ধর্ষণ রুখতে নতুন আইন আনতে চলেছে সরকার, তা যতই কঠোর হোক! স্পষ্ট জানিয়ে দিলেন প্রতিরক্ষা মন্ত্রী রাজনাথ সিং…

হায়দ্রাবাদের 26 বছর বয়সী তরুণী পশুচিকিত্সক কে গণধর্ষণ করে পুড়িয়ে মারার ঘটনাকে নিয়ে আজ দিনভর উত্তপ্ত রইল সংসদ। এই নিয়ে প্রথমে রাজ্যসভা ও লোকসভায় ব্যাপক চর্চা হয়। এই বিষয়ে বক্তব্য রাখতে গিয়ে কেন্দ্রীয় প্রতিরক্ষামন্ত্রী রাজনাথ সিং বলেন দেশের মহিলাদের বিরুদ্ধে এই ধরনের অপরাধের ক্ষেত্রে সাংসদ যে ধরনের আইনই বানাবে তাতেই সহমত প্রকাশ করবে সরকার আর ঠিক সেই আইনই বানাতে প্রস্তুত।

অন্যদিকে দিকে স্পিকার ওম বিড়লাও এই ধরনের ঘটনার তীব্র নিন্দা করেছেন এবং যখনই প্রয়োজন পড়বে তখনই এই নিয়ে আলোচনা করতে প্রস্তুত বলে জানান তিনি। দেশের প্রতিরক্ষা মন্ত্রী রাজনাথ সিংহ এদিন বলেন হায়দ্রাবাদের ঘটনাকে নিয়ে যতক্ষণ দরকার ততক্ষণ আলোচনা করা হবে। দেশজুড়ে এরকম অপরাধ দুঃখের যত কঠোর তদন্তের প্রয়োজন হোক না কেন সরকার তাতে সাহায্য করবে এবং সংসদের সদস্যরা মিলিতভাবে যে ধরনের আইন চাইবে ঠিট সেই রকমই আইন আনবে সরকার একথাও তিনি স্পষ্ট জানিয়ে দেন এইদিন। অন্যদিকে আপনা দলের সংসদ অনুপ্রিয়া প্যাটেল রাজ্য ও কেন্দ্র উভয় সরকারকেই কটাক্ষ করে বলেন যে এই দুই পক্ষই নারীঘটিত অপরাধ রুখতে বর্তমানে ব্যর্থ। তাই সরকার যেন এবার এমন এক পদক্ষেপ নেই যে গোটা দেশকে একটা বার্তা জানানো যায় এর মাধ্যমে। অন্যদিকে সোমবার দিন রাজ্য সভায় এ বিষয়ে মন্তব্য রাখতে গিয়ে সমাজবাদী পার্টির (সপার) সংসদ তথা অভিনেত্রী জয়া বচ্চন জানান এইসব ধর্ষণকারীদের প্রকাশ্যে পিটিয়ে মারা উচিত। তার কথা ধর্ষণকাণ্ডে যেসব মানুষরূপী শয়তানরা অভিযুক্ত থাকে তাদের জনতার হাতে ছেড়ে দেয়া উচিত, এইসব শয়তানদের গণপিটুনি দেওয়া দরকার।

তিনি বলেন আমি জানি না যে আমি এই ধরনের অপরাধের পরে কতবার সংসদে দাঁড়িয়ে এই প্রসঙ্গে কথা বলেছি, তাই এখন আমার মনে হয় এই বিষয়ে আর বেশি কথা না বলে কোন বড় পদক্ষেপ নেওয়া উচিত তার সময় এসেছে। নির্ভয়া হোক, কাঠুয়া হোক বা তেলেঙ্গানাই হোক জনগণ চায় এই বিষয়ে সরকার একটি উপযুক্ত সুনির্দিষ্ট ব্যবস্থা নিক। অন্যদিকে বর্তমানে কংগ্রেসের সাংসদ গুলাম নবি আজাদ ও আমে ইয়াজনিক মহিলাদের উপর অত্যাচার রুখতে সবাইকে একসঙ্গে কাজ করার আবেদন জানিয়েছেন। তাঁদের কথায়, “আইন, পুলিশ, বিচার বিভাগ হাত মিলিয়ে জরুরি ভিত্তিতে যুগান্তকারী সিদ্ধান্ত নিক।

তবে এ ধরনের ঘৃণ্য কাজ আটকাতে শুধুমাত্র যে আইন আনাই যথেষ্ঠ নয়, বরং সকলকে জোটবদ্ধভাবে লড়াই করতে হবে।” এদিন হায়দরাবাদে ধর্ষণে অভিযুক্তদের বিরুদ্ধে দ্রুত ব্যবস্থার দাবিতে উত্তাল হয় লোকসভাও। সংসদের নিম্নকক্ষে প্রতিরক্ষামন্ত্রী রাজনাথ সিং বলেন, “হায়দরাবাদের এই ঘটনা অত্যন্ত ন্যক্করজনক। অভিযুক্তদের দৃষ্টান্তমূলক শাস্তি দেওয়া হবে।”

Related Articles

Close