হিমালয়ে দু’বছর কাটানোর সময় মোদিজির সাথে দেখা হয়েছিল এক সাধুর, যার পরামর্শে তিনি ফিরে এসেছিলেন।

দিন দিন যেভাবে প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদির জনপ্রিয়তা বেড়েই চলছে সেহেতু এটা বলা বাহুল্য যে, এখন তিনি বিশ্বের অন্যতম জননেতা হিসেবে পরিচিত একটি মুখ। তবে আপনাদের জেনে রাখা ভালো প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী পারিবারিক রাজনীতির যেরে এত বড় নেতা হিসাবে প্রতিষ্ঠিত হননি বরং উনার দক্ষতা অনুযায়ী উনি উনার লক্ষ্যে পৌঁছে গিয়েছেন। আপনারা হয়তো এটা জানেন নরেন্দ্র মোদী খুব ছোট বয়স থেকে RSS এর সাথে যুক্ত ছিলেন। নরেন্দ্র মোদির জীবনে এমন অনেক ঘটনা আছে যা অনেক মানুষ জানার জন্য কৌতুহল পূর্ণভাবে বসে আছেন এবং অনেকবারই দেখা গেছে অনেক জনেই তার জন্য উৎসাহ প্রকাশ করেছেন। আবার অনেকবারই প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী নিজে তার জীবনে গুরুত্বপূর্ণ ঘটনা জনতার সামনে তুলে ধরেছেন প্রেরণা জাগিয়েছেন ছাত্র সমাজ ও যুব সমাজকে এগিয়ে যাওয়ার জন্য তাদের লক্ষ্যে।

এখনো এমন অনেক ঘটনা আছে যা প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদির সম্পর্কিত, বহু মানুষের কাছে চর্চিত হয়। তবে এমন কিছু ঘটনাও আছে যা খুব কম মানুষই জানেন তার নিয়ে। নরেন্দ্র মোদী যখন 12 বছরের ছিলেন তখন তার মা তার জন্ম কুন্ডলী এক জ্যোতিষ কে দেখিয়ে ছিলেন তখন তার কুন্ডলী দেখে সাধু মহারাজ বলেছিল যে হয় আপনার ছেলে রাজা হবে না হয় নতুন শঙ্করাচার্যের মতো বড় সন্ত হবে।আর এই নিয়ে চিন্তিত ছিলেন মোদীজির মা কারণ ছোটবেলা থেকেই মোদীজি সাধুদের প্রতি খুবই আকর্ষিত ছিলেন তাই তার মায়ের মনে হত মোদীজি সাধু হয়ে যেতে পারে তাই কম বয়সে তিনি তার বিয়েও করিয়ে দিয়েছিলেন।এরপর বাড়ি থেকে সংসার জীবন শুরু করার জন্য মোদিজির ওপর চাপ দেওয়া হতে থাকে তখন তিনি বাড়ি ছেড়ে হিমালয় চলে যান।

আর এটা জানলে আপনার আশ্চর্য হবেন যে হিমালয়ের গিয়ে মোদীজি সাধুর মত দু বছর কাটিয়েছিলেন সেই সময়কালে মোদীজিকে এক সাধু জিজ্ঞাসা করেছিলেন যে উনি এখানে কেনো এসেছেন। তখন তার উত্তরে মোদীজি বলেছিলেন,”ঈশ্বর খোঁজ এর জন্য উনি হিমালয় এসেছেন “। আর তার উত্তরে সাধু যা বলেছিল তা শুনে আপনারা নিশ্চয়ই অবাক হবেন। তিনি বলেছিলেন তোমার বয়স কম তুমি সমাজের ও দেশের সেবা করে ঈশ্বর প্রাপ্তি করতে পারো। এরপরের ঘটনা তো আপনারা সবাই জানেন এর পরই নরেন্দ্র মোদী রাজনৈতিক জীবন শুরু করেছিলেন দেশ কে শক্তিশালী করার শপথ নিয়েছিলেন।আপনাদের আরেক টা কোথা জানিয়ে রাখি নরেন্দ্র মোদী রাজনৈতিক জীবন শুরু করার আগে সন্ন্যাসী হিসাবে কলকাতা বেলুড় মঠ ও গিয়েছিলেন।

আরও পড়ুন :