চাপ বাড়তে চলেছে মোদি সরকার এর উপর! প্রতিশ্রুতি পূরণ না হলে ফিরিয়ে দেবেন পদ্মভূষণ উপাধি দাবি এই নেতার।

আরো একবার অনশনে বসতে চলেছেন সমাজকর্মী আন্না হাজারে গত বুধবার থেকেই তিনি এই অনশনে বসবেন বলে জানিয়েছেন। অনশন মঞ্চ থেকেই এই নেতা বার্তা, কেন্দ্র যদি প্রতিশ্রুতি পূরণ না করেন তাহলে পদ্মভূষণ সম্মান ফিরিয়ে দেবেন তিনি। আহমেদনগর জেলার রালেগান সিদ্ধি গ্রামে তিনি বড় হয়ে উঠেন আর এখানেই তিনি আমরণ অনশন শুরু করেন। এখানেই তিনি আরও একবার অনশন শুরু করতে চলেছেন।তিনি এই রবিবার দাবি করেন মানুষের বিশ্বাসের অমর্যাদা করেছেন মোদি সরকার। তবে এবার এটা জানলে আপনার আশ্চর্য হবেন যে আন্নার এই অনুসঙ্গে সমর্থন করছেন বিজেপি শরিক শিবসেনা রাও।

এছাড়াও উদ্যোগ ঠাকুরের দল জানিয়েছে দুর্নীতির বিরুদ্ধে জয়প্রকাশ নারায়ণ এর মতো লড়াই চালিয়ে যাচ্ছেন আন্না হাজারে।এছাড়া কৃষির সমস্যা মেটাতে স্বামীনাথন কমিশনের রিপোর্ট প্রয়োগে নির্বাচনের সংস্কারের দাবি তোলেন তিনি।শুধু এখানেই শেষ নয় আন্না হাজারে বিস্ফোরক অভিযোগ তোলেন তিনি বলেন 2014 সালে ক্ষমতায় আসার জন্য তাকে অপব্যবহার করা হয়েছে।এমনকি গুরুর মঞ্চ ব্যবহার করে শিষ্য অরবিন্দ কেজরিওয়াল মুখ্যমন্ত্রী হয়েছেন বলে দাবি করেছেন আন্না হাজারে।আপনাদের বলে রাখি গত পাঁচদিন শারীরিক অসুস্থতায় ভুগছিলেন আন্না হাজারে এই কয়েকদিনে তার ওজন প্রায় 4 কেজি মতন কমেছে। রক্তচাপ,সুগার,ক্রিয়েটিনিনের পরিমাণ এক ধাক্কায় অনেকখানি বেড়ে গিয়েছে বলে দাবি করেছেন চিকিৎসকরা। প্রায় 5000 জন কৃষক অংশগ্রহণ করতে চলেছেন আন্না হাজারের অনশন সমর্থনে।

এর আগে 2011 সালের 5 এপ্রিল থেকে অনির্দিষ্ট কালের জন্য আমরন অনশন চালু করেছিলেন আন্না হাজারে যার দরুন চাপে পড়ে 2011 সালে লোকপাল লোকায়ুক্ত বিল এনেছিলেন মনমোহন এর সরকার। প্রায় 10 ঘণ্টা আলোচনা করে বিল পাস করা হয়েছিল লোকসভায় তবে বিরোধীরা ওই বিলে নানা দুর্বলতা ধরায় ওই বিল রাজ্যসভার মধ্যেই আটকে যায়। আর মোদি সরকার আসার পরও এই বিলে কোন প্রকার দিশা দেখা যায়নি লোকপাল নিয়োগে।

Related Articles

Leave a Reply

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.

Close