একসময় Indian idol-এ গান গেয়ে কুড়িয়েছিলেন নেটিজেনদের প্রশংসা, এখন দরিদ্রতায় কাটছেন দিন

বিখ্যাত রিয়ালিটি শো ইন্ডিয়ান আইডলের মঞ্চ থেকে উঠে এসেছেন একাধিক নামিদামি গায়ক গায়িকা। চলতি বছরে ১৩ তম সিজন অনুষ্ঠিত হয়েছিল ইন্ডিয়ান আইডলের, যা ভীষণভাবে জনপ্রিয় হয়েছিল। চলতি বছরে শেষ ছয় প্রতিযোগিতার মধ্যে ছিলেন পবনদ্বীপ রাজন, অরুনিতা কাঞ্জিলাল,সায়নী কাম্বলে, দানিশ মোহাম্মদ,নিহাল ও সম্মুখ প্রিয়া।

ইতিমধ্যেই শীর্ষ প্রতিযোগিরা বিভিন্ন অনুষ্ঠানে অংশগ্রহণ করেছেন। ধীরে ধীরে বিভিন্ন পর্যায়ে তাঁরা প্রতিষ্ঠা লাভ করছেন। আজ তাঁদের অর্থ অথবা কাজ, কোন কিছুরই অভাব নেই।আজ এই প্রতিযোগীদের মধ্যে অন্যতম প্রতিযোগী সাওয়াই ভাটের কথা আলোচনা করবো।

সম্প্রতি মুক্তি পেয়েছে এই প্রতিযোগীর প্রথম অ্যালবামের গান। প্রতিশ্রুতি মত হিমেশ রেশমিয়া নিজেরা অ্যালবামে গান গাওয়ার সুযোগ করে দেন এই প্রতিযোগীকে। ইতিমধ্যে ইউটিউবে ট্রেন্ডিং হয়েছে এই গান। ৩ জুলাই প্রকাশিত হওয়া এই গানের ইতিমধ্যেই দর্শক সংখ্যা প্রায় ১২ লাখের কাছাকাছি।

অনুষ্ঠান চলাকালীন সকলের মনে জায়গা করে নিয়েছিলেন এই প্রতিযোগী। শুধু তাই নয়, অমিতাভ বচ্চনের নাতনি নন্দা নাভেলি ভীষণভাবে ভক্ত হয়ে উঠেছিলেন এই গায়কের। ব্যক্তিগত জীবনে ভীষণ দারিদ্র্যের মধ্যে বেড়ে উঠেছিলেন এই গায়ক। স্বপ্ন ছিল নিজের বাড়ি তৈরি করার যা পূরণ করতে পারেননি তিনি।

ইন্ডিয়ান আইডলে অংশগ্রহণ করার আগে তিনি বিভিন্ন গ্রামে পুতুল খেলা দেখিয়ে উপার্জন করতেন। কিন্তু আজকের যুগে এই খেলায় সেই ভাবে আগ্রহ পোষণ করেন না কেউ, তাই অচিরেই বন্ধ হয়ে যায় এই খেলা। রাজস্থান সরকারের কাছে সাহায্যের জন্য অনুরোধ করা হলেও এখনো পর্যন্ত কোনো প্রতিক্রিয়া পাননি এই গায়ক।

তবে নিজের জীবন নিয়ে ভীষণ আশাবাদী তিনি। গানের মাধ্যমেই আস্তে আস্তে নিজের জীবন বদলে যাবে এমনটাই আশা করেন তিনি। সম্প্রতি হিমেশ রেশামিয়ার হাত ধরে সোশ্যাল মিডিয়ায় ভাইরাল হয়েছে তাঁর গান। গানের জগতে প্রতিষ্ঠিত হতে পারলে প্রতিপত্তি এবং সম্মান কোন কিছুরই অভাব থাকবে না তাঁর, এমনটাই মনে করেন ইন্ডিয়ান আইডল প্রতিযোগী সাওয়াই ভাট।