যেমন দই ,পনির ,চিজ,মাখন, মিল্কশেক ,আইসক্রিম ইত্যাদির যথেষ্ট চাহিদা আছে । এই ফ্র্যাঞ্চাইজি থেকে জিনিসপত্র বিক্রি করে প্রচুর টাকা মুনাফা পাওয়া যাবে।আইসক্রিমের ফ্র্যাঞ্চাইজি নিয়ে আইসক্রিম পার্লার খুললেও তা বর্তমান বাজারে ভালই চলবে এবং এক্ষেত্রে খুব বেশি টাকা বিনিয়োগের প্রয়োজন পড়বে না। বর্তমানে সারাদেশে মাদার ডেয়ারির প্রায় ২,৫০০টি রিটেইল আউটলেট রয়েছে।