ধর্মেন্দ্রকে বিয়ে করায় হেমা মালিনীর ওপর এতোখানিই ক্ষুব্ধ হন সানি দেওল যে চাকু নিয়ে করতে গিয়েছিলেন হামলা

ভালোবাসা মানে না কোন ধর্ম, কোন জাত, কোন দেশ। কথাতেই আছে ভালোবাসা অন্ধ। এই কথাটি আরও একবার প্রমাণিত করে দিয়েছিলেন অভিনেতা ধর্মেন্দ্র। হেমা মালিনীর সঙ্গে যখন তাঁর সাক্ষাৎ হয়েছিল, তখন তিনি ছিলেন বিবাহিত। চার সন্তানের বাবা। এতকিছুর পরেও হেমা মালিনীর সৌন্দর্য্যে মুগ্ধ হয়ে গিয়েছিলেন তিনি। যেভাবেই হোক বিয়ে করবেন হেমা মালিনীকে, এমন সিদ্ধান্ত নিয়ে ফেলেছিলেন ধর্মেন্দ্র। স্ত্রী ডিভোর্স না দেওয়ায় মুসলিম ধর্ম গ্রহণ করে বিয়ে করেছিলেন হেমা মালিনীকে।

চিরকালই বিতর্কে ভরা ধর্মেন্দ্রর জীবন। সম্প্রতি সংবাদ মাধ্যমে উঠে এলো আরো একটি বিতর্কিত প্রসঙ্গ। ধর্মেন্দ্র যখন হেমা মালিনীকে বিয়ে করেছিলেন, তখন নাকি সানি দেওল এতটা রেগে গিয়েছিলেন, যে হেমা মালিনীকে ছুরি দিয়ে আঘাত করতে গিয়েছিলেন তিনি। এই গুঞ্জন ঘিরে যখন বিতর্ক তুঙ্গে বলিপাড়ায়, ঠিক তখনই মুখ খুললেন ধর্মেন্দ্রর প্রথম স্ত্রী প্রকাশ কৌর।

প্রকাশ কৌর জানান, দীর্ঘদিন বিবাহ বন্ধনে আবদ্ধ হয়ে থাকার পর যখন ধর্মেন্দ্র জানান, তিনি হেমা মালিনীকে বিয়ে করবেন তখন স্বাভাবিক ভাবেই রুষ্ট হয়েছিলেন তিনি। একজন ভারতীয় নারী হিসেবে এটা অনুচিত বলে মনে করেন না তিনি। তবে প্রথম দিকে সানি সহ অন্যান্য সন্তানরা এই বিয়ে না মেনে নিতে পারলেও পরবর্তী সময়ে খুব একটা সমস্যা হয়নি।

তবে সানি হেমা মালিনীকে আঘাত করেছিলেন, এই কথাটি একেবারে মিথ্যা। কখনোই এমন কোন ঘটনা ঘটেনি। আজ হেমা মালিনীর সঙ্গে তাঁর চার সন্তানের সম্পর্ক খুবই ভালো। এমন অনেক ঘটনা রটে, যার কোন অস্তিত্ব থাকে না। এমন কথা সম্পর্ককে আরো বেশি খারাপ করে দেয়।