আরো একবার বিস্ফোরক মন্তব্য বঙ্গ বিজেপি নেতা মুকুল রায়ের, বিজেপিতে আসতে তৎপর 50 বিধায়ক, চার সংসদ সহ আরো অনেকে…

বীরভূম জেলা তৃণমূলের সর্বেসর্বা অনুব্রত মণ্ডলের গড় ভাঙার পর থেকে বিজেপি নেতা মুকুল রায় ইঙ্গিত দিয়েছেন তৃনমূলের সংসারও ভাঙ্গবে বলে। আর এই রবিবার দিন সেই বিষয়ে তিনি আরো খানিকটা স্পষ্ট করে দিলেন। এই দিন তিনি জানান তৃণমূলের 50 জন বিধায়ক ও চার সাংসদ সহ একাধিক পঞ্চায়েতের সদস্য ও কাউন্সিলর বিজেপিতে যোগদান করতে প্রস্তুত হয়েছে।

লোকসভা ভোটের ফলাফল ঘোষণা হওয়ার পর থেকে তৃণমূল দলে ভাঙ্গন লক্ষ্য করা গেছে, যার দরুন তৃণমূলের শিবির থেকে সমস্ত ছোট বড় নেতারা এবার পদ্ম শিবিরে যোগদান করতে লেগেছে। এই বিষয়টিকে গুরুত্ব পূর্ণ ভাবে দেখে ইতিমধ্যে দলত্যাগ রুখতে বৈঠক করেছেন তৃণমূল নেত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। কিন্তু দলত্যাগের জল্পনায় কোনো প্রকার ছেদ পড়েনি। উলটে রবিবার সেই জল্পনাটিকে আরও উসকে দিয়েছেন মুকুল রায়৷

এই দিন তিনি জানান ভারতীয় জনতা পার্টিতে এখনই যোগদান করতে তৃণমূলের অন্তত 50 জন বিধায়ক 4 জন সাংসদ এবং অসংখ্য পঞ্চায়েত সমিতির প্রধানেরা প্রস্তুত রয়েছে। এমনকি পৌরসভার চেয়ারম্যান সহ কিছু কাউন্সিলর এর জন্য তৎপর রয়েছে। যার জন্য তারা আমার সঙ্গে যোগাযোগ রেখেছে,কাতারে কাতারে তৃণমূল কর্মী দল ছাড়তে চাইছেন।”

এর আগে বিজেপির বঙ্গ পর্যবেক্ষক কৈলাস বিজয়বর্গীয় হুংকার দিয়েছেন লোকসভা ভোটের মতোই সাত দফায় তৃণমূলের দলকে ভেঙে দেবেন।এছাড়া এই দিন বিজেপির রাজ্য সভাপতি দিলীপ ঘোষ বলেন যেভাবে মানুষের বিশ্বাস তাদের প্রতি দিন দিন বাড়ছে আগামী 6 মাসের মধ্যেই এরকমই তৃণমূলের সরকার ভেঙে পড়ে যাবে।এমনকি তিনি এ দিন জানান এ বছরই শেষ হওয়ার আগে ভোট ঘোষণা হতে পারে।এদিন মুকুল রায় স্পষ্ট জানান, আগামী দিনে বাংলার জন্য তাঁর চমক অপেক্ষা করছে৷