পরিবেশ সচেতনতায় গভীর জঙ্গলে বিয়ার গ্রিলসের সাথে এক দুঃসাহসিক অভিযানে নতুন অবতারে দেখা যাবে নরেন্দ্র মোদিকে..

বিশ্বের সবচেয়ে জনপ্রিয় রিয়েলিটি শো ম্যান ভার্সেস ওয়াইল্ড’ (Man vs Wild) এ বনে জঙ্গলে ঘুরে দুঃসাহসিক অভিযান করে বেড়ায় এক ব্রিটিশ নাগরিক বিয়ার গ্রিলস। তার এই দুঃসাহসিক ও দুর্ধর্ষ কাজকর্মের জন্য বিশ্বজুড়ে তার খ্যাতি নাম। আর এই জনপ্রিয় টিভি শো তে এবার প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীকে খুব তাড়াতাড়ি আপনি বিপদজনক জঙ্গলে দেখবেন। ওই ঝুঁকি ভরা জঙ্গলে আপনি প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীকে (Narendra Modi) এমন ভাবে দেখবেন, যেটা আপনি এর আগে কোনদিনও কল্পনা করেননি।

ওই অনুষ্ঠানে বিশ্ব বিখ্যাত জঙ্গল প্রেমী বিয়ার গ্রিলস (Bear Grylls) এর সাথে একজন বিশ্বের বৃহত্তম গণতন্ত্রের প্রধানমন্ত্রীকে একসাথে দেখা যাবে। নরেন্দ্র মোদীর রাজনৈতিক জীবনেও অ্যাডভেঞ্চারের উপাদান নেহাত কম নেই। বিশ্বের এমন দুই ব্যক্তিই এবার একসঙ্গে। এবার এই দুজন মিলে মোকাবেলা করবে প্রাকৃতিক প্রতিকূলতার।এর আগে মার্কিন প্রেসিডেন্ট বারাক ওবামার সঙ্গেও শো করেছেন বিয়ার গ্রিলস।


গতকাল সোমবার দিন এক বিশেষ এপিসোড এর ঘোষণা করেছে এই সম্প্রচারকারী চ্যানেল। এর পাশাপাশি এই এপিসোডের একটি ভিডিও টুইট করতে দেখা যায় বিয়ার গ্রিলসকেও। টুইট করা এই ভিডিও তে লক্ষ্য করা যায় খুব খুশি মেজাজেই রয়েছেন মোদী। গভীর অরণ্যে অ্যাডভেঞ্চারে মেতেছেন তিনি। কখনও গভীর জঙ্গলে বর্শা নিয়ে হাঁটছেন তো কখনও নদীতে ভাসছেন।পাহাড়ি নদীর হাঁড় কাপানো ঠান্ডা জলেও নেমে গেলেন প্রধানমন্ত্রী। ত্রিপলের ভেলায় ভাসলেন খরস্রোতা নদীর জলে।উত্তরাখণ্ডের জিম করবেট ন্যাশনাল পার্কে গ্ৰিলস ও মোদির কান্ড কারখানা দেখতে অপেক্ষা করতে হবে আর কয়েকটা দিন মাত্র। Man Vs Wild এর এই অনুষ্ঠান আগামী 12 ই আগস্ট রাত 9 টার সময় ডিসকভারি চ্যানেলে দেখা যাবে।

এছাড়াও ডিসকভারি HD ওয়ার্ল্ড, অ্যানিম্যাল প্ল্যানেট, ডিসকভারি সাইন্স, অ্যানিম্যাল প্ল্যানেট HD ওয়ার্ল্ড, TLC, TLC HD ওয়ার্ল্ড, ডিসকভারি কিডস আর জি তামিলে দেখা যাবে।বিয়ার গ্ৰিলসের করা এই টুইট টিতে তিনি লিখেছেন প্রাণী সম্পদ রক্ষা জলবায়ু পরিবর্তন ও পরিবেশ নিয়ে সচেতনতার লক্ষ্যে ভারতের এই অরণ্য অভিযান।অন্যদিকে প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদির এক অচেনা দিক চিনতে পারবেন 180 টি দেশের মানুষ।বিয়ারের করা এই টুইটিতে রি-টুইট করেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী এবং তিনি লিখেন ভারতের রয়েছে অনেক সবুজ জঙ্গল বৈচিত্র্যময় প্রাণী সম্পদ, সুন্দর পর্বত বহুনদী ও অরণ্য। এই শোটি দেখে ভারতের বিভিন্ন অংশের ঘুরতে যাওয়ার উৎসাহ বাড়বে প্রকৃতিপ্রেমী লোকেদের মনে। বাড়বে পরিবেশ সংরক্ষণে সচেতনতা।

এছাড়াও তিনি আরো বলেন জীবনে বহু সময় পাহাড়- জঙ্গলে প্রকৃতির মাঝে থেকেছি ওই সময়টা আমার জীবনের কাছে ব্যাপকভাবে প্রবাবিত করেছে। তাই এখন রাজনীতির বাইরে প্রাকৃতির মধ্যে বিশেষ শোয়ে অংশ নেওয়ার আমন্ত্রণ পেলাম, তখনই উত্সুক হয়ে উঠেছিলাম’। এই দিনটি তিনি বিয়ারকে ভারতে আসার জন্য অসংখ্য ধন্যবাদ জানান।

Related Articles

Back to top button