ফের উত্তপ্ত পুলওয়ামা, জঙ্গি-সেনা লড়াইয়ে গুলিবিদ্ধ 4 জওয়ান সহ 1 জন মেজর…

গোয়েন্দা সূত্রে খবর পুলওয়ামা হামলায় আত্মঘাতী জঙ্গি আদিল দারের প্রশিক্ষক রশিদ গাজি এখনো ওই এলাকাতে লুকিয়ে রয়েছেন। আর বৃহস্পতিবার পুলওয়ামা সিআরপিএফ কনভয়ে জঙ্গি হামলার পর থেকেই ওই এলাকায় শুরু হয়েছে তল্লাশি। আর এই তল্লাশি করতে গিয়ে শুরু হয় সেনা জওয়ানদের সাথে জঙ্গিদের গুলির লড়াই।এখনো পর্যন্ত জানা গেছে গভীর রাতে সেনাবাহিনী জওয়ানদের লক্ষ্য করে প্রথমে গুলি ছোড়ে জঙ্গিরা জবাবে পাল্টা গুলি করা হয় নিরাপত্তা বাহিনীর তরফ থেকে।আরো জানতে পারা জঙ্গী ও সেনাদের গুলির লড়াইয়ে গুলিবিদ্ধ হয়েছেন 4 জন জওয়ান এদের মধ্যে রয়েছেন একজন মেজর।

সংবাদ মাধ্যমে খবর অনুযায়ী জানতে পারা যায় এই গ্রামে নাকি দুই থেকে তিনজন মোস্ট ওয়ান্টেড জঙ্গি সাথে আরো কয়েকজন জঙ্গি লুকিয়ে রয়েছে এই খবর পেয়েই তল্লাশি শুরু করা হয় জোরদার। আর রবিবার দিন গভীর রাতে পুলওয়ামায় পংগিন গ্রাম ঘিরে ফেলে সেনা। এখন মনে করা হচ্ছে ওইসব জঙ্গিরা পালাবার পথ না পেয়ে গুলি চালাতে শুরু করেছে। বৃহস্পতিবার আত্মঘাতী হামলার পরই এলাকায় তালাশি শুরু হয়ে যায়। ফলে ওই এলাকা থেকে রশিদ গাজি পালাতে পারেনি বলে মনে করা হচ্ছে। তবে এই অভিযানের দরুন দুই জঙ্গি কে ধরতে পেরেছে ভারতীয় সেনা। এখন তাদের জিজ্ঞাসাবাদ করে বাকিদের সন্ধানের চেষ্টা চালাচ্ছে নিরাপত্তা বাহিনী চলছে তল্লাশি অভিযান ও। আর এই লুকিয়ে থাকা জঙ্গিদের ধরতে স্থানীয়দের সতর্ক করার কাজ চালাচ্ছে সেনাবাহিনী। এখনো পর্যন্ত পাওয়া খবর অনুযায়ী জানতে পারা গেছে সেনা-জঙ্গি গুলির লড়াই থেমে গেছে।

Advertisements

Advertisements

তবে জঙ্গিদের ধরতে ওই এলাকায় নিরাপত্তা বাহিনী জোরদার করা হয়েছে সেনার তরফ থেকে, চলছে তল্লাশি।বৃহস্পতিবার পুলওয়ামায় সিআরপিএফের কনভয়ে হামলা চালায় জঙ্গিরা এই ভয়ঙ্কর বিস্ফোরণের ফলে শহীদ হন 40 জন সিআরপিএফ জওয়ান আহত হয় আরো অনেকে।আর তারপর থেকে এলাকায় তল্লাশি নেমেছে সিআরপিএফ, সেনা ও কাশ্মীর পুলিশ বাহিনী।