মিশন শক্তির সাফল্য ঘোষণায় কোন প্রকার নিয়ম ভাঙ্গেনি নরেন্দ্র মোদি,জানানো নির্বাচন কমিশন..

মিশন শক্তি সফল হওয়ার পর জাতির উদ্দেশ্যে ভাষণে তা ঘোষণা করেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি।আপনাদের বলে রাখি লোকসভা ভোটের আগে প্রধানমন্ত্রীর এমন ঘোষণায় কমিশনে দ্বারস্থ হয়েছিল বিরোধীরা। তবে এবার সেখানে ক্লিনচিট পেলেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি।গতকাল শুক্রবার বিরোধীদের এই অভিযোগ খারিজ করে দিয়েছে নির্বাচন কমিশন। নির্বাচন কমিশনের তরফ থেকে জানিয়ে দেওয়া হয়েছে মিশন শক্তি নিয়ে তার ভাষণ নির্বাচনী বিধি ভঙ্গের আওতায় পড়ছে না। আর কমিশনের এই সিদ্ধান্তের পরে বেশ কিছুটা স্বস্তিতে রয়েছে বিজেপি। ভারত মহাকাশ একটি উপগ্রহ কে ক্ষেপণাস্ত্র ছুড়ে ধ্বংস করেছে মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র, রাশিয়া, চীনের পর চতুর্থ রাষ্ট্র হিসাবে এমন শক্তি অর্জন করেছে ভারত।গত বুধবার দিন দুপুরে প্রধানমন্ত্রী নিজেই সে কথা ঘোষণা করেন।আর প্রধানমন্ত্রীর এমন ভাষণ এর পরেই শুরু হয় বিতর্কের। প্রধানমন্ত্রীর এমন ঘোষণার পর এই সরব হন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় বলেন ভোটের মুখে এমন আচরণবিধি করে প্রধানমন্ত্রী ভোটের বিধি লংঘন করতে চাইছেন। আর এর প্রভাব ভোটবাক্সে পড়তে পারে। তবে এখানেই শেষ নয় অন্যদিকে রাহুল গান্ধী প্রধানমন্ত্রী কে কটাক্ষ করে বলেন ডিআরডিও-কে শুভেচ্ছা জানিয়ে প্রধানমন্ত্রী নাটক করতে চাইছেন। তবে এইসব অভিযোগ উড়িয়ে দিয়েছে নির্বাচন কমিশন এবং জানিয়ে দিয়েছে এ অভিযোগে কোনও মূল্য নেই, আর এতে কোন প্রকার নির্বাচনী বিধি ভঙ্গ কোন হয়নি। কমিশন সূত্রে পাওয়া খবর অনুযায়ী জানতে পারা গেছে বুধবার দিন জাতির উদ্দেশ্যে প্রধানমন্ত্রীর নরেন্দ্র মোদী ভাষণ দিয়েছেন বলে রিপোর্ট এসেছে সেখানে অভিযোগ জানিয়েছিল বিরোধী দলগুলি।

আর বিরোধীদের এই সকল দাবি খতিয়ে দেখতে একটা নির্বাচন কমিটি গঠন করেছিল নির্বাচন কমিশন। পরবর্তীকালে এই কমিশন জানিয়ে দেয় নির্বাচনে আচরণবিধি গণমাধ্যম সংক্রান্ত অনুচ্ছেদ অনুযায়ী এই সিদ্ধান্তে উপনীত হয়েছে কমিশন।

Related Articles

Open

Close