উপত্যকার বর্তমান পরিস্থিতি পরীক্ষণ করতে শ্রীনগর পৌঁছালেন ভারতের “জেমস বন্ড”, আর সেখানেই সাধারণ মানুষের সাথে সেরে নিলেন..

জম্মু-কাশ্মীরে ধারা 370 বিলোপের পর থেকেই সেখানে কড়া নজরদারি রাখছে ভারতীয় নিরাপত্তা বাহিনী। আর এরই মধ্যে খবর আসছে এখন ওই রাজ্যে রয়েছেন ভারতের জাতীয় নিরাপত্তা উপদেষ্টা অজিত দোভাল। সেনাবাহিনীদের সাথে ছবি তোলা থেকে শুরু করে বাসিন্দাদের সঙ্গে খাবার খেতে দেখা যাচ্ছে ভারতের এই “জেমস বন্ড” অজিত দোভলকে।স্বরাষ্ট্রমন্ত্রক এর কাছে পাঠানো অজিত দোভাল এর গ্রাউন্ড রিপোর্ট থেকে জানতে পারা গেছে কাশ্মীর এখন সম্পূর্ণ স্বাভাবিক অবস্থায় রয়েছে কোনো অশান্তির চিহ্ন পর্যন্ত নেই সেখানে।

এখান থেকে আশঙ্কা করা যাচ্ছে 370 ধারা খারিজের সিদ্ধান্তকে গ্ৰহন করে নিয়েছে কাশ্মীর বাসীরা। যেমন কী আপনারা জানেন কাশ্মীর আর বিশেষ কোন রাজ্য নয় খারিজ করে দেওয়া হয়েছে তার ওপর থেকে 370 ধারা। এই মুহূর্তে পাক-উস্কানি ও অশান্তির আশঙ্কার জেরে উপত্যকায় নিরাপত্তাবাহিনীকে করা হয়েছে জোরদার। তবে কাশ্মীরকে দ্রুত ছন্দে ফেরাতে তৎপর রয়েছে সরকার। যার দরুন উপত্যকার বর্তমান অবস্থা খুঁটিয়ে দেখতে শ্রীনগর পৌছলেন জাতীয় নিরাপত্তা উপদেষ্টা অজিত ডোভাল।

এই দিন সফিয়ানের রাস্তায় নেমে সাধারণ জনগণের সঙ্গে আলাপ-আলোচনা সারেন ডোভাল। সেখানকার মানুষের সঙ্গে কথাবার্তা বলেন, একসঙ্গে খাওয়া দাওয়াও করেন তাদের সাথে। সংসদে 370 ধারা বিলোপ এর প্রস্তাব পাস করিয়ে নিয়েছেন মোদি সরকার। তবে এক্ষেত্রে চুপচাপ বসে নেই পরশি দেশ পাকিস্তান। তারাও হম্বিতম্বি শুরু করে দিয়েছে। নয়াদিল্লি সূত্রে খবর, পাকিস্তান জঙ্গিদের কাজে লাগিয়ে উপত্যকার শান্তিকে ব্যাঘাত ঘটাতে পারে। তাই কোন প্রকার ঝুঁকি না নিয়ে বিশাল সেনাবাহিনী মোতায়েন করা হয়েছে কাশ্মীরে।জারি করা হয়েছে কারফিউ। গৃহবন্দি করা হয়েছে সেখানকার বিচ্ছিন্নতবাদী নেতাদের। এর মধ্যেই শ্রীনগরে চষে বেড়ালেন অজিত দোভাল। লক্ষ্য, পরিস্থিতি খতিয়ে দেখা। একইসঙ্গে ঠিক করা পরবর্তী রণনীতি কী করা যাবে।