85 টি চার মেরে পৃথ্বী শাহ্ ভেঙ্গে দিলেন সমস্ত রেকর্ড, বানালেন এত রান যা দুটো টিম মিলেও বানাতে পারবে না। !

এই মুহুত্তে ভারতীয় ক্রিকেট দলে এমন কিছু যুব প্রতিভার উদয় হয়েছে যারা নিজেদের খেলায় মুগ্ধ করছেন সমগ্র দেশ কে। যারা প্রায় দিনই কিছু না কিছু নুতন জিনিস করে সকলের নজরে আসছেন। ক্রিকেট বিশেষজ্ঞরা মনে করেন যে ক্রিকেট হল এমন একটি খেলা যেখানে কোনো কিছুই অসম্ভব নয় এবার কিছুই চিরস্থায়ী নয়। অর্থাৎ রোজই কিছু না কিছু নুতন ঘটছে। আবার অনেক পুরোনো রেকর্ড ভেঙে গিয়ে নুতন রেকর্ড তৈরী হচ্ছে।আজ আপনাদের সামনে তুলে ধরব সেইরকমই একজন যুব ক্রিকেটারকে যে করে চলেছে একের পর এক রেকর্ড। আর সেই প্রতিভাবান ক্রিকেটার হলেন ভারতীয় যুব বিশ্বকাপ জয়ী দলের অধিনায়ক পৃথ্বী শাহ।

আপনাদের জানিয়ে রাখি, এই মুহুত্তে ভারতের জাতীয় ক্রিকেট দলে যতজন রেগুলার ব্যাটসম্যান রয়েছেন তাদের মধ্যে সবচেয়ে কম বয়সী হলেন এই পৃথ্বী শাহ। আর পৃথ্বী শাহ এই মুহুত্তে জাতীয় দলের হয়ে ক্রিকেটের সব ফর্মেটেই যথেষ্ট ভালো খেলছেন।আরো আপনাদের জানিয়ে দি যে, এই পৃথ্বী শাহের রয়েছে একটি বিরাট বড়ো ক্রিকেটীয় ইনিংস খেলার রেকর্ড। কিছুদিন আগে আজাদ এর ময়দানে একটি ক্রিকেট ম্যাচ হয়েছিল আর সেই ম্যাচেই পৃথ্বী শাহ করেছিলেন এই বিশাল রেকর্ড। সেই ম্যাচে ব্যাট হাতে নেমে ছিলেন পৃথ্বী। ম্যাচে ব্যাট হাতে নেমে দুদিনে মোট ৩৬৭ মিনিট পিচে দাঁড়িয়ে ব্যাট করেছিলেন তিনি, এবং সেই ম্যাচে ব্যাট করে উনি মোট ৮৫ টি চার এবং ৫ টি ছয় মেরে করেছিলেন মোট ৫৪৬ রান।

আর এই সুন্দর ইনিংসটি হল পৃথ্বী শাহ এর এতদিনের সবচেয়ে ভালো প্রদর্শন। এইসাথে সেই ম্যাচে ১৬৯ রান করে পৃথ্বী শাহের সাথে যোগ্য সঙ্গ দিয়েছিলেন আরেক প্রতিভাবান ব্যাটসম্যান সত্য জেইন। এই দুজন মিলে সেই ম্যাচে ৬১৯ রানের একটি সুন্দর যুগলবন্দী ইনিংস খেলেন। ফলে সেই দিন বিপক্ষ কে এনারা দুজন মিলেই শেষ করে দেন।এই বছর এখন অব্দি পৃথ্বী শাহ ঘরোয়া ক্রিকেটে সবচেয়ে ভালো ধারাবাহিক ভাবে খেলেছেন। এর ফলে এই বছর টেস্ট ক্রিকেটে তার অভিষেক হয়েছে সেখানেও তিনি দারুন খেলেছেন। তবে এখন অব্দি ওয়ানডে ম্যাচের জন্য এবং T-20 জন্য ডাক পাননি। কিন্তু পৃথ্বী শাহের খেলা দেখে এইটুকু নিশ্চিত যে খুব তাড়াতাড়িই জাতীয় দলের সমস্ত ফরম্যাটে উনি ডাক পেতে চলেছেন।

#অগ্নিপুত্র