দেশের জন্য আবারও বড় উদ্যোগ, সেনার শক্তিবল বাড়াতে মিলিটারি এয়ারক্রাফট বানাবে টাটা মোটরস

আবারও দেশভক্তির প্রমাণ দিলেন টাটা মোটরসের (Tata Motors) রতন টাটা (Ratan Tata)। এবার টাটা মোটরস বানাচ্ছে মিলিটারি এয়ারক্র্যাফট (military aircraft)।  ভারতীয় সেনাবাহিনীর ক্ষমতা আরও বৃদ্ধি করতে এবার মিলিটারি এয়ারক্র্যাফট ম্যানুফ্যাকচারিং করবে টাটা মোটরস।

এই ধরনের প্রজেক্টে এই প্রথম কাজ করতে চলেছে টাটা মোটরস। কিছুদিন আগেই করোনা ভ্যাকসিন দূর দূরান্তে পৌঁছে দেওয়ার জন্য নিম্ন তাপমাত্রার রেফ্রিজারেটর গাড়ি বানিয়ে দেশকে অনেক বড় সাহায্য করেছে টাটা মোটরস। এবার সেনাদের সাহায্যে  এগিয়ে এসেছেন টাটা ৷

মিলিটারি এয়ারক্র্যাফট তৈরির জন্য  টাটা মোটরস জার্মানির প্রাইভেট জেট কোম্পানি গ্রপ এরো স্পেসের সঙ্গে একটি চুক্তি করেছে। সেই চুক্তি অনুসারে তাদের গ্রপ G180 SPM প্ল্যাটফর্মের ইন্টালেকচ্যুয়াল প্রপার্টি রাইটস কিনে নিয়েছে। এর ফলে টাটা মোটরস এবার সেনাদের জন্য এই এয়ারক্র্যাফট আমাদের দেশেই প্রস্তুত করতে পারবে।
আবারও দেশভক্তির প্রমাণ দিলেন টাটা মোটরসের (Tata Motors) রতন টাটা (Ratan Tata)। এবার টাটা মোটরস বানাচ্ছে মিলিটারি এয়ারক্র্যাফট (military aircraft)।  ভারতীয় সেনাবাহিনীর ক্ষমতা আরও বৃদ্ধি করতে এবার মিলিটারি এয়ারক্র্যাফট ম্যানুফ্যাকচারিং করবে টাটা মোটরস।

এই ধরনের প্রজেক্টে এই প্রথম কাজ করতে চলেছে টাটা মোটরস। কিছুদিন আগেই করোনা ভ্যাকসিন দূর দূরান্তে পৌঁছে দেওয়ার জন্য নিম্ন তাপমাত্রার রেফ্রিজারেটর গাড়ি বানিয়ে দেশকে অনেক বড় সাহায্য করেছে টাটা মোটরস। এবার সেনাদের সাহায্যে  এগিয়ে এসেছেন টাটা ৷

মিলিটারি এয়ারক্র্যাফট তৈরির জন্য  টাটা মোটরস জার্মানির প্রাইভেট জেট কোম্পানি গ্রপ এরো স্পেসের সঙ্গে একটি চুক্তি করেছে। সেই চুক্তি অনুসারে তাদের গ্রপ G180 SPM প্ল্যাটফর্মের ইন্টালেকচ্যুয়াল প্রপার্টি রাইটস কিনে নিয়েছে। এর ফলে টাটা মোটরস এবার সেনাদের জন্য এই এয়ারক্র্যাফট আমাদের দেশেই প্রস্তুত করতে পারবে।

টাটার হাত ধরে এই প্রথম কোন ভারতীয় প্রাইভেট কোম্পানি দেশের সেনাদের জন্য মিলিটারি এয়ারক্র্যাফট বানাবে।  এই মিলিটারি এয়ারক্র্যাফট ব্যাঙ্গালোরে আজ ৩ ফেব্রুয়ারী থেকে শুরু হতে চলা Aero India 2021 অনুষ্ঠানেও প্রদর্শন করা হবে৷

প্রায় ৪১ হাজার ফুট ওপরে আকাশপথে শত্রুদমনে সক্ষম এই মিলিটারি এয়ারক্র্যাফট। প্রয়োজনে তা ৪৫ হাজার ফুট ওপরেও উঠতে পারবে। একসঙ্গে প্রায় ৬-৭ ঘন্টা ধরে আকাশে উড়তে সক্ষম। ১ হাজার কিলোগ্রাম ওজন বহন করতেও সক্ষম এই এয়ারক্র্যাফট। এই মিলিটারি এয়ারক্র্যাফটের বিশেষ ক্ষমতা হল,  এটি যে কোন পরিস্থিতিতে মাটিতে নামতে পারবে৷ জানা গিয়েছে, ভবিষ্যতে এই এয়ারক্র্যাফটকে আরও উন্নত করা হবে৷
টাটার হাত ধরে এই প্রথম কোন ভারতীয় প্রাইভেট কোম্পানি দেশের সেনাদের জন্য মিলিটারি এয়ারক্র্যাফট বানাবে।  এই মিলিটারি এয়ারক্র্যাফট ব্যাঙ্গালোরে আজ ৩ ফেব্রুয়ারী থেকে শুরু হতে চলা Aero India 2021 অনুষ্ঠানেও প্রদর্শন করা হবে৷

প্রায় ৪১ হাজার ফুট ওপরে আকাশপথে শত্রুদমনে সক্ষম এই মিলিটারি এয়ারক্র্যাফট। প্রয়োজনে তা ৪৫ হাজার ফুট ওপরেও উঠতে পারবে। একসঙ্গে প্রায় ৬-৭ ঘন্টা ধরে আকাশে উড়তে সক্ষম। ১ হাজার কিলোগ্রাম ওজন বহন করতেও সক্ষম এই এয়ারক্র্যাফট। এই মিলিটারি এয়ারক্র্যাফটের বিশেষ ক্ষমতা হল,  এটি যে কোন পরিস্থিতিতে মাটিতে নামতে পারবে৷ জানা গিয়েছে, ভবিষ্যতে এই এয়ারক্র্যাফটকে