এখন স্মার্টফোনের মাধ্যমে মাত্র 40 সেকেন্ডেই জানা যাবে অক্সিজেন লেভেল

করোনাকালে পালস অক্সিমিটার খুবই প্রয়োজন। প্রতিনিয়ত রক্তে অক্সিজেন এর মাত্রা দেখে নিয়ে করোনা  আক্রান্তদের সাহায্য করেছে পালস অক্সিমিটার। চাহিদার সঙ্গে পাল্লা দিয়ে বেড়েছে দাম৷ এই মুহূর্তে একটি পালস অক্সিমিটার এর দাম  2,000 টাকা। সম্প্রতি  কলকাতার এক স্টার্টআপ কোম্পানি,  একটি মোবাইল অ্যাপ নিয়ে এসেছে, যা রক্তে অক্সিজেনের মাত্রা পরিমাপ করতে সহায়ক৷ এর নাম CarePlix Vital। এই অ্যাপে স্মার্টফোন এর মাধ্যমেই রক্তে অক্সিজেনের মাত্রা জানা যাবে৷ বোঝা যাবে পালস রেট। কী ভাবে এই অ্যাপের সাহায্যে  অক্সিজেনের মাত্রা জানা যাবে?

রোগী ফোনের ক্যামেরার নীচে আঙুল রাখলে  ফোনের ক্যামেরার ফ্ল্যাশলাইট অন হয়ে যাবে।  তখনই  অক্সিজেনের পরিমাণ মাপা শুরু হবে৷ এরপর অ্যাপের মাধ্যমে স্মার্টফোনের  ডিসপ্লেতে  ভেসে উঠবে অক্সিজেন লেভেল।

CareNow Healthcare এই অ্যাপ তৈরি করেছে৷  সংস্থার সহ-প্রতিষ্ঠাতা সুব্রত পাল বলছেন, ‘রক্তে অক্সিজেনের মাত্রা মাপার জন্য প্রয়োজন একটি পালস অক্সিমিটার অথবা একটি ওয়্যারেবল ডিভাইস। এই সব ডিভাইসেই ফোটোপ্লেথিজমোগ্রাফি বা PPG প্রযুক্তি ব্যবহার করা হয়। এই অ্যাপেও সেই প্রযুক্তিই ব্যবহার করা হয়েছে’ রিপোর্টে বলা হয়েছে, ‘ যত জোরে আঙুল ক্যামেরার উপরে চাপা হবে, তত নিখুঁত রিডিং পাওয়া যাবে।’

ধীরে ধীরে শক্তি সঞ্চয় করে গতি বাড়িয়ে অতি শক্তিশালী হচ্ছে ঘূর্ণিঝড় যশ, স্থলভাগের আছড়ে পড়ার সময় গতিবেগ থাকবে ১৮৫ কিলোমিটার

মাত্র 40 সেকেন্ডেই স্মার্টফোনের উপর আঙুল রাখলে,ফোনের ডিসপ্লেতে জানা যাবে অক্সিজেন লেভেল৷ এই তথ্য রেকর্ড ক্লাউডে সেভও করা যাবে। CarePlix Vital-এর সহ-প্রতিষ্ঠাতা মনসিজ সেনগুপ্ত জানিয়েছেন , ‘ইতিমধ্যেই কলকাতার শেঠ শুক্লা কারনানি মেমোরিয়াল হাসপাতালে 1200 জনের উপরে এই ডিভাইসের ক্লিনিকাল ট্রায়াল হয়েছে।’ ট্রায়াল 96 শতাংশ সঠিকভাবে হার্টবিট ও 98 শতাংশ রক্তে অক্সিজেনের মাত্রা পরিমাপের ক্ষেত্রে সফল এই অ্যাপ।