দেশনতুন খবরবিশেষভারতীয় সেনা

বায়ুসেনার শক্তি দ্বিগুণ বৃদ্ধি করতে সুখোই যুদ্ধবিমানে যুক্ত হচ্ছে স্পাইস বোমা! আরো একবার ঘুম উড়তে চলেছে পাকিস্তানের।

পুলওয়ামায় জঙ্গি হামলার বদলা নিতে 26 শে ফেব্রুয়ারি এয়ার স্ট্রাইক করে ভারতীয় বায়ুসেনা। ওই অভিযানে মিরাজ-2000 যুদ্ধবিমান ব্যবহার করা হয়েছিল। ওই  যুদ্ধবিমান থেকে স্পাইস-2000 বোমা ফেলে বালাকোটের সব থেকে বড় জঙ্গি কাটে গুঁড়িয়ে দিতে সক্ষম হয় ভারতীয় বায়ুসেনা। ওই অভিযানে ব্যবহৃত স্পাইস-2000 বোমা এবার সুখোই যুদ্ধবিমানের সঙ্গে যুক্ত করতে করতে চাই ভারত। সরকারি সূত্রে এমনটাই খবর আসছে। সুত্রে খবর পাওয়া যায় যে বালা কোর্টে হামলার সাফল্য দেখে এই সিদ্ধান্ত নেওয়া হচ্ছে। বিশেষজ্ঞদের মতে এটি হলে ভারতের বায়ু সেনার শক্তি আরো বেড়ে যাবে।পাকিস্তানের অধিকৃত কাশ্মীরের বালাকোটে ভারতের দ্বিতীয় সার্জিক্যাল স্ট্রাইক এর পর থেকেই জম্মু- কাশ্মীরের নিয়ন্ত্রণরেখা বরাবর উত্তেজনা বেড়েই চলেছে।

দ্বিতীয় সার্জিক্যাল স্ট্রাইকের পরের দিনেই ভারতের আকাশসীমায় ঢুকে পড়েছিল পাকিস্তানের 20 টির ও বেশি যুদ্ধবিমান। ভারতীয় বায়ুসেনা এর পাল্টা জবাব দেয়। ভয়ে পাকিস্তানের যুদ্ধ বিমান গুলি পালিয়ে যায়। সেই তালিকায় পাকিস্তানের 3 টি এফ-16 যুদ্ধবিমান ছিল। যার মধ্যে একটিকে আকাশে ভেঙে দেয় উইং কমান্ডার অভিনন্দন বর্তমান মিগ-21 দিয়ে। এর পরেই পাকিস্তানের হাতে ধরা পড়ে যায় অভিনন্দন। অবশ্য তিনদিন পর অভিনন্দন কে ছাড়তে বাধ্য হয় পাকিস্তান। পাকিস্তানের প্রধানমন্ত্রী দাবি করেন, শান্তির বার্তা দিতে অভিনন্দন কে ছেড়ে দেওয়া হল। এগুলি যদিও পুরো মিথ্যে। আসলে ভারতের কূটনৈতিক চাপ এবং জেনেভা কনভেনশন এর জেরেই অভিনন্দন কে ছাড়তে বাধ্য হয় ইমরান খানের সরকার। নিয়ন্ত্রণ রেখার পরিস্থিতি দেখে স্পষ্ট বোঝা যাচ্ছে তারা শান্তি চায় না। কারণ, নিয়ন্ত্রণ রেখার ওপার থেকে প্রায় প্রতিদিন এই পাক গোলা আসছে ভারতীয় সীমান্তে।

নয়াদিল্লি সুত্রে খবর পাওয়া গেছে, পাকিস্তানকে আরো চাপে রাখতে সুখোই SU-30 MKI যুদ্ধ বিমানে স্পাইস বোমা যুক্ত করা হবে। সরকারি সূত্রে আরও জানা গেছে যে, এখন শুধুমাত্র মিরাজ-2000 যুদ্ধবিমান এই স্পাইস বোমা লাগিয়ে যুদ্ধ করতে সক্ষম ভারতীয় বায়ুসেনা। তাই সুখোই যুদ্ধবিমান যদি এই কাজটি করতে পারে তাহলে ভারতীয় বায়ুসেনার শক্তি আরও অনেক গুন বেড়ে যাবে।

Related Articles

Back to top button