একশন শুরু! পাকিস্থান থেকে নিজের রাজদূত ডেকে নিল ভারত। পাকিস্থানের রাজদূতকেও দিল্লী ছাড়ার জন্যও দেওয়া হতে পারে আদেশ।

আজ সকালে প্রধানমন্ত্রীর নরেন্দ্র মোদীর বাড়িতে স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী, সুরক্ষামন্ত্রী ও এনএসএ অজিত দোভালের জম্মু ও কাশ্মীরে নিরাপত্তা বিষয়গুলি নিয়ে গুরুত্বপূর্ণ বিষয়গুলি নিয়ে মিটিং হয়েছে। এই মিটিংয়ের ঠিক করা হয়েছে, ভারত পাকিস্তানের MFN এর মর্যাদা বাতিল করে দেওয়া হয়। আজকের পর থেকে ভারত পাকিস্তানের সাথে অধিকারী ভাবে শত্রু দেশের মতো ব্যবহার করবে। এই মর্মান্তিক দুর্ঘটনার পর ভারত সরকার পাকিস্তানের বিরুদ্ধে অ্যাকশন নেওয়া শুরু করে দিয়েছে এবং একটা বড় খবর সবার সামনে আসতে চলেছে। গোপন সূত্রে খবর পাওয়া যায়, পাকিস্থানের ভারতের যে রাজদূত নিযুক্ত ছিল তাদেরকে ভারত ডেকে নিয়েছে।পাকিস্থানের ভারতের রাজদূত অজয় বিশারিয়াকে ডেকে নিয়েছে।

 

আজ রাতের মধ্যে পাকিস্তান থেকে উনি ভারতের ফিরে চলে আসবেন। এখন পরিস্থিতি খুবই সংকটজনক তাই সব খবর সবার সামনে আনা যাচ্ছে না। তবে রাজদূতকে ভারতে ফিরিয়ে আনার পদক্ষেপ অনেক বড় কাজ করবে বলে জানা গিয়েছে। কয়েক ঘণ্টা পরই সরকার জাপান, ইজরায়েল, ইউরোপিয়ান ইউনিয়নের প্রতিনিধিদের সাথে মিটিংয়ে বসবে বলে গোপন সূত্রে জানা গিয়েছে। পাকিস্তানের বিরুদ্ধে এর বদলা নেওয়া হবে এটা ঠিক করে নিয়েছে মোদি সরকার। ভারতের রাজদূত কে ডেকে নেওয়ার পর দিল্লি থেকে পাকিস্তানের রাজদূত কে চলে যাওয়ার আদেশ দিতে পারে বলে মনে করা হচ্ছে। আজ সকালে MFN মর্যাদা বাতিল করে দেওয়ার পরেই আমরা বলে দিয়েছিলাম যে ভারত রাজদূত সরিয়ে নিতে পারে, আর ঠিক এটাই হলো। ভারত জাওয়ানদের জম্মু – কাশ্মীরের বিভিন্ন জায়গাতে নিযুক্ত করে দিয়েছে নিরাপত্তার জন্য।

প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী ও স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী রাজনাথ সিং নেওয়া পদক্ষেপ গুলি থেকে বোঝা যাচ্ছে এর বদলা ঠিক নেওয়া হবে। রাজনাথ সিং বলেছেন এবারের শিক্ষা ইতিহাসের পাতায় লেখা থাকবে। অপরদিকে প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী বলেছেন, আতঙ্কবাদী ও তাদের পোষোণ কারীরা এই কাজটি করে খুবই ভুল করেছে এর মাশুল ওদের দিতেই হবে।