বাংলায় বাড়তে চলেছে কর্মসংস্থান, সুযোগ রয়েছে পাঁচ হাজার কোটি টাকা বিনিয়োগের ।

এই বছরই রাজ্য সরকার এক নতুন নীতি আনতে চলেছে। তার নাম হলো লজিস্টিক নীতি । রাজ্য সরকার সাফ জানিয়ে দিয়েছে তারা লজিস্টিক বিষয়টিকে একটু বেশি গুরুত্ব দিতে চান। এই নীতি যদি কার্যকর ভূমিকা পালন করে তাহলে 2020 র মধ্যে বাংলায় 5 হাজার কোটি টাকা বিনিয়োগ আসতে পারে বলে জানিয়েছেন রাজ্যের শিল্প ও অর্থমন্ত্রী অমিত মিত্র। এবং রাজ্যে বেকারের সংখ্যা অনেকটাই কমে যাবে এর ফলে।
এক অনুষ্ঠানে অমিত মিত্র বলেন, ‘ সমস্ত পূর্বাঞ্চলের অন্যতম লজিস্টিক হাব হিসেবে রাজ্য কে যাতে তুলে ধরা হয় তার জন্য রাজ্য সরকার প্রস্তুতি নিচ্ছে। আর তার মধ্যে বিশেষ ভূমিকা পালন করতে পারে জলপথ।

এখানে প্রায় 295 টি নদীকে পরিবহন হিসেবে কাজে লাগাতে পারে রাজ্য। আরো জানা গেছে ,তাজপুর বন্দরটিকে অন্যতম গুরুত্বপূর্ণ লজিস্টিক হাব হিসেবে দেখতে পাচ্ছে রাজ্য।
অমিত মিত্র আরো বলেন যে তাজপুরে প্রায় দেড় হাজার একর জমি রয়েছে। আর এত বড় জায়গাতে লজিস্টিক হাব ও গুদামঘর হতে পারে। শিল্পমন্ত্রী ও জানিয়েছেন যে কলকাতা ও হলদিয়া এই দুটি বন্দর এর থেকে অনেক উপকৃত হবে। তিনি এও বলেন যে জলপথ এবং সড়কপথের পাশাপাশি আকাশপথে পরিবহন হিসেবে কাজে লাগানো হোক।

এইদিন একটি সংস্থা একটি রিপোর্ট পেশ করেন তাতে রাজ্যের নাম উল্লেখ করা হয়েছে যেখানে লজিস্টিক হাব হওয়ার সম্ভাবনা আছে।এর মধ্যে রয়েছে হুগলির ডানকুনি, দুর্গাপুর, তাজপুর, মালদহ এবং শিলিগুড়ি। এ হাব গুলিতে প্রত্যক্ষভাবে 30000 এবং পরোক্ষভাবে প্রায় 1 লক্ষ কর্মসংস্থানের সুযোগ হতে পারে বলে রিপোর্টে জানানো হয়েছে।তবে এটা কতখানি কার্যকর তা ফলস্বরূপ পরবর্তীকালে জানতে পারা যাবে।