নতুন খবরভারতীয় সেনা

নিজের স্ত্রীর কাছে লুকিয়ে রেখেছিলেন সার্জিক্যাল স্ট্রাইকের কথা। পরে হল তথ্য ফাঁস…

এটা আপনারা অবশ্যই শুনে থাকবেন যে, কাশ্মীরে প্রায়দিনই যুদ্ধ লেগেই থাকে। কিন্তু, আমাদের ভারতের সেনা বাহিনীরা আতংবাদীদের হাত থেকে আমাদের রক্ষা করার জন্য নিজের আত্ববলিদান দিয়েও ভারতবাসীদের রক্ষা করে থাকেন। এবার ভারতের সেনাবাহিনী আতংবাদিদের উপস্থিতিতে একটি গুরুত্বপূর্ণ অপারেশন করেছিলেন যেটিতে তারা সফল ও হয়েছেন। কাশ্মীরের আতংবাদীদের বিরুদ্ধে এই যুদ্ধটিতে একজন ভারতীয় সৈনিক শহীদ হলেন, তিনি রাজস্থানের বাসিন্দা এবং তার নাম সন্দীপ সিং। এই ভারতীয় সেনাটি মৃত্যুর আগে পর্যন্ত লড়াই করে গেছেন এবং তিনটি আতংবাদীকেও নিঃশেষ করে দিয়েছেন। বিশ্বজুড়ে যেসব সার্জিক্যাল স্ট্রাইক আলোচিত হয় এরই মধ্যে একজন ছিলেন সন্দীপ সিং।

এই কথাটিতে কোনো অদ্বিতীয়তা নেই যে, সন্দীপ এর সঙ্গে জড়িত অনেক ব্যাক্তিই ভারতীয় সেনার সাহস এবং তাদের রণনিতির সম্মন্ধে জানতে চাইতো তার কাছ থেকে। আর তাদের মধ্যেই একজন ছিল তার স্ত্রী গুরপ্রীত তবে সন্দীপ সিং এই বিষয়ে কোনোদিন কাউকে কিছু বলেননি। সূত্রের খবর অনুসারে ৪ মাস আগে আতংবাদী দের বিরুদ্ধে একটি যুদ্ধে সন্দীপ সিং মারা গেলেন। শহীদ হওয়ার আগে তিনি ৩ জন আতংবাদীদের তিনি মেরে দেন। ২৬ জানুয়ারী রিগ্যাল তিরাহ তে পতাকা উত্তোলনের সময় সন্দীপ সিং এর স্ত্রী গুরপ্রীত এবং তার ৫ বছর বয়সী ছেলে অভিনব ও উপস্থিত ছিলেন। আপনাদের সুবিধার্থে বলে দিই , সেপ্টেম্বর ২০১৮ তে, কাশ্মীর এর কুপওয়ারা নামক একটি জায়গায় লুকিয়ে প্রবেশ করা কিছু অতংবাদি দের সঙ্গে ভারতীয় সেনার সৈনিক সন্দীপ সিং এর লড়াই বাঁধে, এবং ২৪ ঘণ্টা চলা এই যুদ্ধে তিনটি আতংবাদী তার হাতে মারা গেলেন এবং সর্বশেষে তিনি দেশের জন্য শহীদ হয়ে গেলেন।

এছাড়াও গুরপ্রীত জানিয়েছে যে, সেনাতে হওয়া কার্যকারিতা নিয়ে গুরপ্রীত সর্বদাই প্রশ্ন করতো। তবে বেশিরভাগ প্রশ্নই সে সার্জিক্যাল স্ট্রাইক এর সম্মন্ধেই জিজ্ঞেস করতো কিন্তু , সন্দীপ তাকে কখনোই সেনা সম্মন্ধে জড়িত অথবা সার্জিক্যাল স্ট্রাইক এর সম্মন্ধীত কোনো প্রশ্নের উত্তর ই দেইনি। তিনি কেবল তাকে এতটুকুই বলতেন, সবই বিশ্বাসের ওপর নির্ভর এবং সেনার সঙ্গে জড়িত কোনো কথাই এভাবে বলা যাবে না, তাতে সে যতই কাছের লোকই হোক না কেনো।

Related Articles

Back to top button