মাস শেষ হবার 5 দিন আগেই কেন্দ্রীয় কর্মচারীদের ব্যাংকে চলে আসবে তাদের বেতন, এই কারণেই ..

সকল কেন্দ্রীয় কর্মচারী ও আধিকারীদের জন্য সুখবর বেরিয়ে আসছে। কেন্দ্রীয় অর্থমন্ত্রকের তরফ থেকে একটি বিবৃতি জারি করা হয়েছে যেখানে বলা হচ্ছে এই মাসে 25 সেপ্টেম্বর সকল কেন্দ্রীয় কর্মচারী ও অধিকারিকদের বেতন দেওয়ার জন্য কেন্দ্রীয় সরকারের সমস্ত বিভাগে এক নির্দেশ জারি করা হয়েছে। তাই এবার কেন্দ্রীয় অধিকারী ও কর্মীরা সেপ্টেম্বর মাসের জন্য পাঁচ দিন আগেই তাদের বেতন পেয়ে যাবেন।

আরো বলে রাখি চলতি অর্থবছরে এই প্রথমবার হবে যখন শ্রমিকেরা তাদের বেতন পাঁচদিন আগে পেয়ে যাবে অর্থাৎ মাস শেষ হওয়ার আগেই তারা তাদের বেতন পেয়ে যাবে। তবে এই বেতন খুব তাড়াতাড়ি পাবার একটিই কারণ রয়েছে যেটি হল ব্যাংক হরতাল ও ছুটি। কারণ ব্যাংক ইউনিয়নে তরফ থেকে 26 এবং 27 সেপ্টেম্বর ধর্মঘট করার ঘোষণা করা হয়েছে।তারপর আবার 28 তারিখ পড়েছে শনিবার 29 তারিখ রবিবার তাই এই দুটি দিনও বন্ধ থাকবে ব্যাংকের পরিষেবা।

শুধুমাত্র 30 সেপ্টেম্বর ব্যাংক খোলা হবে তবে সেদিন ব্যাংক তাদের সমাপনী দিন হিসাবে ঘোষণা করেছে তাই এই দিনটিতে সাধারণ কাজকর্ম ও ব্যবসা বন্ধ থাকবে।তাহলে ব্যাংক প্রথম দুদিন ধর্মঘট থাকবে তারপর দু’দিন পড়ছে শনি এবং রবিবার যথাক্রমে, শুধুমাত্র খোলা থাকবে 30 শে সেপ্টেম্বর তবে সেদিন সাধারণ কাজকর্ম বন্ধ থাকবে ব্যাংকের। অর্থ মন্ত্রণালয় তরফ থেকে যে নির্দেশটি জারি করা হয়েছে সেখানে বলা হয়েছে কেন্দ্রীয় সরকারি কর্মচারীদের বেতন 25 সেপ্টেম্বর দিয়ে দেওয়া উচিত।

যদিও 30 শে সেপ্টেম্বর মাসের বেতন হিসাবে দিতে হয় সকল কেন্দ্রীয় কর্মচারীদের, তবে এবার এই চার দিন ব্যাংকের পরিষেবা বন্ধ থাকায় ব্যাংকে কোনো কাজ হবে না তাই এমন এক পরিস্থিতিতে লক্ষ্য লক্ষ্য শ্রমিকদের বেতন আটকে যেতে পারে।তাছাড়া সামনে দুর্গাপুজো বাঙ্গালীদের সবচেয়ে বড় উৎসব তাই এমন এক পরিস্থিতিতে সময় মত বেতন হাতে না পেলে বড় রকম সমস্যার সম্মুখীন হতে পারেন তারাও। তাই তাদের যাতে এইসব সমস্যার সম্মুখীন না হতে হয় যারজন্যই কেন্দ্রীয় কর্মচারী ও অধিকারীদের বেতন নিয়ে কেন্দ্রীয় অর্থমন্ত্রকের তরফ থেকে এমন এক বিবৃতিতে জারি করা হয়েছে। তাই সেসব সরকারি কর্মচারীদের কথা মাথায় রেখেই এই মাসের বেতনটি 5 দিন আগে ছেড়ে দেওয়ার নির্দেশ দেওয়া হয়েছে অর্থ মন্ত্রকের তরফ থেকে।