শিভম দুবে দিলেন থেকে বড় বয়ান তৃতীয় ম্যাচ চলাকালীন রোহিত শর্মা সকলকে ডেকে বলেছিলেন এ কথা আর তারপরই..

যেমনটা আমরা জানি হার্দিক পান্ডিয়া বর্তমানে চোটের কারণে বাইরে রয়েছেন। যার জেরে বর্তমানে ভারত বনাম বাংলাদেশ টি-টোয়েন্টি সিরিজে শিভম দুবেকে ভারতীয় দলের অংশ করা হয়েছিল। যেখানে প্রথম দুটি ম্যাচে শিভাম দুবে বিশেষ কিছু মনে রাখার মত প্রদর্শন করতে পারেননি কিন্তু শেষ ম্যাচে অর্থাৎ তিন নম্বর টি-টোয়েন্টি ম্যাচের মুখে মুশকিলের সময়ে তিনি তিনটি উইকেট ভারতীয় দলের জন্য এনে জয় এনে দেন। যার মধ্যে বাংলাদেশের ক্রিকেটার রহিম আর মহম্মদ নঈমের উইকেট টি শামিল ছিল।

দিল্লিতে অনুষ্ঠিত হওয়া ভারত বনাম বাংলাদেশ টি-টোয়েন্টি সিরিজে ডেবিউর সুযোগ ছিল। তবে এই ম্যাচে বল আর ব্যাটে তিনি বিশেষ কিছুই প্রদর্শন করতে পারেননি যা মনে রাখার মতো হবে। ম্যাচের আগে প্রত্যেক খেলোয়াড় চাপ অনুভব করেন। এই ব্যাপারে ইন্ডিয়ান এক্সপ্রেসকে দেওয়া ইন্টারভিউতে তিনি বলেন, আমি এটাকে ভারতের হয়ে খেলার চাপ বলবো কিন্তু সাপোর্ট স্টাফেরা বুঝিয়েছেন আর এটা সুনিশ্চিত করেছেন যে আমি সেই চাপ যাতে অনুভব না করি

তার সাথে সাথে ওরা আমার সমর্থন করেছে রবি শাস্ত্রী আসেন আর বলেন যে চাপ নিও না ব্যাস শুধু নিজের খেলা দেখিয়ে যাও। সেই সময় উনি আমাকে জানিয়েছেন যে একটি টি-টোয়েন্টি খেলায় সকলেই মার খান। যখন এটা আপনার দিন হবে, তো আপনি ভালো করবেন কিন্তু গুরুত্বপূর্ণ কথা এটাই যখন এটা আপনার দিন হবে না তো কিভাবে এটা বের করবে”।অন্যদিকে নাগপুরে অনুষ্ঠিত হওয়া ভারত বনাম বাংলাদেশ টি-টোয়েন্টি সিরিজের শেষ ম্যাচে অর্থাৎ তৃতীয় ম্যাচটিতে যখন ভারতীয় দল হারের দিকে এগোচ্ছিল,

তখন রোহিত শর্মা সকল খেলোয়াড়দের নিজের কাছে ডেকে তাদের সাথে কথাবার্তা বলেন। আর এরপরই ম্যাচের দিক সম্পূর্ণভাবে বদলে যায়। এই বিষয় নিয়ে শিভম দুবে বলেন,আমরা উইকেট নিয়েছিলাম আর রোহিত ভাই আমাদের শারীরিক ভাষা নিয়ে খুশি ছিলেন না।এই সময়ে রোহিত ভাই আমাদের উৎসাহিত করে বলেন আমাদের মাঠে আরো বেশি প্রয়াস করতে হবে আর এখনো আশা রয়েছে আমরা এখান থেকে খেলা বদলাতে পারি।
অন্যদিকে শিভাম দুবে প্রথম দুটি ম্যাচ বিশেষ ভালো ছিল না তবে তৃতীয় ম্যাচে তিনি তার কামাল দেখাতে সক্ষম হন কিন্তু এখনও তিনি তার নিজের প্রদর্শনে সন্তুষ্ট নন একথা জানান তিনি। এই বিষয় নিয়ে তাকে প্রশ্ন করায় তিনি জানান,আমি অত্যন্ত খুশি যে আমরা সিরিজ জিতেছে কিন্তু আমি আমার প্রদর্শনে সন্তুষ্ট নয় কারণ আমার মনে হয় আমার আরো ভালো প্রদর্শন করা যেতে পারতো এই ম্যাচে। এটা একটা শেখার বিষয় যার দরুন আমি প্রত্যেক ম্যাচে আগের থেকে ভালো করার চেষ্টা করছি।