বিশ্বের একাধিক প্রান্তে পৌঁছে গেল ভারতের করোনা ভ্যাকসিন, তালিকা থেকে বাদ পাকিস্তানের নাম

প্রতিবেশী দেশগুলির সঙ্গে ভারতবর্ষ  বন্ধুত্ব এর সম্পর্ক বজায় রাখল। করোনা মহামারীর কঠিন পরিস্থিতিতে বন্ধু দেশের বিপদে পাশে থাকল ভারতবর্ষ। তাই  বুধবার থেকেই করোনার ভ্যাকসিন প্রতিবেশি দেশগুলিতে পাঠানো শুরু করে দিয়েছে ভারত।  ভুটান আর মালদ্বীপে বুধবার  করোনার ভ্যাকসিন পৌঁছে দিয়েছে ভারত৷ ভারতের বিদেশ মন্ত্রী এস জয়শঙ্কর ভুটান আর মালদ্বীপ এই দুই দেশে টিকা পৌঁছে যাওয়ার ছবি ট্যুইটারে শেয়ার করেছেন। বিদেশমন্ত্রী বলেন,” ভারতীয় টিকা মালদ্বীপে পৌঁছে গিয়েছে, এটি আমাদের দৃঢ় বন্ধুত্বের সম্পর্কের নিদর্শন।”

 

জয়শঙ্কর আরও লিখেছেন, ‘#VaccineMaitri শুরু। ভুটানে পৌঁছাল প্রথম খেপ৷ ” এর আগেই বিদেশ মন্ত্রালয়ের মুখপাত্র অনুরাগ শ্রীবাস্তব টুইটারে জানান, ‘ভারত প্রতিবেশী এবং সহযোগী দেশকে কোভিড এর টিকা পাঠানো শুরু করে দিয়েছে। প্রথম খেপ ভুটান আর মালদ্বীপের জন্য রওনা দিয়ে দিয়েছে।”

প্রসঙ্গত উল্লেখ্য, বিদেশ মন্ত্রালয় মঙ্গলবার জানিয়েছিল, ভারত সহায়তা অনুদান অনুযায়ী ভুটান, মালদ্বীপ, নেপাল, মায়ানমার, বাংলাদেশ, শ্রীলঙ্কাকে কোভিড১৯ এর  টিকা পাঠাবে। সেরাম ইনস্টিটিউট এর তৈরি কোভিড ১৯ এর টিকা কোভ্যাকসিন এর  ১ লক্ষ ৫০ হাজার ডোজ ভুটানকে, এবং  এক লক্ষ ডোজ মালদ্বীপকে পাঠানো হয়েছে।

অস্ট্রেলিয়া সিরিজ এখন ইতিহাস! এবার পালা ইংল্যান্ডের, BCCI এর তরফে সিরিজের দল ঘোষণা

ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী টুইট করেন, বিশ্বব্যাপী করোনা ভ্যাকসিনের প্রয়োজন মেটাতে ভারত একজন ‘বিশ্বস্ত’ অংশীদার হয়ে গর্ব বোধ করছে।  বুধবার থেকে ভ্যাকসিন সরবরাহ শুরু হবে৷

প্রসঙ্গত উল্লেখ্য, ভারত কোভিড ১৯ টিকা নির্মাণে বড় ভূমিকা পালন করেছে৷  ভারতের থেকে করোনার ভ্যাকসিন কেনার জন্য অনেক দেশ অপেক্ষা করছে৷ প্রতিবেশী দেশ হলেও পাকিস্তান এখনো করোনার টিকা নেওয়ার ব্যাপারে ভারতের সঙ্গে কোনও যোগাযোগ করেনি। তাই মালদীপ ও ভুটানকে টিকা পাঠানো হলেও তাদের পাঠানো হয়নি৷  ভারতের বিদেশ মন্ত্রনালয় জানিয়েছিল দেশের প্রয়োজনীয়তার কথা ভেবেই আগামী সপ্তাহ থেকে নিয়মমাফিক সহযোগী  প্রতিবেশি দেশগুলিকে কোভিড ১৯ এর  টিকা পাঠানো হবে।