ডেবিট অথবা ক্রেডিট কার্ড চুরি হলে ব্লক করবেন কীভাবে,জেনে নিন..

ব্যাংকের ডেবিট অথবা ক্রেডিট কার্ড সুরক্ষিত থাকা অতি আবশ্যক। তা না হলে খুব সহজে আপনার অ্যাকাউন্ট হয়ে যেতে পারে খালি। অথবা কার্ড হাতছাড়া হলে সে ক্ষেত্রে ঠিক একই রকম ঘটতে পারে। তাই ক্রেডিট ও ডেবিট কার্ড হারিয়ে গেলে অথবা চুরি হলে জলদি তা ব্লক করে দেওয়া প্রয়োজন। নাহলে কিছু মুহুর্তের মধ্যেই আপনার অ্যাকাউন্ট খালি হয়ে যেতে পারে। এটিএম পিন না জানলেও বিভিন্ন উপায়ে ইন্টারনেট থেকে ডেবিট কার্ডের মাধ্যমে শপিং করা যায়। কীভাবে ক্রেডিট অথবা ডেবিট কার্ড ব্লক করবেন? এক নজরে দেখে নিন সব পদ্ধতিগুলি।

প্রথম পদ্ধতি: প্রথম পদ্ধতিটি অনেকজনই করে থাকেন তবে যারা এ পদ্ধতিটি জানেন না তাদের জন্য এটা জানা অতি আবশ্যক। কাস্টোমার কেয়ারে ফোন করুন যে কোন এটিএম কার্ডের পিছনে একটি টোল ফ্রি নম্বর লেখা থাকে। নিজের ফোনে এই নম্বর সেভ করে রাখুন। কোন কারনে সেভ করে রাখতে ভুলে গেলে গুগল সার্চ ব্যবহার করে নিজের ব্যাঙ্কের এটিএম কার্ড ব্লক করার হেল্পলাইন নম্বর খুঁজে নিন। কার্ড হারিয়ে গেলে বা চুরি হলে সাথে সাথে এই টোল ফ্রি নম্বরে ফোন করে ডেবিট অথবা ক্রেডিট কার্ড ব্লক করে দিন।

দ্বিতীয় পদ্ধতি: এমন অনেক জনই আছে যারা ব্যাঙ্কে অ্যাকাউন্ট খোলার সাথে সাথে নেট ব্যাঙ্কিং চালু করে নেন।আর এবার এই নেটব্যাঙ্কিং ব্যবহার করে -আপনার ব্যাঙ্ক অ্যাকাউন্টে নেট ব্যাঙ্কিং অ্যাকটিভ থাকলে সেখান থেকে নিজের ডেবিট অথবা ক্রেডিট কার্ড ব্লক করা সম্ভব। ওয়েবসাইটের উপরে ‘কার্ড’ ট্যাবে গিয়ে ব্লক সিলেক্ট করলে আপনার কার্ড ব্লক হয়ে যাবে।

তৃতীয় পদ্ধতি: এ ক্ষেত্রে ব্যাংকের সাথে রেজিস্টার করা মোবাইল নম্বর থেকে এসএমএস ব্যবহার করে করতে পারেন এই কাজটি। বিভিন্ন ব্যাঙ্ক এসএমএস এর মাধ্যমেও কার্ড ব্লক করতে দেয়। নির্দিষ্ট নম্বরে এসএমএস পাঠিয়ে ডেবিট অথবা ক্রেডিট কার্ড ব্লক করা সম্ভব।

চতুর্থ পদ্ধতি: উপরের এই তিনটি পদ্ধতি ব্যবহার করতে আপনি যদি ইচ্ছুক না হয়ে থাকেন তাহলে এখন আপনি ব্যাঙ্কে গিয়ে অথবা ব্যাঙ্কের আশেপাশে থাকলে যে কোনো ব্রাঞ্চে গিয়ে হারিয়ে যাওয়া ক্রেডিট অথবা ডেবিট কার্ড ব্লক করতে পারবেন। তবে এক্ষেত্রে ব্যাঙ্ক খোলা না থাকলে তা করা যাবে না।

The India Desk

Indian famous bengali portal, covers the breaking news, trending news, and many more. Email: theindianews.org@gmail.com

Related Articles

Close