আবারও শুরু হতে পারে সরকারি ব্যাঙ্কগুলির একীভূতকরণ, ৪-৫ টি বড় ব্যাঙ্ক ধরে রাখার পরিকল্পনা সরকারের

সারা দেশে স্টেট ব্যাঙ্ক অফ ইন্ডিয়ার মতো চার অথবা পাঁচটি বড় ব্যাংক যাতে থাকে, সেই উদ্দেশ্যে সরকারি ব্যাংকগুলির একত্রীকরণের উপর বিশদ গবেষণার পরে সরকারি ব্যাংকগুলির একত্রীকরনের পরবর্তী ধাপ শুরু করার পরিকল্পনা করছে। একটি ইটি রিপোর্ট অনুসারে জানা গেছে যে, বর্তমানে ভারতের সাতটি বড় এবং পাঁচটি ছোট সরকারি ব্যাংক রয়েছে। এক আধিকারিকের মতে, মাসের শেষে তাদের প্রতিক্রিয়া জানাতে বলা হয়েছে।


তিনি আরো বলেন সম্পূর্ণ প্রক্রিয়াটি ইউনিয়ন ব্যাংক অ্যাসোসিয়েশন এবং অন্যান্য স্টেকহোল্ডারদের সাথে বিশদ আলোচনার মাধ্যমে এগিয়ে নিয়ে যাওয়া হবে। ২০১৯ সালের কেন্দ্রীয় সকার ১০টি সরকারি ব্যাংককে চারটি বড় ব্যাংকে একত্রীকরণ করার ঘোষণা করেছিল, যা ২০২০ সালের এপ্রিল থেকে কার্যকর হয় এবং যার ফলে ২০১৭ সালের ২৭টি ব্যাংকের তুলনায় পাবলিক সেক্টর ব্যাংকের সংখ্যা ১২তে নেমে আসে।

এই প্রক্রিয়াটির মাধ্যমে ইউনাইটেড ব্যাঙ্ক অফ ইন্ডিয়া এবং ওরিয়েন্টাল ব্যাঙ্ক অফ কমার্সকে, পাঞ্জাব ন্যাশনাল ব্যাংকের সাথে একত্রীকরণ করা হয়েছিল। সিন্ডিকেট ব্যাংক, কানাড়া ব্যাংকের সাথে এবং এলাহাবাদ ব্যাংক, ইন্ডিয়ান ব্যাংকের সাথে একত্রীকরণ হয়, একই সাথে অন্ধ্র ব্যাংক এবং কর্পোরেশন ব্যাংক, ইউনিয়ন ব্যাংক অফ ইন্ডিয়া সাথে একত্রীকরণ করা হয়। উল্লেখ্য, ২০১৯ সালে দেনা ব্যাংক এবং বিজয়া ব্যাংক, ব্যাংক অফ বরোদার সাথে একত্রীকরণ হয়েছিল।


এর আগে সরকার, ভারতীয় মহিলা ব্যাংকের পাঁচটি সহযোগী ব্যাংককে ভারতের বৃহত্তম ব্যাংক এসবিআইয়ের সাথে একত্রীকরণ করে, এছাড়াও সরকারি ব্যাংকগুলির বেসরকারিকরণের পরিকল্পনাও করছে, সেখানে সরকার গত বাজেটে দুটি সরকারি ব্যাংককে বেসরকারিকরণের প্রস্তাব করেছিল। কেউ কেউ বিশ্বাস করেন যে, সম্ভাব্য বিনিয়োগকারী সহ স্টেক হোল্ডারদের মধ্যে আরো আলোচনার পরেই এই প্রক্রিয়া শুরু করা যেতে পারে। নীতি আয়োগ ইতিমধ্যে ইন্ডিয়ান ওভারসিজ ব্যাঙ্ক এবং সেন্ট্রাল ব্যাঙ্ক অফ ইন্ডিয়ার বেসরকারিকরণে সুপারিশ করেছে, যদিও সরকার এখনো এই বিষয়ে চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত নেয়নি।