আপনার ও কী চুল পড়ছে তাহলে কী করবেন জেনে নিন!

আপনি কী চুলের সমস্যায় ভুগছেন ? আপনার কী চুল পড়ে যাচ্ছে? পাতলা চুল বা চুল পড়ে যাওয়ার সমস্যায় রাতের ঘুম হারাম হয়ে গেছে । তবে ভালো খবর হলো এটি এখন নিরাময় করা সম্ভব । প্রত্যেকেরই চুল পড়ে। আপনি যদি চিরুনিতে কিছু চুল দেখেন, তাহলে আতঙ্কিত হওয়ার কারণ নেই। চুল তৈরি হয় একধরনের প্রোটিন যাকে কেরাটিন বলা হয় সেটি দিয়ে; এটি চুলের ফলিসেল তৈরি করে। ফলিসেল নতুন চুলের কোষ তৈরি করে। পুরোনো কোষগুলো তখন ঝরে পড়ে। স্বাস্থ্যবিষয়ক ওয়েবসাইট ওয়েব এমডির তথ্যমতে, একজন প্রাপ্তবয়স্ক মানুষের মাথায় এক লাখ থেকে দেড় লাখ চুল থাকে। প্রতিদিন ১০০টি চুল স্বাভাবিকভাবেই পড়ে যেতে পারে। তবে এটি সত্যি যে নারীর থেকে পুরুষের চুল পড়ার হার বেশি। যখন বেশি চুল পড়ে বেশি চুল পড়া গুরুতর সমস্যার ইঙ্গিত দেয়, খাদ্যাভ্যাসে গণ্ডগোল এবং ভিটামিনের অভাব হলে এই সমস্যা হয়। বংশগত কারণ অথবা এন্ড্রোজেনেটিক এলোফেসিয়ার কারণেও এই সমস্যা হয়। মানসিক চাপ আরেকটি প্রাথমিক কারণ চুল পড়ার; যার কোনো ব্যাখ্যা নেই। এ ছাড়া কখনো কখনো চুল পড়া কিছু অস্থায়ী কারণেও হতে পারে।তবে চুল পড়া রোধের চিকিৎসায় ওষুধ খাওয়া বা বিভিন্ন জিনিস ব্যবহার করার আগে একবার দেখুন আপনার খাবারের থালায় কী খাবার আছে। চুল ভালো থাকা অনেকটা খাওয়া দাওয়া নির্ভর করে। কেননা চুল ভালো রাখা স্বাস্থ্যকর খাবারের ওপর অনেকটাই নির্ভরশীল। আপনার চুলের বৃদ্ধির জন্য প্রয়োজন প্রোটিন, জটিল কার্বোহাড্রেট ও আয়রন।শরীরের মধ্যে চুলের কোষ খুব দ্রুত বাড়ে। তবে যদি আপনি সঠিক খাবার না খান এবং আপনার শরীরে যদি এসবের অভাব থাকে তবে সবার আগে ক্ষতিগ্রস্ত হতে পারে চুল। আয়রনের অভাব নারীর চুল পড়ার বড় কারন , আয়রনের অভাব নারীর চুল পড়ার বড় কারণ। বিশেষ করে ছোটবেলায় এবং পোস্টমেনোপজ হওয়া নারীর ক্ষেত্রে। এই সময় রক্তের মধ্যে লোহিত রক্তকণিকা পর্যাপ্ত থাকে না। লোহিত রক্তকণিকা কোষে  অক্সিজেন পরিবহনের অন্যতম মাধ্যম হিসেবে কাজ করে এবং দেহে শক্তি জোগাতে সাহায্য করে।

এটি স্বাস্থ্যকর চুলের জন্যও জরুরি । আপনি যদি স্বাস্থ্যকর জীবনযাপন করেন, তবুও আপনারআয়নের অভাবে চুল পড়তে পারে।লতাপাতা-জাতীয় সবজি, মাছ, পাম্পকিন বীজ, বাদাম, মটরশুটি, সয়াবিন-এ ধরনের খাবারগুলো আপনার খাদ্যতালিকায় রাখুন। এ ছাড়া ভিটামিন সি-জাতীয় খাবার খান। বিশেষজ্ঞরা বলেন, আপনার প্রতিদিনের খাদ্যতালিকায় ১২ মিলিগ্রাম আয়রনসমৃদ্ধ খাবার রাখুন।তাই চুল ভালো রাখতে প্রোটিন ও আয়রনসমৃদ্ধ খাবার আপনার প্রতিদিনের খাদ্যতালিকায় রাখুন। ভালো খান ভালো থাকুন।

Related Articles

Open

Close