জন-ধন যোজনার 6 বছর পূর্তি উপলক্ষে গ্রাহকদের নতুন দুটি বড় উপহার প্রধানমন্ত্রীর…

সকল দেশবাসীর যাতে ব্যাংকে অ্যাকাউন্ট করতে পারেন তার জন্য প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী জন ধন প্রকল্প চালু করেছিলেন। আর এবার সেই জন ধন যোজনা প্রকল্পের মধ্যে আরও দুটি সুবিধা যুক্ত করা হয়েছে কেন্দ্রীয় সরকারের তরফ থেকে। সেখানে দরিদ্র ও সামাজিক সুরক্ষা সৃষ্টি করার লক্ষ্যে কেন্দ্র সরকার জীবন ও দুর্ঘটনা বিমা স্কিম চালু করছে। আর এই দুটির যোজনার মধ্যে একটির নাম দেওয়া হয়েছে প্রধানমন্ত্রী জীবন জ্যোতি বীমা যোজনা বা PMJJBY আর দ্বিতীয়টির নাম দেওয়া হয়েছে প্রধানমন্ত্রী সুরক্ষা বীমা যোজনা PMSBY।

 

তবে এক্ষেত্রে বলে রাখি এই দুটি সুবিধা তারাই পাবেন যাদের জন-ধন যোজনাতে অ্যাকাউন্ট করা রয়েছে।কেন্দ্রীয় সরকারের তরফ থেকে 2015 সালে এই বিমা স্কিমের কথা ঘোষণা করা হয়েছিল, যেখানে এনডিএ সরকারের ঐক্যবদ্ধ প্রকল্প জনধন যোজনা এবার 6 বছর পূর্তি উপলক্ষে গতকাল শুক্রবার দিন এই সিদ্ধান্তের কথা ঘোষণা করলেন কেন্দ্রীয় অর্থমন্ত্রীর নির্মলা সীতারামন।যদিও প্রথমদিকে এই প্রকল্পটি শুরু করা হয়েছিল ব্যাঙ্কিং পরিষেবা সরবরাহ করার জন্য তবে বর্তমানে COVID পরিস্থিতিতে সরাসরি সরকারের তরফ থেকে ফান্ড ট্রানস্ফার, আর্থিক সহায়তা বিতরনের জন্য এটি গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করে।

তবে কেন্দ্রীয় সরকারের তরফ থেকে বর্তমানে যে দুটি বীমার সুবিধা শুরু করা হল সেগুলি কীভাবে কাজে লাগবে সাধারণ জীবনে, প্রথমেই বলে রাখি এক্ষেত্রে জীবন জ্যোতি বীমা প্রকল্পের আওতায় আসতে পারবেন যেকোন 18 বছর থেকে 50 বছরের মধ্যে থাকা ভারতীয়।এর জন্য আপনার লাগবে বছরে মাত্র 330 টাকা, অর্থাৎ 330 টাকার একটি প্রিমিয়াম দিয়ে এই বিমা আপনি খুব সহজেই করাতে পারবেন। এই বীমা করা বার পর যদি সেই বিমা ধারকের মৃত্যু ঘটে তাহলে দু লক্ষ টাকা পর্যন্ত পাওয়া যায়। অন্যদিকে দ্বিতীয় যে যোজনা টি রয়েছে অর্থাৎ প্রধানমন্ত্রী সুরক্ষা বীমা সেখানে এই প্রকল্পের আওতায় আসতে পারবেন 18 থেকে 70 বছরের যে কোন ব্যক্তিই।

আর এই প্রকল্পের জন্য বছরে প্রিমিয়াম লাগবে মাত্র 12 টাকা,এক্ষেত্রে দুর্ঘটনায় মৃত্যু বা কর্ম ক্ষমতা চলে গেলে 2 লক্ষ টাকা এবং আর্থিক কর্মক্ষমতা হারিয়ে ফেললে 1 লক্ষ টাকা পর্যন্ত পাওয়া যাবে। এর আগে এই দুটির বীমা সূযোগ দেওয়া হত না জন-ধন প্রকল্পের গ্রাহকদের তবে এবার থেকে সেই সুবিধা মিলবে। প্রাপ্ত খবর অনুযায়ী আরো জানতে পারা যাচ্ছে এই জন-ধন প্রকল্পের গ্রাহকদেরকে আরো বেশ কিছু সুবিধা দেওয়ার জন্য ভবিষ্যতে পরিকল্পনা করেছেন মোদি সরকার। অর্থ মন্ত্রকের তরফ থেকে প্রাপ্ত খবর অনুযায়ী জানতে পারা যাচ্ছে আগামী দিনে এতে চালু করা হবে রেকারিং ডিপোজিটের মতো সুবিধা তাছাড়া ডিজিটাল লেনদেন এর সুযোগ দেওয়ার জন্য গ্রাহকদের দেওয়া হবে Rupay Debit Card।


প্রসঙ্গত এখনো পর্যন্ত জনধন যোজনা তে সুবিধাভোগীর সংখ্যা রয়েছে 40.35 কোটি, আর এইসব অ্যাকাউন্টে মোট জমা করা টাকার পরিমাণ রয়েছে 1.31 লক্ষ কোটি টাকা।তাছাড়া বলে রাখি এই অ্যাকাউন্টের দুই-তৃতীয়াংশ গ্রাহক রয়েছে কিন্তু গ্ৰাম থেকে, যাদের মধ্যে আবার 55 শতাংশ মহিলা। এক্ষেত্রে যদি সব অ্যাকাউন্টে জমা করা টাকার পরিমাণ দেখা হয় তাহলে তা রয়েছে 3239 টাকা। যা 2015 সালের তুলনায় আড়াই গুণ বেড়েছে, রিজার্ভ ব্যাঙ্ক অফ ইন্ডিয়ার নতুন নিয়ম অনুযায়ী বলে দেওয়া হয়েছে টানা দু বছরের বেশি যদি কোনো ব্যক্তি তার জন-ধন অ্যাকাউন্টে কোন লেনদেন না করে থাকেন তাহলে তার খাতা অকার্যকর বলে ধরে নেওয়া হবে। পরিসংখ্যান অনুযায়ী, আগস্ট মাস পর্যন্ত মোট 40.35 কোটি অ্যাকাউন্টের মধ্যে মোট কার্যকর অ্যাকাউন্ট এর সংখ্যা 34.81 কোটি।