নতুন খবরবিশেষলাইফ স্টাইল

SBI গ্রাহকদের জন্য বেরিয়ে এল সুখবর! কমানো হল ঋণের ক্ষেত্রে সুদের হার কমবে EMI এর পরিমাণও…

দেশজুড়ে করোনা সংক্রমণ রুখতে যে লকডাউন চলছিল তার জেরে দেশের অর্থনীতি একপ্রকার মুখ থুবড়ে পড়েছে। যেমনটা আমরা দেখতে পেয়েছি মার্চ মাসের শেষের দিকে দেশজুড়ে লকডাউন ঘোষণার জেরে অর্থমন্ত্রী নির্মলা সীতারমণ কোটি কোটি গ্রাহকের জন্য বিশেষ ঘোষণা করেছিলেন যেখানে সাধারণ মানুষের কোনো সমস্যা না হয় তার জন্য নেওয়া হয়েছিল এই একাধিক সিদ্ধান্ত। এই সিদ্ধান্তের মধ্যে ছিল আগামী তিন মাস অর্থাৎ 30 জুন পর্যন্ত কোন ব্যাংকের সেভিং অ্যাকাউন্টে ন্যূনতম টাকা বাধ্যতামূলক ছিল না। এক্ষেত্রে কোন ব্যক্তি যদি নুন্যতম ব্যালেন্স রাখতে না পারেন তাহলে তাকে এর জন্য কোনো পেনাল্টি দিতে হত না।

তাছাড়া এই লকডাউনের বাজারে বিভিন্ন ব্যাংক গ্রাহকদের সুদের হার অনেকখানি কমিয়ে দিয়েছিল যার ফলে এক প্রকার চিন্তায় পড়েছিল দেশের সাধারণ মানুষ। এবার গ্রাহকদের স্বস্তি দিয়ে দেশের বৃহত্তম রাষ্ট্রায়ত্ত ব্যাংক স্টেট ব্যাংক অফ ইন্ডিয়ার থেকে বেরিয়ে এলো সুখবর। SBI এর তরফ থেকে গ্রাহকদের সুবিধার্থে ঋণের উপর সুদের হার কমানোর কথা ঘোষণা করেছে, State Bank MCLR 0.05 থেকে 0.10 শতাংশ কমাচ্ছে‌। এই বিষয়ে ব্যাংকের তরফ থেকে জানানো হয়েছে এক্ষেত্রে দেশের সবচেয়ে কম MCLR রেট নিয়ে থাকে স্টেট ব্যাঙ্ক।

এবার নতুন যে রেটটি লাগু করা হবে সেটি 10 জুলাই থেকে হবে। যদিও এর আগে গত জুন মাসেও MCLR রেট কমিয়েছিল এসবিআই। আর গতবারের সাথে তুলনা করে এইবার মোট 14 বার এই রেট কমালো SBI।তবে এক্ষেত্রে শুধু SBI ই নয়, এরপর এবার পাঞ্জাব ন্যাশনাল ব্যাঙ্ক, ব্যাঙ্ক অফ ইন্ডিয়া, ইউকো ব্যাংক ঋণের উপর সুদের হার কমানোর পথে হাঁটতে চলেছে। তবে শুধু তাই নয় এক্ষেত্রে SBI যে বেস রেট কমিয়েছে তার জেরে ইএমআই ও খানিকটাও কমবে।

তবে এক্ষেত্রে নতুন পরিমাণে যে সুদের হার দাঁড়াবে তার লাভ কিন্তু পুরনো যেসব গ্রাহকের রয়েছেন যারা 2016 সালে ঋণ নিয়েছিলেন তারা পাবেন না এক্ষেত্রে যারা এখন ঋণ নিচ্ছেন তারা এর লাভ উঠাতে পারবেন। গত মে মাসে MCLR এর পরিমান 7.40 শতাংশ থেকে কমিয়ে 7.25% করা হয়েছিল যার জেরে এর সাথে যুক্ত থাকা গৃহঋণ প্রকল্পে 30 বছরের পরিষদের মেয়াদে 25 লক্ষ টাকা অব্দি গৃহঋণে EMI দিতে হতো তার ক্ষেত্রে বছরে প্রায় 250-260 টাকা করে কমেছিল।

Related Articles

Back to top button