Skip to content

মোদি সরকারের নতুন প্রকল্প গ্রাম সমৃদ্ধি যোজনার দরুন গ্রামে বাড়তে চলেছে কাজের সুযোগ..

মোদী সরকারের প্রথম ইনিংসে কর্মসংস্থান নিয়ে বিরোধীরা সুর চড়িয়েছিলেন। তাই মোদী সরকারের দ্বিতীয় ইনিংসে কর্মসংস্থান টিকে এবার বিশেষভাবে জোর দিলেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী। কর্মসংস্থানের সুযোগ সুবিধা এবং কাজের সুবিধা বাড়ানোর জন্য নতুন পদক্ষেপ নিল কেন্দ্রীয় সরকার। এই প্রথমবার রোজগারের স্থিতি জানার জন্য আর্থিক সার্ভে করা হবে।

এ রোজগার সার্ভের মধ্যে প্রথমবার হাত ঠেলা চালিয়ে বা এই ধরণের যারা কাজ করেন তাদেরকেও এর মধ্যে আনা হবে। এছাড়া কেন্দ্রীয় সরকার গ্রামে কাজে নানা সুযোগ-সুবিধা বাড়ানোর জন্য বিশেষ জোর দিয়েছেন। কেন্দ্রীয় সরকারে অনুসারে কোন গ্রামবাসীকেই যেন রোজগারের জন্য গ্রাম ছেড়ে না যেতে হয় তার জন্য গ্রাম সমৃদ্ধি যোজনা চালু করার কথা ভাবছে।

এছাড়াও কেন্দ্রীয় খাদ্য দপ্তর থেকে জানানো হয়েছে, আগামী পাঁচ বছরে গ্রামীণ এলাকায় কিভাবে রোজগার এর পরিমাণ বাড়ানো যায় সে বিষয়ে নজর রাখবে কেন্দ্রীয় সরকার। এছাড়াও জানানো হয়েছে কৃষকের ছেলেমেয়েদের কাজের খোঁজ করতে হবে না বরং তারা অন্যদের কাজ দেবার মত তৈরি হবে। গ্রাম সমৃদ্ধি যোজনা সম্পর্কে কিছু তথ্য নিচে আলোচনা করা হল –

মোদি সরকারের এই গ্রাম সমৃদ্ধি যোজনা বিশ্ব ব্যাংকের সহযোগিতায় তৈরি করা হয়েছে এবং এই যোজনা দেশের প্রতিটি গ্রামে গ্রামে খুব তাড়াতাড়ি চালু করা হবে বলে কেন্দ্রীয় সরকারের তরফ থেকে জানানো হয়েছে। এই যোজনার বিশেষ উদ্দেশ্য হলো গ্রামীণ এলাকা গুলিতে রোজগার এর পরিমাণ বৃদ্ধি করা এছাড়াও কৃষকদের জন্য বিশেষ ব্যবস্থা নেওয়া এবং তাদের ফসলের যেন সঠিক মূল্য তারা পায় আর তাদের ফসল যেন নষ্ট না হয়। গ্রামাঞ্চলে ফুড প্রসেসিং এর কাজ অনেক বড় করে করতে হবে যাতে ওখানকার সবাই রোজগার করতে পারে।

এই যোজনা প্রতিটি গ্রামে গ্রামে পৌঁছে গেলে গ্রামবাসী দের আর্থিক অবস্থার অনেকটাই উন্নতি হবে। এছাড়াও দেশের বেকারের সংখ্যাও কমবে। দেখার বিষয় হলো এবার কত তাড়াতাড়ি কেন্দ্রীয় সরকার এই যোজনা প্রতিটি গ্রামে গ্রামে পৌঁছে দিতে পারে।