দেশনতুন খবরবিশেষরাজ্য

পাক-ভারত উত্তেজনার উত্তাপ এবার বাংলায়, হাওড়া স্টেশনে জারি রেড এলার্ট।

ভারত-পাক সীমান্তের উত্তাপের আঁচ এসে পড়ল বাংলায়। কোন অঘটন ঘটার আশঙ্কায় গোটা হাওড়া স্টেশন জুড়ে রেড অ্যালার্ট জারি করা হয়েছে। নিরাপত্তা জোরদার করা হয়েছে। গোটা স্টেশন জুড়ে নাকাচেকিং চলছে। স্নিপার ডগ দিয়ে গোটা ট্রেন খতিয়ে দেখা হচ্ছে। যাত্রীদের লাগেজ ও চেক করা হচ্ছে। তবে এই ঘটনায় আতঙ্কিত হওয়ার মতন কোনো কারণ নেই বলে আশ্বাস দিয়েছে রেল পুলিশ।হামলা আশঙ্কায় দেশের সমস্ত বিমান বন্দরে সর্তকতা জারি করেছেন অসামরিক বিমান সুরক্ষা ব্যুরো। কলকাতা বিমানবন্দরে নিরাপত্তা এখন কয়েকগুণ বাড়িয়ে দেওয়া হয়েছে। বিমানবন্দরের মুখের গাড়িগুলির যাত্রীদের পরিচয় পত্র এবং টিকিট খুঁটিয়ে পরীক্ষা করা হচ্ছে। টার্মিনাল গুলির সামনে কোন গাড়িকে বেশিক্ষণ দাঁড়াতে দেওয়া হচ্ছে না।

 

অন্যদিকে আবার বাংলার সীমান্তেও রেড অ্যালার্ট জারি করা হয়েছে। রাজ্যের বিভিন্ন সীমান্তে রেড অ্যালার্ট জারি করা হয়েছে। এছাড়া বিএসএফের জোর তোর টহলদারি চলছে। মালদার ভারত বাংলাদেশ সীমান্ত সিল করে দেওয়া হয়েছে। মালদা জেলায় মোট 172 কিলোমিটার সীমান্ত রয়েছে। এই 172 কিলোমিটার মধ্যে 70 কিলোমিটার কাঁটাতার বিহীন রয়েছে। 30 কিলোমিটার জুড়ে রয়েছে জল সীমান্ত। লাল সতর্কতার জন্য অতিরিক্ত 2 ব্যাটেলিয়ান বিএসএফ মোতায়েন করা হয়েছে ওখানে। সব মিলিয়ে 6 ব্যাটালিয়ন বিএসএফ জওয়ান মোতায়েন রয়েছে মালদার ভারত-বাংলাদেশ সীমান্তে। এছাড়াও সীমান্তবর্তী গ্রামাঞ্চল গুলিতে বিশেষভাবে নজরদারি চালানো হচ্ছে। মালদার ভারত-বাংলাদেশ সীমান্ত দিয়ে বেশিরভাগ সময়ই অনুপ্রবেশের ঘটনা ঘটে থাকে। অনুপ্রবেশে বাধা দিতে বিএসএফদের সব সময় তৎপর থাকতে হয়। এয়ার স্ট্রাইক এর পর সেই তৎপরতা আরও বাড়িয়ে দেওয়া হয়েছে। এছাড়াও নিরাপত্তা আঁটোসাঁটো করা হচ্ছে দক্ষিণ দিনাজপুরের হিলি সীমান্তে।


দৈর্ঘ্য প্রায় 257 কিলোমিটার সীমান্তে ভৌগোলিক কারণে কাঁটাতার নেই প্রায় 27 কিলোমিটার অঞ্চল জুড়ে। এই সীমান্তে দুই ব্যাটেলিয়ান বিএসএফ মোতায়েন করা হয়েছে। হিলি সীমান্তে একটি মাত্র চেকপোস্ট রাখা হয়েছে।

Related Articles

Back to top button