থাকবে না কোনো চিন্তা! এবার থেকে এই সহজ পদ্ধতিতে নিজের ট্রেনের টিকিট ঘরের অন্য কাউকে করতে পারবেন ট্রান্সফার

ট্রেনযাত্রা সবথেকে নিরাপদ এবং আরামদায়ক একটি ভ্রমণ পরিষেবা। সামনেই পূজো তাই এখন থেকেই অনেকেই ভ্রমণ করার জন্য অগ্রিম টিকিট কেটে রেখেছেন। সাধারণত মানুষ দু তিন মাস আগে বুকিং করে রাখে ভ্রমণ করার উদ্দেশ্যে। তবে এমন অনেক সময় হয় ব্যক্তিগত কোনো কারনে বা কোন অসুবিধার কারণে আপনাকে আপনার প্রস্তাব বাতিল করে দিতে হচ্ছে। এমতাবস্থায় আপনি কিভাবে আপনার ট্রেনের টিকিট অন্য ব্যক্তির কাছে ট্রান্সফার করে দেবেন সে কথা আজ আপনাদের বলব।

ভারতীয় রেলওয়ের নিয়ম অনুসারে, যদি আপনার ভ্রমণ যাত্রা শেষ মুহূর্তে বাতিল হয়ে যায় সে ক্ষেত্রে আপনি আপনার টিকিট অন্য ব্যক্তির কাছে স্থানান্তরিত করে দিতে পারবেন। কিন্তু এই স্থানান্তর প্রক্রিয়া শুধুমাত্র আপনার পরিবারের সদস্যের মধ্যে হতে হবে। অর্থাৎ আপনি আপনার বাবা-মা, ভাই বোন ছেলে মেয়ে অথবা স্বামী স্ত্রীর মধ্যে এই স্থানান্তর প্রক্রিয়া করতে পারবেন।। আপনি আপনার টিকিট অন্য কোন বাইরের ব্যক্তির কাছে স্থানান্তর করতে পারবেন না। আপনি যদি এমন কাজ করেন তাহলে যে ব্যক্তিকে আপনি আপনার টিকিট দিচ্ছেন সেই ব্যক্তিকে বিনা টিকিটে ভ্রমণ করার জন্য শাস্তি দেওয়া হতে পারে।

এবার চলুন জেনে নেওয়া যাক কিভাবে আপনি আপনার পরিবারের অন্য কোন সদস্যের মধ্যে আপনি আপনার টিকিট স্থানান্তর করে নিতে পারবেন।

প্রথমে টিকিটের একটি প্রিন্ট আউট বার করে নিন। যদি কাউন্টার থেকে টিকিট করা হয় তাহলে সেটি সঙ্গে নিয়ে যাবেন।

এরপর আপনার নিকটস্থ রেলওয়ে রিজার্ভেশন সেন্টারে যান।

আপনার আধার কার্ড অথবা ভোটার আইডেন্টি কার্ডের অরিজিনাল কপি সঙ্গে নিয়ে যাবেন।

যার নামে আপনি আপনার টিকিট ট্রান্সফার করবেন তার একটি ফটোকপিও সঙ্গে নিয়ে রাখবেন।

এরপর আপনি কাউন্টারে আবেদন করে টিকিট স্থানান্তরিত করার জন্য অনুরোধ করবেন। আবেদনের সঙ্গে আধারের ফটোকপি সংযুক্ত করতে ভুলবেন না।

আপনি যদি আপনার শহরে না থাকেন এবং আপনি আপনার টিকিট বাতিল করতে চান সে ক্ষেত্রে আপনি নিশ্চিত সিটে পরিবারের অন্য কোন সদস্যদের পাঠাতে পারবেন। এক্ষেত্রে ট্রেন ছাড়া চব্বিশ ঘন্টা আগে আপনাকে নিকটতম রেলওয়ে রিজার্ভেশন সেন্টারে যেতে হবে এবং আপনাকে টিকিট পাল্টে দেবার আবেদন করতে হবে। এই আবেদনের সঙ্গে আপনি যাকে ট্রেনে আপনার স্থানে বসাতে চাইছেন তার আধার কার্ডের একটি ফটোকপি সংযুক্ত করতে হবে। আধার কার্ড না থাকলে প্রয়োজনে ভোটার আইডি কার্ড ব্যবহার করতে হবে। আবেদন প্রক্রিয়া সম্পন্ন হলে আপনার টিকিট বাতিল করে দিয়ে আপনার পরিবারের সদস্যের নামে টিকিট দেওয়া হবে।