দেশনতুন খবরবিশেষরাজ্য

বড় ঘোষণা স্বরাষ্ট্রমন্ত্রকের নাগরিকত্ব প্রমাণে লাগবে না পূর্বপুরুষের পরিচয় পত্র…

যখন থেকে কেন্দ্র সরকার নাগরিকত্ব সংশোধনী বিল নিয়ে ঘোষণা করছেন তখন থেকেই দেশজুড়ে শুরু হয়েছে আন্দোলন-বিক্ষোভের,এমনকি রাজ্যেও বিভিন্ন জায়গায় দেখা দিয়েছে একাধিক বিক্ষোভ।
বর্তমানে সারা দেশজুড়ে এখন একটি কথা CAA এবং NRC। CAA এবং NRC নিয়ে বিক্ষোভে উত্তাল সারাদেশ। নাগরিকত্ব সংশোধনী বিল যেদিন থেকে আইনে পরিণত হয়েছে সেই দিন থেকে লোকের মধ্যে নানান ধরনের ভয় কাজ করছে।

এই বিলটি আইনে পরিণত হওয়ার পরে অনেক মানুষ ভাবছেন তাদেরকে ভিটেমাটি ছেড়ে অন্য জায়গায় চলে যেতে হবে। অনেকে আবার এই আইনটি সম্পর্কে সঠিকভাবে জানেনই না। আবার অনেকেই লোকের মুখে শুনে ভয় পেয়ে যাচ্ছেন। মানুষের মনে ভুল ধারণা সৃষ্টি হওয়ার ফলে সারাদেশে বিভিন্ন জায়গায় বিক্ষোভ দেখা যাচ্ছে এই নিয়ে। ঠিক সেই সময় কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্র মন্ত্রকের তরফ থেকে এই নাগরিকত্ব প্রমান নিয়ে বেরিয়ে এলো আবারও এক বড় ঘোষণা।

তাহলে এখন অনেক জনের মনে এই প্রশ্ন আসতেই পারে যে এবার কী এই বিক্ষোভের চাপে শেষমেষ কী নতিস্বীকার মোদি সরকারের, না তা না এবার স্বরাষ্ট্র মন্ত্রকের তরফ থেকে অনুরোধ করে জানানো হয়েছে যে এই নাগরিকত্ব প্রমাণ করতে কোন দেশবাসীকে বাবা-মায়ের কোন পরিচয় পত্রের প্রয়োজন হবে না। এমনকি ক্ষেত্রবিশেষে স্থানীয়দের বক্তব্য কে দেওয়া হবে মান্যতা, সাথে আধার কার্ডকেও দেওয়া হবে প্রাধান্যতা। একথা স্বরাষ্ট্র মন্ত্রকের তরফ থেকে টুইটের মাধ্যমে জানানো হয়েছে।

স্বরাষ্ট্র মন্ত্রকের করা টুইট-টিতে লেখা রয়েছে দেশের নাগরিকত্ব প্রমাণের জন্য পূর্বপুরুষের পরিচয়পত্র বাধ্যতামূলক নয় এক্ষেত্রে।এমনকি এরই সাথে টুইট করে জানানো হয়েছে যে 1971 সালের আগের কোনো নথিও দেখাতে হবে না নিজের পরিচয় পত্রই যথেষ্ট হবে এই নাগরিকত্ব প্রমাণের ক্ষেত্রে।এই সাথে টুইটের মাধ্যমে আরও জানানো হয়েছে যে যদি কোন ব্যক্তি নিরক্ষর থাকে তাহলে সে ক্ষেত্রে তার নাগরিকত্ব প্রমাণের জন্য সেই ব্যক্তি তার গ্রামের বাসিন্দাদের সাক্ষী হিসাবে প্রস্তুতি করার অনুমতি পাবেন। এর ফলে কোন ব্যক্তিই নাগরিকত্ব সংশোধনী আইনের ফলে সমস্যায় পড়বেন না।

Related Articles

Back to top button