দাদার মৃত্যুতে ভেঙে পড়লেন দক্ষিণী অভিনেতা মহেশ বাবু, শেষ যাত্রায় দিতে পারলেন না সঙ্গ

দক্ষিণী সিনেমার অন্যতম সেরা অভিনেতা হলেন মহেশ বাবু। একাধিক সিনেমায় অসাধারণ অভিনয় করে তিনি দক্ষিণী সিনেমার প্রথম সারির অভিনেতাদের মধ্যে নিজের জায়গা করে নিয়েছেন। কিন্তু এই হাসিখুশি অভিনেতার বাড়িতে নেমে এল শোকের ছায়া। প্রসঙ্গত, বলিউড তথা সমস্ত ইন্ডাস্ট্রির কলাকুশলীদের জীবন বিপর্যস্ত হয়ে পড়েছিল করণা মহামারীর জেরে। হল বিমুখ মানুষদের আরো একবার হলে ফেরানোর জন্য ক্রমাগত চেষ্টা করে চলেছেন ইন্ডাস্ট্রির সমস্ত মানুষ। সুপারস্টার ছাড়া ইন্ডাস্ট্রির তুলনামূলকভাবে কম জনপ্রিয় অভিনেতা অভিনেত্রীদের দু’বেলা দু’মুঠো অন্ন জোগাড় করতে হিমশিম খেয়ে যেতে হয়েছিল।

শুধুমাত্র অন্নসংস্থানের সমস্যা নয়, করোনা মহামারী কেড়ে নিয়েছে বহু জনপ্রিয় অভিনেতা অভিনেত্রীদের প্রাণ। এবার করোনা মহামারী কেড়ে নিল জনপ্রিয় অভিনেতা মহেশ বাবুর দাদা রমেশ বাবুর প্রাণ। গত শনিবার মাত্র ৫৬ বছর বয়সে করোনা আক্রান্ত হয়ে মৃত্যু হল রমেশ বাবুর। রমেশবাবু একজন সুপরিচিত প্রযোজক। দীর্ঘদিন ধরে লিভারের সমস্যায় আক্রান্ত ছিলেন তিনি। অবশেষে করোনার যুদ্ধ জিততে পারেননি তিনি। মাত্র ৫৬ বছর বয়সে পৃথিবীর মায়া ত্যাগ করে চলে যেতে হল এই প্রযোজককে।

প্রসঙ্গত, মহেশ বাবু নিজেও এখন করোনায় আক্রান্ত, হোম আইসোলেশনে থেকে চিকিৎসা করাচ্ছেন তিনি। যেহেতু তিনি নিজেও করোনা আক্রান্ত, তাই এই সময়ে এমন একটি খবর তার কাছে ভীষণ ভাবে অসহনীয় বলে মনে করা হচ্ছে।

সোশ্যাল মিডিয়ায় এই খবর প্রচারিত হওয়ার সাথে সাথে বহু মানুষ রমেশ বাবুর বিদেহী আত্মার শান্তি কামনা করেছেন। অন্যতম চলচ্চিত্র প্রযোজক বি এ রাজু বিদেহী আত্মার শান্তি কামনা করে লিখেছেন,”এই ক্ষতি সত্যিই অপূরণীয়। কিন্তু এই পরিস্থিতিতে আমাদের কিছু করার নেই। আমাদের এই পরিস্থিতির সঙ্গে সমানে লড়াই করে যেতে হবে”।