ক্রিকেটের দুর্দান্ত খেলোয়াড় ছিলেন স্বামীজি, যখন ইডেন গার্ডেনে বিরোধী দলের ছিনিয়ে নিয়েছিলেন ৭ উইকেট তখন

১২ জানুয়ারি স্বামী বিবেকানন্দের জন্মদিন ছিল।সোশ্যাল মিডিয়া জুড়ে শুধুমাত্র স্বামী বিবেকানন্দের জয় জয় গান। নরেন্দ্রনাথ তথা স্বামী বিবেকানন্দ সম্পর্কে আমরা অনেক কিছুই জানি। কিন্তু আমরা নরেন্দ্র সম্পর্কে এমন কিছু কথা যা জানি না তা আজকে এই প্রতিবেদনে আলোচনা করব।

আমরা অনেকেই জানি না নরেন্দ্রনাথ ক্রিকেট খেলা ভীষণভাবে পছন্দ করতেন। কলকাতার ঐতিহাসিক ইডেন গার্ডেন মাঠ ক্রিকেট খেলতেন তিনি। ১৮৮৪ সালে কলকাতা ক্রিকেট ক্লাব এবং টাউন ক্লাবের মধ্যে একটি খেলা অনুষ্ঠিত হয়েছিল। সেই খেলায় আসাধারন বল করে নিয়েছিলেন ৭ উইকেট.

স্বামী বিবেকানন্দ অর্থাৎ নরেন্দ্রনাথ দত্ত টাউন ক্লাবের হয়ে খেলতেন। এই ক্রিকেট ম্যাচের কথা ইডেন গার্ডেন মাঠ সম্পর্কিত বিশেষ কিছু বইতে উল্লেখিত আছে। ইডেন গার্ডেনকে বলা হয় ভারত ক্রিকেটের মক্কা। ব্রিটিশ শাসনামলে এটি বৃটেনের বাইরে ক্রিকেটের সব থেকে বড় গন্তব্য বলে মনে করা হতো। ব্রিটিশ রাজের সময় এখানে কলকাতা ক্রিকেট ক্লাব চালু হয়েছিল, যার পরিপ্রেক্ষিতে বাঙালি সম্প্রদায় টাউন ক্লাব নামে একটি ক্রিকেট ক্লাব প্রতিষ্ঠা করেছিলেন।

স্বামী বিবেকানন্দ টাউন ক্লাবের হয়ে ক্রিকেট খেলতেন, যেটি শুরু করেছিলেন সারদা রঞ্জন রায়, যিনি ছিলেন ভারতের বিখ্যাত চলচ্চিত্র পরিচালক সত্যজিৎ রায়ের দাদা। বর্তমানে ভারতীয় ক্রিকেট দলের একজন অন্যতম ক্রিকেটের মোহাম্মদ সামিও খেলেছেন কলকাতা টাউন ক্লাবের হয়ে।

যদিও নরেন্দ্রনাথ দত্ত ক্রিকেট মাঠে তার নিজের ক্যারিয়ার গড়তে পারেননি। তার গন্তব্য ছিল একেবারেই অন্য। স্বামী রামকৃষ্ণ পরমহংসদেব এর অনুপ্রেরণায় তিনি আধ্যাত্বিক জগতে প্রবেশ করেছিলেন এবং সারা বিশ্বের কাছে স্বামী বিবেকানন্দ রূপে সারা জীবন পরিচিত হয়ে যান এবং অমর হয়ে যান।