ভারত সরকারের নতুন যোজনা,মেয়েদের ২১ বছর হলেই পাবে ২১ লক্ষ টাকা। দেখুন কি করতে হবে এর জন্য।

মোদি সরকার নিয়ে এলো ভারতবাসীর জন্য আরেকটি লাভবান যোজনা। এবার থেকে মেয়েদের ২১ বছর হলে পেয়ে যাবে ২১  লক্ষ টাকা ভারত সরকারের নতুন সুকন্যা সমৃদ্ধি যোজনা। বেটি বাঁচাও বেটি পড়াও ক্যাম্পেইনের আওতায় ভারত সরকারের আবার নিয়ে এলো এক নতুন পদক্ষেপ। বর্তমান সময়ে টাকা মানুষের একটি নিত্য প্রয়োজনীয় বস্তু। যেখানে ছোট ছোট মেয়েদের ভবিষ্যৎ গড়তে  টাকার অবশ্যই প্রয়োজন হয়, সেখানে কেন্দ্রীয় সরকারের সুকন্যা সমৃদ্ধি যোজনা এ লাভবান হবেন অনেক মধ্যবিত্ত ও নিম্নবিত্ত শ্রেণি। মাসিক কিছু টাকা সঞ্চয়ের মাধ্যমে আপনি পেতে পারেন ২১ লক্ষ্য পর্যন্ত টাকা।
সুকন্যা সমৃদ্ধি যোজনা দরুন আপনি আপনার সন্তান সন্তনি উজ্জ্বল ভবিষ্যতের একটি  ভীত গড়ে তুলতে পারবেন। যেখানে বলা হচ্ছে , আপনার কন্যা হলেই আপনি এই প্রকল্পের আওতায় আসতে পারবেন।

যেখানে অন্যান্য ব্যাংকে আপনার সঞ্চিত অর্থের উপর খুবই নিম্ন  সুদের হার পান সেখানে এই প্রকল্পের আওতায় এলে আপনি ৮.৫% সুদের হার পাবেন।তাহলে এ প্রকল্পের হিসাব-নিকাশটা আপনাদের একটু বুঝিয়ে দিই,  আপনার বাড়িতে শিশু কন্যা জন্মালে আপনি এ প্রকল্পের আওতায় আসতে পারবেন ।এছাড়াও আপনি যদি কোন শিশুকে দত্তক নিয়ে থাকেন তাও আপনি এই প্রকল্পের লাভ উঠাতে পারবেন। আপনি যদি মাসিক ৩০০০ টাকা করে রাখেন তাহলে আপনি আপনার মেয়ের ২১ বছর পূর্ণ হলেই আপনি ২১ লক্ষ টাকা পেয়ে যাবেন।
আপনাকে ১৫ বছর পর্যন্ত মাসিক টাকা দিয়ে যেতে হবে। অর্থাৎ আপনি যদি আপনার মেয়ের ৩ বছর বয়সে এই প্রকল্পের আওতায় আসেন তাহলে, আপনাকে কমপক্ষে তার ১৮ বছর হওয়া পর্যন্ত মাসিক সঞ্চয় করে যেতে হবে , কিন্তু আপনি পুরো টাকাটা পাবেন কন্যার ২১ বছর পূর্ণ হলেই।

আপনি একবার ভেবে দেখুন আপনি যদি মাসিক ৩,০০০ টাকা করে দেন তাহলে আপনার বাৎসরিক সঞ্চিত হলো ৩৬,০০০ টাকা। অর্থাৎ ১৫ বছরের বছরের সঞ্চিত পরিমাণ ৫.৪০ লাখ টাকা । কিন্তু আপনি সেখানে পেয়ে যাচ্ছেন ২১ লক্ষ টাকা।এছাড়াও আপনি মাত্র ১০০০ টাকা মাসিক সঞ্চয় এর মাধ্যমে পেতে পারেন ৭ লাখ  টাকা পর্যন্ত।  তাহলে দেখে নেয়া যাক এই প্রকল্পের জন্য প্রয়োজনীয় শর্তাবলী,
(১)  অ্যাকাউন্ট খোলার সময় শিশুকন্যার জন্ম সার্টিফিকেট অবশ্যই প্রয়োজনীয়।

(২) শিশু কন্যার ১০ বছর বয়স পর্যন্ত এই প্রকল্পের আওতায় আসা যাবে তারপর আর এই প্রকল্পের সুবিধা পাওয়া যাবে না।

(৩) আপনার শিশু কন্যা ১৮ বছরের হলেই আপনি ৫০% টাকা তুলে নিতে পারবেন ।

(৪) কন্যার ২১ বছর পূর্ণ হলেও আপনি যদি সেই টাকাটা না তুলেন তাহলে, সেই টাকার জন্য সরকার আর আপনকে কোন সুদ দেবে না।

সুতরাং, বন্ধুরা সরকারের কন্যাদের ভবিষ্যৎ গড়ার লক্ষ্যে আনা এ প্রকল্প আপনাদের কেমন লেগেছে আমাদেরকে কমেন্ট বক্সে নিশ্চয় জানাবেন। আর এমনি নতুন নিউসের আপডেট পেতে চোখ রাখুন আমাদের পেজে।

Related Articles

12 Comments

  1. স্যার আমি কি এ খবরটা আমার ইউটিউব এ আপলোড করতে পারি আপনারা যদি অনুমতি দেন তাহলে আমি আপলোড করবো অনুগ্রহ করে আমাকে জানাবেন

    1. Ofcourse, kobosho upload korun,,, news deuyata amader kaj joto beshi byakty janbe toto valo… kebol apnar video er desription e amader poster link add kore deben … T

  2. স‍্যার আমার বাড়ি গ্রাম হাজরা পুর পোস্ট পারুলিয়া। বীরভূম জেলা।
    আমার 2টি সন্তান একটি ছেলে একটি মেয়ে।
    আমার প্রতি দিন আয় ৩০০ টাকা কোনো জমি জাইগা নেই। আমারা ৩ ভাই ৫কাঠা জাইগা উপর বসবাস করি তাও বাবার সম্পত্তি।
    আমি দিন আনি দিন খাই। আমার মত আরও অধিকাংশ মানুষ আছে , আমাদের জন্য যদি কিছু সুবিধা থাকে তাহলে দয়াকরে জানাবেন।

  3. Sir plz ai sathe insurance ta diye dile onketa valo hoi .Karon amra parance ra to savings korbo ti na .r Jodi amder kichu hoie ji ta hole savings korbo ki Kore r return pabo ki .kichu bhul bolle sorry sir .

  4. সরকারের এই ধারনাটা ভালো কিন্তু এখানে সুদের হার আরো বেশি হওয়া উচিত ছিলো ।অন‍্যদিকে এটা পুএ সন্তানের জন্যেও হওয়া উচিত ছিলো ,তাহলে মানুষ অনেকটা সঞ্চয় মুখি হতো ।

Leave a Reply

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.

Close