গ্যাস ব্যবহারকারী গ্রাহকদের জন্য বেরিয়ে এলো সুখবর, একধাক্কায় অনেকখানি কমলো রান্নার গ্যাসের দাম

যেভাবে দিন দিন বাজারে ক্রমাগত জিনিসপত্রের দাম বৃদ্ধি পাচ্ছিল তার জেরে সাধারণ মানুষের মাথায় হাত পড়েছিল। তবে এবার আজ পয়লা মার্চ থেকে রান্নার গ্যাস ব্যবহারকারী মানুষদের জন্য বেরিয়ে এলো সুখবর। এবার এক ধাক্কায় অনেকখানি কমলো গ্যাসের দাম যার ফলে সাধারণ মানুষের কাছে খানিকটা হলেও স্বস্তির বার্তা পৌঁছালো। আজ অর্থাৎ পয়লা মার্চ থেকে কমে গেল 14.2 কিলোগ্রাম রান্নার গ্যাস সিলিন্ডারের দাম (ভর্তুকি সম্পন্ন)।

প্রাপ্ত খবর অনুযায়ী জানতে পারা গেছে বিভিন্ন তেলের কম্পানি গুলি রান্নার গ্যাস সিলিন্ডারে বড়োসড়ো কাটছাট করেছে যার ফলে কমেছে গ্যাসের দাম। তবে এখন দেখে নিন পয়লা মাস থেকে রান্নার গ্যাসের দাম কতখানি কমলো। বলে রাখি এ ক্ষেত্রে ভর্তুকিহীন রান্নার গ্যাসের দাম 14.2 কিলোগ্রামে 53 টাকা কমেছে।আর অন্যদিকে 19 কিলোগ্রামের কমার্শিয়াল সিলিন্ডার এর ক্ষেত্রে গ্যাসের দাম কমেছে 84.50 টাকা করে।

আর এই দামগুলি লাগু হয়ে গেছে আজ থেকেই। এক্ষেত্রে কলকাতায় ভর্তুকি গ্যাসের দাম প্রতি সিলিন্ডার পিছু দিয়ে দাঁড়ালো 839.50 টাকা (প্রতি 14.2 কিলোগ্রাম সিলিন্ডার পিছু)। আর এক্ষেত্রে দেশের রাজধানী দিল্লিতে গ্যাসের দাম দাঁড়িয়েছে 805.50 টাকা। আর চেন্নাই এ ক্ষেত্রে গ্যাসের দাম দাঁড়িয়েছে 826 টাকা প্রতি সিলিন্ডার পিছু। তবে যাই হোক অন্যান্য শহরের তুলনায় তুলনামূলক ভাবে মুম্বাইয়ে গ্যাসের দাম অনেকখানি কমেছে যেখানে মুম্বাইয়ে প্রতি সিলিন্ডার পিছু গ্যাসের দাম দাঁড়িয়েছে 776.50 টাকা।

আর অন্যদিকে উনিশ কিলোগ্রামের কমার্শিয়াল সিলিন্ডারের দাম বড় বড় চারটি শহরে দাঁড়িয়েছে, দেশের রাজধানী দিল্লিতে 1381.50 টাকা, কলকাতাতে 1450 টাকা , চেন্নাইতে সিলিন্ডার প্রতি দাম হয়েছে 1501.50 টাকা, আর মুম্বাইতে 1331 টাকা। তবে যেমনটা আমরা জানি বিদেশি মুদ্রার ক্ষেত্রে এক্সচেঞ্জ রেটের হিসাবে আন্তর্জাতিক বেঞ্চমার্ক দর দিয়ে এলপিজি সিলিন্ডারের দাম নির্দিষ্ট করা হয়।আর যেহেতু এই পুরো বিষয়টি নির্ভর করে আন্তর্জাতিক বাজারে দাম এর উপর তাই বিভিন্ন সময়ে এলপিজি সিলিন্ডারের দাম ও বিভিন্ন হয়ে থাকে।