জন্মাষ্টমীতে বড় চমক দিলেন দেশের প্রধানমন্ত্রী, এবার বাহারিনে 200 বছরের প্রাচীন শ্রীকৃষ্ণ মন্দির সংস্কারের সূচনা করতে চলেছেন…

গতকাল জন্ম অষ্টমীর দিন দেশের জনগণকে বড় চমক দিলেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি। বাহারিন দেশের রাজধানী মনামায় প্রায় 200 বছরেরও বেশি প্রাচীন কৃষ্ণ মন্দির সংস্কারের প্রকল্পের সূচনা করবেন মোদি। যার জন্য মোট খরচ পড়বে 42 লক্ষ ডলার। আজকের দিনে বাহারিনে উড়ে যাবেন মোদী। আরো বলে রাখি প্রধানমন্ত্রীর নরেন্দ্র মোদী হবেন প্রথম ভারতীয় প্রধানমন্ত্রী যিনি প্রধানমন্ত্রী হিসেবে বাহারিনে পা রাখবেন।

দু’দিনের বাহারিন সফরে ঠাসা কর্মসূচির মাঝেই মনামায় শ্রীকৃষ্ণ মন্দির সংস্কারের প্রকল্পের উদ্বোধন করবেন প্রধানমন্ত্রী। এদিন টুইটারে প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী টুইট করে জানান মন্দির সংস্করণের জন্য ইতিমধ্যে ভারতীয় মুদ্রায় প্রায় 30 কোটি টাকা বরাদ্দ করা হয়েছে।এইদিন টুইটারে টুইট করে তিনি লিখেন উপসাগরীয় অঞ্চলের অন্যতম পুরনো প্রাচীন মন্দির গুলোর মধ্যে ভগবান শ্রীনাথজির মন্দির অন্যতম একটি।

তিনি জানান মন্দির সংস্কারের সূচনা অনুষ্ঠানে তিনি উপস্থিত থাকতে পেরে খুবই সম্মানিত।প্রায় 45 হাজার বর্গফুট জমির ওপর গড়ে তোলা হবে এই নতুন তিনতলা মন্দিরটিকে এবার এই নতুন মন্দিরটিতে আগের তুলনায় প্রায় 80% বেশি লোকজন একসঙ্গে একত্রে পুজো দিতে পারবেন বলে জানান তিনি।শুধু তাই নয় মন্দির কে কেন্দ্র করে সেখানে গড়ে উঠবে পর্যটন ও ব্যবসা বলে মনে করছেন বাহরিনের পর্যটন মন্ত্রক। সাথে এই মন্দিরটিকে যেকোন হিন্দু বাড়ির বিয়ে বাড়ির জন্য ভাড়া দেওয়া হবে বলে জানা গিয়েছে।এছাড়া এই মন্দিরে পাশাপাশি একটি গ্রন্থাগার ও মিউজিয়াম বানান হবে।জন্মাষ্টমীর দিন এরকম এক শুভ মুহূর্তে প্রধানমন্ত্রীর করা এই টুইটের ফলে খুবই খুশি হয়েছে বাহরিনের হিন্দু সমাজ। এই দিন মন্দিরের দি-শতবর্ষ পূর্তির উৎসব উপলক্ষে প্রধানমন্ত্রীকে কাছে পেয়ে তারা খুবই খুশি জানিয়েছেন সেখানকার হিন্দু ব্যবসায়ী সমিতির সদস্যরা।

এই দিন বাহারিন এর প্রবাসী ভারতীয়দের সঙ্গে দেখা সাক্ষাৎ করবেন প্রধানমন্ত্রী। আর তারপর শেখ খলিফা বিন সলমন আল খলিফা ও রাজা হামাদ বিন ইসা খলিফার সঙ্গে বৈঠক রয়েছে তার। আরো বলে রাখি, কয়েক দিন আগে জম্মু- কাশ্মীর নিয়ে ভারতের পাশে দাঁড়িয়েছেন বাহরিনের রাজা হামাদ বিন ইসা আল খলিফা।

Related Articles

Back to top button