পাকিস্তানের বিরুদ্ধে ভারতের সবচেয়ে বড়ো জয়! ভারতের সাথে এলো এই সিকান্দার।

পাকিস্থানের বিরুদ্ধে আরো একবার বড়ো কূটনৈতিক জয় পেলো ভারত, যা নিয়ে তুমুল চর্চা শুরু হয়েছে রাজনৈতিক মহলে। যদিও এটা প্রথমবার নয় এর আগেও ভারত বহুবার সাফল্য অর্জন করেছে পাকিস্তানের বিরুদ্ধে। তবে এবার ভারতের এই জয়ের ফলে পাকিস্তানকে মুখ থুবড়ে পড়তে হয়েছে। জানলে অবাক হবেন যে, বিশ্বের সর্ব শক্তিমান দেশ আমেরিকা ও ভারতের এই পদক্ষেপে হস্তক্ষেপ করতে ভয় পাচ্ছে। তথ্য অনুযায়ী এটা জানতে পারা গেছে যে, ইরানের দক্ষিণ পূর্ব উপকূলের চাবহার বন্দর এখন ভারত দ্বারা পরিচালিত হবে। এটি আফগানিস্তান ও মধ্য এশিয়ার মধ্যে মাল আদান প্রদান করার কাজে ব্যবহৃত হয়।

তবে এখন থেকে, ভারত-আফগানিস্তান-ইরান এই চাবহার বন্দরকে আন্তর্জাতিক পর্যায়ে উন্নতি করে পণ্য বহন করার কাজ করবে। আগামী বছরই অর্থাৎ 2019 এর ফেব্রুয়ারি মাসে এখানে একটি বড় কার্যক্রমেরও আয়োজন করা হবে বলে জানা যাচ্ছে।রাজনৈতিক দিক থেকে দেখতে গেলে এটি ভারতের একটি অন্যতম সাফল্য।গত সোমবার, এই নিয়ে আফগানিস্তান-ইরানের চাবহার বন্দরে একটি বৈঠকের আয়োজন করা হয়েছিল, যেখানে ইরান ভারতকে বন্দর ভাগের সঞ্চালনের সমগ্র অধিকার দিয়ে দিয়েছে। ইন্ডিয়া পোর্টস গ্লোবাল লিমিটেড কোম্পানির এর মধ্যেই চাবহার বন্দরে কর্মকর্তাদের একটি অফিসও খুলে দিয়েছে।চাবহার বন্দরভাগে হওয়া এই চুক্তিতে তিনটি দেশের পারস্পারিক সম্পর্ক এবং ক্রাগোতে হওয়া সমস্ত ব্যবসা বাণিজ্য এবং সাথে সাথে পণ্যগুলি আদান-প্রদানের যে সম্মতি তার একটি চুক্তিও স্বাক্ষরিত হয়েছে।

আপনাদের সুবিধার্থে বলে দি ভারতের সাথে হওয়া এই চুক্তিতে পাকিস্তান ভারতের ওপর অনেকটাই পরিমাণে রেগে আছে কারণ এই চুক্তির ফলে ভারত পাকিস্তানকে বাইপাস করতে পারে অন্যদিকে জাহাজের মাধ্যমে, ভারত পাকিস্তান পণ্য সরবরাহ বৃদ্ধি করতে সক্ষম হবে। একটা কথা জানা অত্যন্ত জরুরী যে আমেরিকা এই বন্দর ভাগে নিষেধাজ্ঞা লাগিয়ে রেখেছিল কিন্তু ভারতের সেখানে হস্তক্ষেপ করার ফলে আমেরিকা নিজের সমস্ত নিষেধাজ্ঞা সরিয়ে নিয়েছে।সামরিক এবং রাজনৈতিক দিক থেকে দেখতে গেলে এটি ভারতের একটি বড় জয় হিসাবে গণ্য করা হচ্ছে।

আপনি কি ভারতে এই জয়ের ফলে খুশি হয়েছেন?