আদালতের নির্দেশ অমান্য করায়, রাজ্য সরকারকে দিতে হবে 5 কোটি টাকার জরিমানা।

আজকের ব্রেকিং নিউজ নিয়ে চলে এসেছি আপনাদের জন্য। বায়ু দূষণের জন্য রাজ্য সরকারকে ৫ কোটি টাকা জরিমানার নির্দেশ জাতীয় পরিবেশ আদালতের।জরিমানা দিতে হবে ১৪ দিনের মধ্যে অন্যথায় প্রতি মাসে ১ কোটি টাকা জমার নির্দেশ। ২০১৬ সালে বায়ু দূষণনের জন্যে পরিবেশ আদালতে মামলা করা হয় এবং এই মামলাটি করেন পরিবেশ কর্মী “সুভাষ দত্ত” ।বায়ু দূষণ রুখতে আদালতের নির্দেশ অমান্য করেছে সরকার, আবার এই অভিযোগে আদালতের দ্বারস্থ হন সুভাষ দত্ত । সেই মামলার পরিপ্রেক্ষিতে আদালতের জরিমানা নির্দেশ রাজ্য সরকারকে।

সুভাষ দত্ত জানিয়েছেন, ” আদালত ক্ষোভ প্রকাশ করেছে, কলকাতার বায়ু দূষণ কখন কখনও দিল্লিকেও ছাড়িয়ে যাচ্ছে, হাওড়ার বায়ু দিন দিন আরও বেশি পরিমাণে দূষিত হচ্ছে। কমিটি রাজ্যকে অনেকবার দূষণ নিয়ন্ত্রণ করার নির্দেশ দিলও রাজ্য তেমন ভাবে কোনো কড়া পদক্ষেপ নেয়নি। যারা এ সর্তকতা মানেনি তাদেরকে জেলে পাঠিয়ে দেওয়া উচিৎ এমনটাই মন্তব্য সুভাষের, কিন্তু কোর্ট এবার শেষ সুযোগ দিয়ে ৫ কোটি টাকা জরিমানা করে রাজ্য কে কড়া নির্দেশ দিয়ে দিল” । এছাড়াও তিনি বলেছেন , ‘কিছুদিন আগে দিল্লিতে প্রশাসন ৪০ লক্ষ গাড়ি বাতিল করে দিয়েছে, কিন্তু আমাদের রাজ্য তেমন ভাবে কোন পদক্ষেপ নিচ্ছে না। এমনি ভাবে চলতে থাকলে দূষণ আরো দিন দিন বেড়েই চলবে’।

একমাত্র রাজ্যের সরকার কিছু কড়া পদক্ষেপ নিলেই দূষণকে কমানো যাবে, এছাড়াও মানুষকে দিন দিন আরো সতর্ক হতে উঠতে হবে। জঞ্জাল জ্বালিয়ে দেওয়া , রাস্তা ঘাটে জল জমতে না দেওয়া, আবর্জনাকে মাটির নিচে দাবিয়ে ফেলা, আরো নানা পদক্ষেপ নিয়ে পরিবেশকে দূষণমুক্ত করতে হবে।

বন্ধুরা , পরিবেশ বাঁচাতে আমাকে, আপনাকে ও সবাইকে একসাথে উদ্যোগ নিতে হবে। সুতরাং আজকের নিউজটি আপনাদের কেমন লাগল আমাদেরকে কমেন্ট বক্সে নিশ্চয় জানাবেন।

Related Articles

Leave a Reply

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.

Close