নির্বাচনের আগেই শুরু হচ্ছে সাফাই অভিযান! ১২ টি রাজ্যে ঢুকে রয়েছে রোহিঙ্গারা, তালিকা প্রকাশ কেন্দ্রের

রোহিঙ্গারা বর্তমানে বিশ্বের অন্যতম আলোচনার কেন্দ্রবিন্দু হয়ে উঠেছে৷ প্রতিদিনই রেহিঙ্গা সংক্রান্ত  কোনো না কোনো খবর উঠে আসছে সংবাদ শিরোনামে।  বুধবার একটি চাঞ্চল্যকর তথ্য পেশ করা হল রাজ্যসভায়। জানা যাচ্ছে ভারতের ১২টি রাজ্যে অবৈধভাবে ঢুকে রয়েছে রোহিঙ্গারা।

বুধবার রাজ্যসভায় প্রশ্ন ওঠে ভারতের কোন কোন রাজ্যে রোহিঙ্গারা বসবাস করছে?কেন্দ্র সরকারের তরফে জানানো হয়েছে, দেশের ১২টি রাজ্য এবং কেন্দ্রশাসিত অঞ্চলে রোহিঙ্গারা বসবাস করছে। কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্র মন্ত্রকের তরফ থেকে এই তথ্য  জানানো হলেও ঠিক কত সংখ্যক রোহিঙ্গা ভারতে রয়েছেন তার এখনও জানা যায়নি৷

কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রকের প্রতিমন্ত্রী নিত্যানন্দ রাই রোহিঙ্গাদের সংখ্যা কেন বলা যাচ্ছে সেই  কারণ জানিয়েছেন, তিনি বলেন,   “তারা যেহেতু অবৈধ ভাবে আসে এবং কোনও বৈধ নথি নিয়ে আসে না তাই ঠিক এদের সম্পর্কে নিখুঁত তথ্য দেওয়া সম্ভব নয়। তারা সাধারণত গোপনেই প্রবেশ করে।”

ভারতের প্রতিরক্ষা খাতে যা ব্যয় তা পাকিস্তানের অর্ধেক বছরের খরচ, গোটা দুনিয়ার কাছে হাসির খোরাক পাকিস্তান

তবে কোন কোন রাজ্য এবং কেন্দ্রশাসিত অঞ্চলে রোহিঙ্গারা রয়েছেন সেই তালিকা প্রকাশ করেছেন।  রাজ্যসভায় লিখিত আকারে নিত্যানন্দ রাই জানিয়েছেন, “দিল্লি, উত্তরপ্রদেশ, পশ্চিমবঙ্গ, অসম, কর্ণাটক, কেরল, তামিলনাড়ু, হরিয়ানা, জম্মু ও কাশ্মীর, রাজস্থান, তেলেঙ্গানা ও পঞ্জাবে রয়েছে রোহিঙ্গারা।”

রোহিঙ্গা প্রসঙ্গে নিত্যানন্দ রাই আরও জানিয়েছেন যে, “অবৈধভাবে আসা অন্যান্য দেশের নাগরিকদের শনাক্ত করার কাজ জারি রয়েছে। নাগরিকত্ব খতিয়ে দেখার পরেই প্রবেশাধিকার দেওয়া হবে। দেশের প্রতিটি রাজ্য এবং কেন্দ্রশাসিত অঞ্চলকে বিদেশি নাগরিকদের নির্বাচন অথবা পুনরায় দেশে প্রেরণ করার নির্দেশিকা দেওয়া হয়েছে ২০১৪-র ২৪ এপ্রিল ও ২০১৯-এর ১ জুলাইয়ে।”