স্বাধীনতা দিবসের দিন লাদাখে দেশের জাতীয় পতাকা উত্তোলন করবেন ধোনি

2011 সালে ইন্ডিয়ার বিশ্বকাপ জেতার মুহূর্তগুলো কোন ভারতবাসী ভুলতে পারবে না। মহেন্দ্র সিং ধোনি সেই সময় সকল ভারতবাসীর স্বপ্ন পূরণ করেছেন। সারা বিশ্বে ভারতের নাম উজ্জ্বল করেছেন। এবার দেশের আরও এক স্মরণীয় মুহূর্তের সাক্ষী হতে চলেছেন ভারতের প্রাক্তন অধিনায়ক মহেন্দ্র সিং ধোনি। খবর সূত্রে জানাচ্ছে, 15 ই আগস্ট লাদাখে ভারতীয় পতাকা উত্তোলন করবেন মহেন্দ্র সিং ধোনি। বিশ্বকাপ শেষ হওয়ার পর বাইশ গজে না গিয়ে সামরিক দিক থেকে ভারত কে রক্ষা করার দায়িত্ব ভার নেন ধোনি।

দুমাস ক্রিকেট থেকে অবসর নিয়ে বর্তমানে দেশ রক্ষার কাজে ব্যস্ত ভারতের 2011 সালে বিশ্বকাপজয়ী অধিনায়ক। 31 এ জুলাই শ্রীনগরে 106 নম্বর টেরিটোরিয়াল আর্মি ব্যাটেলিয়ান হিসেবে যোগ দেন তিনি। এরপর সেনা পোশাকে ব্যাটের উপর অটোগ্রাফ দিতে দেখা যায় মাহিকে। এই ছবি সোশ্যাল মিডিয়ায় দ্রুত গতিতে ভাইরাল হয়ে যায়। 15 ই আগস্ট পর্যন্ত শ্রীনগরে 106 নম্বর টেরিটোরিয়াল আর্মি ব্যাটেলিয়ানদের সাথে থাকবেন ধোনি।

গত এক সপ্তাহে সেনাদের সাথে কখনো ভলিবল খেলতে দেখা গেছে আবার কখনো গান গাইতে দেখা গেছে ভারতের এই প্রাক্তন অধিনায়ককে। বর্তমানের সদ্য প্রকাশিত কেন্দ্রশাসিত অঞ্চল হিসেবে লাদাখে ঘোষিত করার পর, স্বাধীনতা দিবস উপলক্ষে সেখানে ভারতের জাতীয় পতাকা উত্তোলন করবেন মহেন্দ্র সিং ধোনি। এদিন শ্রীনগরে রেজিমেন্টের সঙ্গে লাদাখে যান ধোনি। আর্মি আধিকারিক বলেন, ‘ধোনি হল ভারতীয় আর্মির ব্র্যান্ড এম্বাসেডর।’ কখনো ফুটবল এখনো বা ভলিবল খেলে সৈন্যদের মোটিভেট করছেন, আবার কখনো গান গাইয়ে মাতিয়ে রাখছেন সেনাদের। সেই সঙ্গে অন্যান্য সেনাদের মতন তিনিও হার্ডকোর ট্রেনিং করছেন। তিনি জানান, 15 আগস্ট পর্যন্ত কাশ্মীর উপত্যকায় থাকবেন ধোনি।’


2011 সালে বিশ্বকাপ জেতার পর তৎকালীন ভারতীয় অধিনায়ক মহেন্দ্র সিং ধোনিকে সেনার তরফ থেকে এক সম্মান প্রদান করা হয়। এরপর 2015 সালে আগ্রায় সেনার এয়ারক্রাফট এর প্রশিক্ষণে পাঁচটি প্যারাসুট জাম্প করেন ধোনি। এরপর নিজেকে একজন প্রশিক্ষিত প্যারাট্রুপার হিসেবে প্রমাণ করেন তিনি। এবারের বিশ্বকাপে সেমিফাইনাল থেকে ভারতের বিদায় নেওয়ার পর ধোনির অবসর নিয়ে নানান জল্পনা উঠে ক্রিকেট মহলে। কিন্তু ওয়েস্ট ইন্ডিজ সফরে দল ঘোষণা করার আগে নিজেকে কয়েকদিনের জন্য ক্রিকেট থেকে অবসর নিয়ে দেশের সামরিক দিক দিয়ে নিজেকে ব্যস্ত রাখেন ধোনি।