মাত্র ৩১ বছর বয়সে সন্তান জন্মের সময় মারা যান স্মিতা পাতিল, সেই মায়ের কথা স্মরণে লেখা ছেলের চিঠি দেখে আবেগপ্রবণ নেটজনতা

স্মিতা প্যাটেল, যে সময় মানুষ সুন্দরী নারীদের প্রতি আকৃষ্ট হতেন, ঠিক সেই সময় শুধুমাত্র অভিনয় দক্ষতার দ্বারা সকলের মন জয় করে নিয়েছিলেন এক অভিনেত্রী যার নাম, স্মিতা প্যাটেল। স্মিতা প্যাটেল পুনেতে এক মারাঠা পরিবারে জন্মগ্রহণ করেছিলেন। প্রথমবার দূরদর্শনের সংবাদ পাঠক হিসেবে ক্যামেরার সামনে হাজির হয়েছিলেন তিনি। টেলিভিশনের সংবাদ উপস্থাপনার পাশাপাশি আলোকচিত্রী হিসেবে কাজ করার সময় তাঁকে দেখেন চলচ্চিত্র পরিচালক শ্যাম বেনেগাল। তারপর থেকেই শুরু হয়ে যায় তাঁর অভিনয় জগতের যাত্রা।

শ্যাম বেনেগাল পরিচালিত “চরণ দাস চোর”, সিনেমার মাধ্যমে তাঁর অভিষেক ঘটেছিল সিনেমা দুনিয়ায়। তাঁর উল্লেখযোগ্য চলচ্চিত্রের মধ্যে অবশ্যই বলা যায় মন্থন, আক্রোশ, চিদাম্বরম, মির্চ মশলা। শ্যাম বেনেগাল ছাড়াও সত্যজিৎ রায়, মৃণাল সেনের মতো পরিচালকের সঙ্গে কাজ করেছিলেন তিনি।

ব্যক্তিগত জীবনে অভিনেতা রাজ বব্বরের সঙ্গে বিয়ে করেছিলেন তিনি। পূত্র প্রতীক বব্বরকে জন্মদানের মাত্র দুই সপ্তাহের মধ্যে জন্ম সংক্রান্ত জটিলতার কারণে তার মৃত্যু হয় ১৩ ডিসেম্বর ১৯৮৬ সালে।

স্বাভাবিকভাবেই প্রতীক বব্বর মায়ের ভালোবাসা পাননি। তা সত্ত্বেও তিনি মনে করেন তাঁর সব থেকে কাছের মানুষ যদি কেউ হয়ে থাকেন, তিনি তাঁর মা। সম্প্রতি মায়ের ৩৪ তম মৃত্যুবার্ষিকীতে একটি ছবি শেয়ার করে আবেগপূর্ণ পোস্ট করেন প্রতীক। মায়ের উদ্দেশ্যে একটি খোলা চিঠিতে তিনি লেখেন,”আজ থেকে ৩৪ বছর আগে মা আমাকে ছেড়ে চলে যান চিরতরে। তারপর থেকে শুধুমাত্র আমার কল্পনা এবং আমার হৃদয় জুড়ে রয়েছে মায়ের একটি চিত্র”।

 

View this post on Instagram

 

A post shared by prateik babbar (@_prat)

তিনি লিখেছেন,”আজ আমি যে জায়গায় দাঁড়িয়ে রয়েছি, তা শুধুমাত্র আমার মায়ের জন্য। আমার মধ্যেই আমার মা চিরতরে বেঁচে থাকবেন”। পোস্টটি সোশ্যাল মিডিয়ায় ঝড়ের গতিতে ভাইরাল হয়ে যায়। প্রতীকের সঙ্গে সঙ্গে আরও একবার সকলেই স্মৃতি রোমন্থন করে শ্রদ্ধা জ্ঞাপন করেন প্রয়াত অভিনেত্রীকে।