স্বাধীনতা দিবসের আগেই নয়া নির্দেশিকা জারি কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্র মন্ত্রকের, মানতে হবে প্রত্যেককেই

আমাদের সকলের কাছে একটা খুব পরিচিত ছবি আমরা প্রায় প্রতি বছর দেখে আসি। সেটা হল স্বাধীনতা দিবস এর দিন মানুষের দেশপ্রেম এবং পরের দিন আমাদের দেশের পতাকা রাস্তায় যেখানে সেখানে পরে থাকতেই দেখা যায়।তবে এবারে কেন্দ্র নির্দেশ দিয়েছে এক নতুন নিয়ম। হাতে গোনা মাত্র আর কয়েকদিন বাকি সামনেই আসছে স্বাধীনতা দিবস। যাতে জঞ্জাল বা রাস্তাঘাটে আমাদের দেশের পতাকা পড়ে না থাকে তার জন্য এবারে কেন্দ্রের এক নয়া নির্দেশিকা জারি করা হয়েছে, যা মেনে চলতে হবে প্রতিটি নাগরিককে।

স্বাধীনতা দিবসের আগেই প্রতিটি রাজ্য ও কেন্দ্রশাসিত অঞ্চল গুলিতে কেন্দ্রের তরফ থেকে পাঠানো হয়েছে নির্দেশিকা। এই নির্দেশিকায় বলা হয়েছে, প্লাস্টিক এর তৈরী ছোট পতাকা যেন ব্যবহার করা না হয়, সেদিকে খেয়াল রাখতে হবে প্রতিটি রাজ্যকে। প্রতিটি স্কুল, কলেজ থেকে যেকোন শিক্ষা প্রতিষ্ঠান গুলো, গাড়ি গুলোতে এই ধরণের পতাকা ব্যবহার করতে দেখা যায়।

ঠিক সেই পতাকা গুলি পরের দিন রাস্তায়, জঞ্জালে পড়ে থাকে যেহেতু এই পতাকা গুলি প্লাস্টিকের তৈরী সেই ক্ষেত্রে সহজে নষ্ট হয়ে যায় না। এই ক্ষেত্রে তেরেঙ্গার যেমন অপমান হয় ঠিক তার পাশাপাশি পরিবেশ দূষণ হয়। সেই কারণেই এই ধরণের নির্দেশিকা জারি করা হয়েছে।কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্র মন্ত্রকের তরফ থেকে জানানো হয়েছে, দেশবাসীর কাছে জাতীয় পতাকা হল আশা এবং আকাঙ্ক্ষার প্রতীক। দেশের জাতীয় পতাকাকে সর্বোচ্চ মান দেওয়া উচিত।

প্রতিটি নাগরিকের জাতীয় পতাকার প্রতি শ্রদ্ধাশীল হওয়া উচিত, কিন্তু সেই বিষয়ে আমজনতা থেকে অনেক সংস্থার মধ্যে সচেতনতার অভাব লক্ষ্য করা যায়। জাতীয় পতাকা সংক্রান্ত একাধিক বিষয়ে স্মরণ করার পাশাপাশি নির্দেশিকা জারি করেছে, প্লাস্টিকের পতাকা ব্যবহার করার পরিবর্তে কাগজের পতাকা ব্যবহার করার পর, পরেরদিন যেন সেই পতাকা ছিড়ে বা ডাস্টবিনে বা রাস্তায় যেন না ফেলে রাখা হয় সেই বিষয় নিয়ে প্রতিটি রাজ্য, অঞ্চল এবং প্রত্যেক নাগরিকের দায়িত্ব।