নতুন বছরে কেন্দ্রের তরফে আনা হচ্ছে বড় পরিবর্তন, দুর্ঘটনা কমাতে এবার গাড়িতে বাধ্যতামূলক করা হবে এয়ারব্যাগ

এখন বেশিরভাগ গাড়িতেই সামনে কেবল ড্রাইভারের দিকে এয়ারব্যাগ থাকে। বিশেষ করে লো রেঞ্জের গাড়িতে। খুব দামী গাড়ি ছাড়া পিছনের দিকে এয়ারব্যাগ থাকেই না। কিন্তু কেন্দ্রীয় সরকার এবার এই নিয়ম পরিবর্তন করতে পারে৷ জনগনের সুরক্ষার জন্য এবার থেকে গাড়ির সামনের দিকে দুই দিকেই এয়ারব্যাগ দেওয়া বাধ্যতামূলক করার কথা ভাবা হয়েছে৷

কেন্দ্রীয় সরকারের সড়ক ও পরিবহন মন্ত্রকের তরফে সম্প্রটি একটি নোটিশ দেওয়া হয়েছে৷ এই নোটিশে বলা হয়েছে, বর্তমান অটোমোটিভ ইন্ডাস্ট্রি স্ট্যান্ডার্ডে সংশোধন করা হবে। অটোমোটিভ ইন্ডাস্ট্রি স্ট্যান্ডার্ড ( AIS) গাড়ির সেফটি ফিচারের দেখভাল করে।

পুরনো মডেলের কম দামের বেশকিছু গাড়িতে কোনো এয়ারব্যাগ থাকত না। গতবছর সরকারের তরফে পরিবর্তন আনা হয় AIS-এ। প্রত্যেকটি গাড়িতে ড্রাইভারের সামনের সিটে এয়ারব্যাগ বাধ্যতামূলক করে দেওয়া হয়। কিন্তু তখন যেহেতু কেবল ড্রাইভারের দিকের কথা স্পষ্ট করে দেওয়া হয়, তাই তারপর থেকে বেশিরভাগ গাড়ির নির্মাতা সংস্থা কেবল গাড়ির ডানদিকে অর্থাৎ ড্রাইভারের দিকেই এয়ারব্যাগের ব্যবস্থা করে এবং অন্যটাতে এয়ারব্যাগ দেয় না৷ ফলে, ড্রাইভার সুরক্ষিত থাকলেও সামনের সিটে বসা অপর ব্যক্তির হাই রিস্ক থেকেই যায়।

 

কোনও সময়ে যদি গাড়ি দুর্ঘটনার সম্মুখীন হয় তা হলে সামনে বসা প্যাসেঞ্জারের সবথেকে বেশি চোট লাগার সম্ভবনা থেকে যায়। এবার তাই শুধু ড্রাইভার নয়, ড্রাইভারের পাশে বসা যাত্রীর জন্যও এয়ারব্যাগ বাধ্যতামূলক করতে পারে কেন্দ্রীয় সরকার।

 

কীভাবে ব্যবহার করবেন WhatsApp payment features? বিস্তারিত জানতে

দেশে বেশি দামের প্রায় সমস্ত গাড়িতেই সামনের সিটে দু’টো করে এয়ারব্যাগ থাকে৷ কিন্তু বেশ কিছু গাড়িতে তা দেওয়া হয় না। যদি কেউ দু’টো এয়ারব্যাগ চায়, তা হলে তার জন্য অতিরিক্ত টাকা দিতে হয়। যেমন- Maruti Suzuki তার Alto, S-Presso, Celerio ও Wagon R অর্থার সংস্থার সব চেয়ে কম দামের চারটি গাড়িতে সামনের সিটে দু’টো এয়ারব্যাগ দেয় না। কিন্তু এগুলির আপগ্রেডেড মডেলে, অতিরিক্ত টাকা দিলে দুটো এয়ারব্যাগ লাগানো যায়৷ একইভাবে Renault Kwid, Hyundai Santro বা এমন কিছু লো রেঞ্জের গাড়িতে একই ব্যবস্থা রয়েছে।

সরকারের তরফে কবে থেকে এই নতুন নিয়ম জারি করা হবে, সে ব্যাপারে এখনো কিছু জানানো হয়নি। মনে করা হচ্ছে, এই নতুন নিয়ম কার্যকর হলে গাড়ি প্রস্তুতকারক সংস্থাগুলিকে এক বছর মতো সময় দেওয়া হবে। ৫ লাখ থেকে ৮ লাখ টাকা দামের যে গাড়িগুলি আছে, তাতেই এই নিয়ম বলবৎ হবে।