রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রীর বড় ঘোষণা! বাড়ানো হলো নতুন রেশন কার্ড তৈরির ও ভুল সংশোধনের সময় সীমাকে..

এবার রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের নতুন করে ডিজিটাল রেশন কার্ড তৈরি ও কার্ডের ভুল সংশোধন করার জন্য সময়সীমা কে আরো বাড়ালেন। মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দোপাধ্যায় ঘোষণা করলেন 5 ই নভেম্বর থেকে 30 নভেম্বর পর্যন্ত নতুন করে ডিজিটাল রেশন কার্ডের আবেদন ও সংশোধন করা হবে। তবে এবার প্রায় এক মাস বাড়ানো হল এই সময়সীমা কে। এই দিন রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রী পশ্চিম মেদিনীপুরের ডেবরায় এক প্রশাসনিক বৈঠকে নতুন ডিজিটাল রেশন কার্ডের জন্য আবেদন ও রেশন কার্ডের ভুল সংশোধনের জন্য সময়সীমা কে বাড়ানোর কথা ঘোষণা করেন।

তবে গতকালই খাদ্যমন্ত্রী জ্যোতিপ্রিয় মল্লিক জানিয়ে ছিলেন যে এবার ডিজিটাল রেশন কার্ডের সংশোধন করার সময়সীমা বাড়ানো হতে পারে তবে কবে থেকে বাড়ানো হবে কিংবা কত সময় পর্যন্ত বাড়ানো হবে তা নির্দিষ্ট করে কিছু জানাননি তিনি। খাদ্যমন্ত্রী জানিয়েছিলেন এ বিষয়ে সঠিক নির্ধারিত সময় জানিয়ে দিবেন রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রী নিজেই। আর তারপরই আজ পশ্চিম মেদিনীপুরের ডেবরায় এক প্রশাসনিক বৈঠকে সেই দিনকাল ঘোষণা করলেন রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রী।

যেমন কি আপনারা জানেন যে রাজ্য সরকারের খাদ্য ও সরবরাহ দপ্তর এর তরফ থেকে খাদ্যসাথী প্রকল্পের জন্য ডিজিটাল রেশন কার্ড তৈরি ও সংশোধনের প্রকল্প নেওয়া হয়েছিল যা 9 সেপ্টেম্বর থেকে শুরু করা হয়েছিল প্রথম দফায় বলা হয়েছিল আগামী 27 সেপ্টেম্বর শেষ হয়ে যাচ্ছে এর কর্মসূচি।তবে রেশন কার্ড সংশোধনের জন্য ও ডিজিটাল কার্ড তৈরির জন্য যেভাবে জেলায় জেলায় মানুষের সংখ্যা বেড়েছে তার দরুন সরকারকে ফের নতুন করে আরও সময়সীমা বাড়াতে হল এর জন্য।

আর তারপরই 28 তারিখ পড়েছে মহালয়ার পরের সপ্তাহ থেকে শুরু হতে চলেছে বাঙালির সবচেয়ে বড় উৎসব দুর্গাপূজা। তাই এবার জানিয়ে দেওয়া হচ্ছে পুজো পার্বন সব শেষ করে 5 নভেম্বর থেকে শুরু হতে চলেছে আবার এই কর্মসূচি।তবে এখন প্রশ্ন অনেকের মনে এটা জাগতে পারে যে ডিজিটাল রেশন কার্ডের জন্য কিভাবে দরখাস্ত করতে পারবেন তারা? তবে বলে রাখি এই বিষয়ে সমস্ত দরখাস্ত টি করা হবে অফলাইন মাধ্যমে ছুটির দিন বাদে সকাল 10 টা থেকে বিকেল পাঁচটা পর্যন্ত চলবে রেশন কার্ডের সংশোধনের কাজ। ভুল সংশোধন ও নতুন কার্ড তৈরির জন্য বিডিও অফিস, মিউনিসিপালিটি অফিসে, বেরো অফিসে চলবে এই কাজ।