নতুন খবরবিশেষলাইফ স্টাইল

ইতিহাস বদলাতে চলেছেন মোদী ! করে দিলেন বড় ঘোষণা, বললেন ১৯৪৭ এ হওয়া বড় ভুলের প্রায়শ্চিত্ত ..

প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি ২০১৯ এর  লোকসভা ভোটের আগেই নিজেকে আরো ভালো করে প্রস্তুত করে নিতে চান, কারণ তিনি ২০১৯ এর লোকসভা ভোট নির্বাচনে কোনরকম কমতি রাখতে চান না । সেইসঙ্গে জনগণের সামনে নিজের প্রতিচ্ছবি আরো সচ্ছল রাখতে চান যাতে  তিনি ২০১৯ এও পুনরায় দেশের প্রধানমন্ত্রী নির্বাচিত হতে পারেন। বিধান সভার ভোটে কংগ্রেসের কাছে হেরে যাওয়ার পর থেকে বিজেপির প্রায় সকল কার্যকর্তা  এবং নেতারা আগের তুলনায় অনেকটাই সতর্ক হয়ে গেছে। আর এমতাবস্থায় মোদীজী দেশের জনগনকে একত্র করার জন্য এমন একটি সিদ্ধান্ত নিলেন যেটাতে দেশের উচ্চবর্গের অনেক বড়ো লাভ হবে ।

আর এই সিদ্ধান্তটির জন্য  প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী  ইতিহাস গড়ে তুললেন। আসুন এই খবরটি সম্মন্ধে আপনাদের বিস্তারিত ভাবে জানাই। আপনাদের জানিয়ে দিই, দিল্লিতে ভারতের প্রধানমন্ত্রী মোদিজি  ,গুরু গোবিন্দ জী এর স্মরণারথে একটি কয়েন জারি করে বললেন, গুরু গোবিন্দ জী এর কয়েনটি বহু বর্ষ ধরে আমাদের মনে চলছে। এটা আপনারা সকলেই জানেন যে ,গুরু গোবিন্দ জী খালসার পঁথ এর দ্বারা  সমগ্র ভারতকে একজোট করে রাখতে ছেয়েছিলেন। তার এই পথ ধরেই এবার নরেন্দ্র মোদী তার স্মরণারথে কর্তারপুর বারান্দা বানাতে যাচ্ছেন।এই বারান্দা টি বানানোর ফলে লাভ এটা হবে যে,সব ভারতীয় গোবিন্দ সিংহ এর দর্বারটির দর্শন নিজের চক্ষু দিয়ে করতে পারবেন। আপনাদের জানিয়ে দি যে, এই  কর্যোক্রমে দেশের পূর্ব প্রধানমন্ত্রী মাননীয় মনমোহন সিংহ ও উপস্থিত ছিলেন।

মোদীজী এটাও বললেন যে,১৯৪৭ সালে কংগ্রেস  যে ভুলটি করেছিল তার জন্যই এই  প্রায়শ্চিত্ত । কারণ  গুরু গোবিন্দ সিং জী এর সবথেকে বড় অংশটি ভারতেই ছিল আর সেটা সমগ্র ভারত বিভাজনের সময় পাকিস্থানে অধিকারে চলে যায়। গোবিন্দজির সেই দরবারটির একবার মাত্র দর্শনের জন্য ভারতীয়দের  দুরবিনের সাহায্য নিতে হত। কিন্তু এই কোরিডোর টি সেই ক্ষতিপূরণেরই প্রমাণ। সেইসঙ্গে মোদি জী এও বললেন যে, ভারতের সংস্কৃতি এবং রাজত্বকে সমগ্র বিশ্বের  কোনায় কোনায়  পৌঁছে দেওয়ার কাজ চলছে। গুরু গোবিন্দ সিংহ এর কাব্যগুলিও ভারতের জনজীবনে  একটি অভিব্যাক্তি।মোদিজী বললেন, যেভাবে গুরু গোবিন্দ সিং জীর ব্যাক্তিত্ব বহুতর তেমনি তার লেখা ক্যাব্যগুলীয়  অনেক গুলি বিষয়ে লেখা। আপনাদের প্রধানমন্ত্রীর এই ঘোষণাটি কেমন লেগেছে তা আমাদের অবশ্যই জানাবেন।

Related Articles

Back to top button