খেলাধুলাদেশনতুন খবরবিশেষ

পাকিস্তানকে মোক্ষম জবাব বিসিসিআইয়ের, আর্মি ক্যাপ নিয়ে বড় সিদ্ধান্ত নিতে চলেছে বিসিসিআই।

শুক্রবার রাঁচির ঝাড়খন্ড স্টেট ক্রিকেট অ্যাসোসিয়েশন স্টেডিয়ামে হওয়া অস্ট্রেলিয়ার বিরুদ্ধে তৃতীয় একদিনের ম্যাচে সেনাবাহিনীদের শ্রদ্ধাজ্ঞাপন এর জন্য এক বিশেষ উদ্যোগ নিয়েছিল টিম ইন্ডিয়া। এই ম্যাচে সমস্ত ভারতীয় টিম আর্মি ক্যাপ পরে মাঠে নেমেছিল। ধোনি-কোহলির এমন অভিনব উদ্যোগ নেওয়ার জন্য ক্রিকেটমহলের অনেকেই প্রশংসা করেছেন। একমাত্র পাকিস্তান এর প্রতিবাদ জানিয়েছে। সিরিজের তৃতীয় দিনের ম্যাচ থেকে পাওয়া পারিশ্রমিক ভারতীয় দলের প্রত্যেকেই সেনা তহবিলে অনুদান হিসেবে দিয়েছেন। আর এভাবে ধোনি আর কোহলির শহীদ জাওয়ানদের পরিবারের পাশে দাঁড়ানোর প্রচেষ্টাকে ক্রিকেট বিশ্বে প্রশংসিত করেছে।তবে যেমন কি এই দিন পাকিস্তানের মন্ত্রী ফাওয়াদ চৌধরির দাবি করেন সেনা টুপি পরে ভারতীয় ক্রিকেটের দল রাজনীতি করতে চাইছে।

 

যার জন্য তারা আইসিসির কাছে নালিশ ও হুমকিও দিয়েছিলেন।তবে আপনাদের বলে রাখি তাদের এরকম হুমকিতে বিন্দুমাত্র চিন্তা করছেন না বিসিসিআই। আর এবার থেকে ভারতীয় বোর্ড সিদ্ধান্ত নিতে চলেছে এক নতুন অভিনব যেখানে তারা চিন্তা ভাবনা করছেন এবার থেকে ভারতীয় ক্রিকেট টিম প্রতি বছর অন্তত একটা ম্যাচ আর্মি ক্যাপ পরে খেলা উচিত ক্রিকেট মাঠে। আর এই ম্যাচটি আয়োজিত করা হবে শহীদ সেনা পরিবারের সাহায্যের জন্য। তবে আপনাদের বলে রাখি এরকম এক প্রথা চালু করা আছে অস্ট্রেলিয়ায় তবে সেটা একটু আলাদা যেখানে পাপ্তন পেসার গ্লেন ম্যাকগ্রার স্ত্রীর মৃত্যু ঘটেছিল ক্যান্সারে আক্রান্ত হয়ে তাই অস্ট্রেলিয়ায় পিঙ্ক টেস্ট আয়োজিত করা হয়। এই পিঙ্ক টেস্ট আয়োজন করে ম্যাকগ্ৰা ফাউন্ডেশন আর এর উদ্দেশ্য হল ক্যান্সারে আক্রান্ত মানুষদের আর্থিক দিক থেকে কিছুটা সাহায্যের হাত বাড়িয়ে দেওয়া।তাই এবার থেকে ভারতীয় বোর্ড চিন্তা করছে শহীদ জাওয়ানদের পরিবারের পাশে দাঁড়াতে সেরকমই এক উদ্যোগ নেওয়ার।

এদিন বোর্ডের কর্তারা জানিয়েছেন স্পন্সররা যে কোন নতুন অর্ডার ডেলিভারি করতে পাঁচ থেকে ছয় মাসের মতো সময় নেই কিন্তু আমরা রাঁচিতে ম্যাচ চলাকালীন আর্মি ক্যাপের অর্ডার ডিলিভারি বেশি সময় মতো পেয়েছি এবং সেই ম্যাচে ওঠা টাকাটাও ইতিমধ্যে তুলে দেওয়া হয়েছে সেনাবাহিনীর হাতে। তবে আপনাদের বলে রাখি এখানে কোন প্রকার রাজনৈতিক ব্যক্তিত্বদের আমন্ত্রণ জানানো হয়নি তাই চেক তুলে দেওয়া মুহূর্তের কোন প্রকার ছবিও তোলা হয়নি।আর এবার থেকে ভারতীয় বোর্ড সিদ্ধান্ত নিয়েছে ঘরের মাঠে এবার থেকে বছরে অন্তত একটা ম্যাচ ভারতীয় দলের ক্রিকেটাররা আর্মি ক্যাপ পড়ে খেলবে, এবং সেই ম্যাচে ওঠা টাকাটি যাবে পুরোপুরি শহীদদের পরিবারের কাছে।

Related Articles

Back to top button